Feedback

খেলার খবর

যে কারনে নেইমার লাল দেখেছেন

যে কারনে নেইমার লাল দেখেছেন
September 16
12:50am
2020
Abdul kaium
Barura, Comilla, প্রতিনিধি:
Eye News BD App PlayStore

বর্ণবাদ যেন খেলার মাঠ কেও ছাড় দিচ্ছেনা, যার প্রমাণ ফুটবল বিশ্ব আবারও দেখলো। এবার বর্ণবাদের শিকার হলেন পিএসজির তারকা ব্রাজিলিয়ান সুপার স্টার নেইমার জুনিয়র।  পিএসজি বনাম মার্শেইয়ের ম্যাচে ফের বর্ণবাদের ঘটনা ঘটে। 

গত রবিবার রাতে মুখোমুখি হয় ফরাসি লীগের দুই দল পিএসজি বনাম মার্শেইয়ে। মার্শেইয়ের আলভারো গঞ্জালেজের মাথার একদম পেছন দিকে থাপ্পড় মেরে দ্বিতীয় হলুদ দেখে মাঠ ছাড়েন নেইমার জুনিয়র। খেলা শেষে ব্রাজিলিয়ান সুপার স্টার নেইমার দাবি করেছেন, মাঠে আলভারো গঞ্জালেজের কাছ থেকে তিনি বর্ণবাদের  শিকার হয়েছেন।

নেইমার তার টুইটারে নিজের ভেরিফাইড একাউন্ট থেকে একটি টুইট করেন, আর সেখানে তিনি গঞ্জালেজের শাস্তি দাবি করেছেন। ম্যাচ শেষে নেইমার গঞ্জালেজকে উদ্দেশ্য করে টুইটারে লিখেছেন,  আমার একমাত্র আফসোস ওর পেছনে ঘুষি না মেরে সামনে মারতে না পারা।

পিএসজি বনাম মার্শেইয়ের ম্যাচে নেইমার সহকারে দুই দলের মোট ৫ জন খেলোয়াড়কে রেফারি লাল কার্ড দেখিয়েছেন। সব মিলিয়ে পুরো ৯০ মিনিটের খেলায় রেফারিকে ১৭ বার ই হলুদ কার্ড দেখাতে হয়েছে। এরকম আক্রমনাত্মক ম্যাচে ঘরের মাঠে মার্শেইয়ের কাছে ১-০ গোলে হেরেছে পিএসজি। এই ম্যাচ নিয়ে লীগে টানা দুই ম্যাচ পরাজিত হলো বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।

খেলা শেষে নেইমার দুই ঘন্টার ব্যবধানে দুইটি টুইট করেছেন। প্রথম টুইটে লিখেছেন,  আমার একটাই আফসোস ওর মুখে মারা উচিত ছিলো ঘুষিটা। প্রথম টুইট করেছিলেন ম্যাচ শেষ হবার পর পর ই। প্রথম টুইট করার বেশ কিছুক্ষণ পর দ্বিতীয় টুইট করেছেন, দ্বিতীয় টুইটে তিনি গঞ্জালেজের শাস্তি দাবি করেছেন। এবং সমালোচনা করেছেন ভিএআরের।

নেইমার লিখেছেন,  ভিএআর দিয়ে আমার হিংস্রতা বিচার করা সহজ, এখন আমি চাই, যে বর্ণবাদী আমাকে মাঠে বানর বলে গালি দিলো তার ছবিটাও সবার সামনে প্রকাশ হওক। আমি রেইনবো ফ্লিক করলে শাস্তি দেওয়া হয়, আমি থাপ্পড় দিলে মাঠ থেকে বের করে দেওয়া হয় এখন ওদের কি হবে?

তিনি লিখেছেন, ‘ভিএআর দিয়ে আমার সিংস্রতা বিচার করা সহজ। এখন আমি চাই যে বর্ণবাদী আমাকে মাঠে বানর বলে গালি দিল, তার ছবিটাও সামনে আসুক। এরপর? আমি রেইনবো ফ্লিক করলে, আমাকে শাস্তি দেওয়া হয়। আমি থাপ্পড় দিলে মাঠ থেকে বের করে দেওয়া হয়। ওদের কী হবে? এখন ওদের কী হবে?’

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

বগুড়ায় ডেকে নিল বান্ধবী, ধর্ষণ করল ‘যুবলীগ নেতা’!

বগুড়ায় ডেকে নিল বান্ধবী, ধর্ষণ করল ‘যুবলীগ নেতা’!

হাটহাজারী মাদ্রাসা পরিচালনায় তিন শিক্ষক, বাবুনগরী পেলেন ২ দায়িত্ব

হাটহাজারী মাদ্রাসা পরিচালনায় তিন শিক্ষক, বাবুনগরী পেলেন ২ দায়িত্ব

পাইকগাছায় নার্সের স্বর্নের লকেট ছিনতাই করে পালানোর সময় দু'কলেজ ছাত্র আটক

পাইকগাছায় নার্সের স্বর্নের লকেট ছিনতাই করে পালানোর সময় দু'কলেজ ছাত্র আটক

এনএসআই ও বিজিবি’র যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ আটক-১

এনএসআই ও বিজিবি’র যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ আটক-১

ঘোড়াঘাটের ইউএনও ওয়াহিদাকে ওএসডি, স্বামীকে বদলী

ঘোড়াঘাটের ইউএনও ওয়াহিদাকে ওএসডি, স্বামীকে বদলী

কে হচ্ছেন হেফাজতের পরবর্তী আমির

কে হচ্ছেন হেফাজতের পরবর্তী আমির

সাবেক ওসি প্রদীপের সকল স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

সাবেক ওসি প্রদীপের সকল স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

রৌমারীতে চর লাঠিয়াল ডাঙ্গা এলাকায় নতুন হাটের সূচনা সমন্ধে আলোচনা সভা

রৌমারীতে চর লাঠিয়াল ডাঙ্গা এলাকায় নতুন হাটের সূচনা সমন্ধে আলোচনা সভা

আমতলীতে সড়ক দুর্ঘটনায় পল্লী চিকিৎসক নিহত

আমতলীতে সড়ক দুর্ঘটনায় পল্লী চিকিৎসক নিহত

মসজিদে বিস্ফোরণ: গ্রেফতার মোবারক রিমান্ডে

মসজিদে বিস্ফোরণ: গ্রেফতার মোবারক রিমান্ডে

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসিসহ ৫ জন প্রত্যাহার

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসিসহ ৫ জন প্রত্যাহার

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

কবিতাঃ বৃষ্টি জলের ছোঁয়া

কবিতাঃ বৃষ্টি জলের ছোঁয়া

আবরারের বাবা অসুস্থ: মামলার প্রথম দিনেই সাক্ষ্য গ্রহণ হয়নি

আবরারের বাবা অসুস্থ: মামলার প্রথম দিনেই সাক্ষ্য গ্রহণ হয়নি

নামাজ পড়িয়ে বাড়ি ফেরার পথে খুন মসজিদের ইমাম

নামাজ পড়িয়ে বাড়ি ফেরার পথে খুন মসজিদের ইমাম

সর্বশেষ

লকডাউন প্রত্যাহারের দাবিতে স্পেনে বিক্ষোভ!

লকডাউন প্রত্যাহারের দাবিতে স্পেনে বিক্ষোভ!

নোবেল পুরষ্কারের জন্যে মনোনীত সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আবিদ

নোবেল পুরষ্কারের জন্যে মনোনীত সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আবিদ

সনেট কবিতাঃএতো মায়া ! কবি- মোঃজাহাঙ্গীর আলম!

সনেট কবিতাঃএতো মায়া ! কবি- মোঃজাহাঙ্গীর আলম!

আন্তঃ আফগান বৈঠক ফলপ্রসূ নয়!

আন্তঃ আফগান বৈঠক ফলপ্রসূ নয়!

বিএসএফের তাড়ায় নিখোঁজ বাবার জন্য সন্তানদের অপেক্ষা

বিএসএফের তাড়ায় নিখোঁজ বাবার জন্য সন্তানদের অপেক্ষা

হচ্ছে না শিকদার বাড়ির সবচেয়ে বড় দূ্র্গা পূজা

হচ্ছে না শিকদার বাড়ির সবচেয়ে বড় দূ্র্গা পূজা

মহিষ চুরির অভিযোগে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রকে ১৯ বছর দেখিয়ে মামলা

মহিষ চুরির অভিযোগে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রকে ১৯ বছর দেখিয়ে মামলা

সন্ধ্যার পর রাজধানীতে স্বস্তির বৃষ্টি

সন্ধ্যার পর রাজধানীতে স্বস্তির বৃষ্টি

করোনা সচেতনতা বৃদ্ধিতে এবার শায়েস্তাগঞ্জ জংশনে পটনাট্য

করোনা সচেতনতা বৃদ্ধিতে এবার শায়েস্তাগঞ্জ জংশনে পটনাট্য

নির্মমতার চরম পর্যায়ে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন

নির্মমতার চরম পর্যায়ে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

একাধিকবার বাড়ানো যাবে বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম

একাধিকবার বাড়ানো যাবে বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দাম

নবীনগরে লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের উদ্যোগে ৫০০ শত তালের বীজ রোপণ

নবীনগরে লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের উদ্যোগে ৫০০ শত তালের বীজ রোপণ

প্রাতিষ্ঠানিক ই-মেইল পাবে জবি শিক্ষার্থীরা: জবি উপাচার্য

প্রাতিষ্ঠানিক ই-মেইল পাবে জবি শিক্ষার্থীরা: জবি উপাচার্য

মদ তৈরীর কারখানা আবিস্কার,  সৈনিকলীগ নেতাসহ গ্রেপ্তার ২

মদ তৈরীর কারখানা আবিস্কার, সৈনিকলীগ নেতাসহ গ্রেপ্তার ২