হাসান আল মাহমুদ( - (Dhaka))
প্রকাশ ৩০/১১/২০২১ ১২:১৪পি এম
হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব ও রাজধানীর খিলগাঁও মাখজানুল উলুম মাদ্রাসার মুহতামিম আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদীর জানাজা নামাজ সম্পন্ন হয়েছে। রাত ৯ টায় জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে তার জানাজা নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। তার জানাজা নামাজের ইমামতি করেছেন হেফাজত আমির আল্লামা মুহিব্বুল্লাহ বাবুনগরী।

হেফাজত মহাসচিব এর জানাজায় অংশ নিয়েছেন হেফাজত নেতা, দেশবরেণ্য ওলামায়ে কেরাম ও সবশ্রেণীর মানুষ।

মাত্র কয়েক মাসের ব্যবধানে সাবেক মহাসচিব আল্লামা নুর হোসাইন কাসেমী ও এক সময়ের মহাসচিব ও আমির আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীকে  হারিয়ে  আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদীর জানাজায় অংশ নেওয়া সবাই ছিলেন শোকে স্তদ্ধ। জানাজায় উপস্থিত মানুষেরা প্রতিষ্ঠাতা আমির শায়খুল ইসলাম আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ. -এর কথা স্মরণ করেও শোক প্রকাশ করেন।

জানাযার পূর্বে হেফাজতে ইসলামের নেতা ও দেশ বরেণ্য ওলামায়ে কেরাম আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদীর জীবনের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা করেন।

জানাজায় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কওমি মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড বেফাক ও হাইয়াতুল উল‌ইয়ার চেয়ারম্যান আল্লামা মাহমুদুল হাসান, খেলাফত আন্দোলন বাংলাদেশের আমির মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী, অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান চৌধুরী পীর সাহেব দেওনা, হাটহাজারী মাদ্রাসার নায়েবে মুহতামিম মুফতি জসিম উদ্দিন, মাওলানা আব্দুল আওয়াল নারায়ণগঞ্জ, হাইয়াতুল উলইয়ার কো-চেয়ারম্যান শায়খ সাজিদুর রহমান, আব্দুল হামিদ পীর সাহেব মধুপুর,জামিয়া মুহাম্মদিয়ার প্রিন্সিপাল মাওলানা আবুল কালাম, বাংলাদেশ কওমি মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড বেফাকের মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক, বসুন্ধরা মাদ্রাসার মহাপরিচালক মুফতি আরশাদ রহমানী, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর সিনিয়র নায়েবে আমির মুফতি মুহাম্মদ ফয়জুল করীম, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব শায়খুল হাদিস হাফেজ মাওলানা ড. গোলাম মহিউদ্দিন ইকরাম, খেলাফতে ইসলামীর মহাসচিব মাওলানা ফজলুর রহমান, মাওলানা আব্দুর রব ইউসুফী, আরজাবাদ মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা বাহাউদ্দিন জাকারিয়া,মুফতি মিজানুর রহমান সাঈদ,মাওলানা মঞ্জুরুল ইসলাম আফেন্দী, খেলাফত মজলিসের নায়েবে আমির মাওলানা আহমদ আলী কাসেমী, মাওলানা মহিউদ্দিন রব্বানী,গুলিস্তান পীর ইয়ামেনী জামে মসজিদের খতিব মুফতি ইমরানুল বারী সিরাজী, মাওলানা আতাউর রহমান আরেফী, নেজাম ইসলাম পার্টির মহাসচিব মাওলানা আব্দুল কাইউম, মাওলানা মতিউর রহমান গাজীপুরী,হাব ওলামা ফোরামের মহাসচিব মুফতি জুনায়েদ গুলজার,ইনসাফ সম্পাদক সাইয়েদ মাহফুজ খন্দকার, আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী রহ. এর ছেলে মুফতি জাবের কাসেমী,ডেমরা নান্নু মুন্সি মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মুফতি আরিফ বিল্লাহ, ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশের সদস্য সচিব খালেদ মাহমুদ প্রমুখ।

জানাজা শেষে আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদীকে চট্টগ্রামে নিয়ে যাওয়া হবে। সেখানেই চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসার ছোট মসজিদ সংলগ্ন মাকবারাতুল জামিয়াতে হেফাজতে ইসলামের প্রতিষ্ঠাতা আমীর শায়খুল ইসলাম আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ. ও একসময়ের মহাসচিব এবং আমির শাইখুল হাদিস আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীর পাশেই তাকে দাফন করা হবে।

এর আগে আজ সোমবার দুপুর ১২টার দিকে ঢাকার ল্যাবএইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি ইন্তেকাল করেন।

গত শনিবার তাকে ঢাকার ল্যাবএইড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তখন তার ছেলে মাওলানা রাশেদ বিন নূর জানিয়েছিলেন, ‘অতিমাত্রায় পেরেশানি ও লাগাতার ব্যস্ততার কারণে বিশ্রামের অভাব হঠাৎ স্ট্রোক করেন বাবা। তাৎক্ষণিকভাবে চিকিৎসার জন্য রাজধানীর ল্যাবএইড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ডাক্তারের তত্ত্বাবধায়নে তিনি বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন’।

ল্যাবএইড হাসপাতালে ডা. লুৎফুর রহমানের অধীনে মাওলানা নুরুল ইসলাম চিকিৎসাধীন ছিলেন।

শেয়ার করুন

ad image

সম্পর্কিত সংবাদ