About Us
শুক্রবার, ৩০ জুলাই ২০২১
  • সোশ্যাল প্ল্যাটফর্ম:
Hasan - (Dhaka)
প্রকাশ ১৬/০৬/২০২১ ১২:৩৫এ এম

পদ্মা নদীর ইতিহাস

পদ্মা নদীর ইতিহাস Ad Banner

বাংলাদেশের অন্যতম বৃহত্তম নদী পদ্মা। গঙ্গা নদী হিমালয়ের গাঙ্গোত্রী হিমবাহ থেকে উৎপত্তি লাভ করেছে। এরপর প্রথমে দক্ষিণ -পশ্চিম ও পরে দক্ষিণ -পূর্বদিক থেকে  প্রবাহিত হয়ে ভারতের হরিদ্বায়ের কাছে সমভূমিতে পড়েছে। এরপর ভারতের উত্তর প্রদেশ ও বিহার রাজ্যের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত হয়ে পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ জেলার ধুলিয়ান নামক স্থানে ভাগীরথী (হুগলি নদী) নামে এর একটি শাখা বের হয়ে পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে দিয়ে বঙ্গোপসাগরে পড়েছে।গঙ্গা নদীর মূল প্রবাহ রাজশাহী অন্ঞলের দক্ষিণ -পশ্চিম প্রান্তে প্রায় ১৪৫ কিলোমিটার পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের সিমানা বরাবর এসে কুষ্টিয়ার উত্তর -পশ্চিম প্রান্তে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে। এরপর দৌলতদিয়ার নিকট যমুনা নদীর সঙ্গে মিলিত হয়েছে।এ মিলিত ধারা পদ্মা নামে দক্ষিণ -পূর্ব  দিকে প্রবাহিত হয়ে চাঁদপুরের কাছে মেঘনার সঙ্গে মিলিত হয়েছে।এ তিন নদীর মিলিত প্রবাহ মেঘনা নামে বঙ্গোপসাগরে পতিত হয়েছে। বাংলাদেশে পদ্মা বিধৌত অন্ঞলের আয়তন হচ্ছে ৩৪ হাজার ১শত ৮৮ বর্গ কিলোমিটার। কুমার, মাথাভাঙা, ভৈরব,গড়াই,মধূমতি,আড়িয়ালখা প্রভৃতি পদ্মার প্রধান শাখানদী এবং মহানন্দা প্রধান উপনদী।পুনর্ভবা, নাগর,পাগলা,কুলিক,ট্যাংগন মহানন্দার উপনদী।



শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ