About Us
আসাদুর রহমান আসাদ - (Sirajganj)
প্রকাশ ০৮/০৬/২০২১ ০৬:৩৮পি এম

এনায়েতপুরে যমুনার ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী বাঁধ নির্মাণ একনেকে পাস

এনায়েতপুরে যমুনার ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী বাঁধ নির্মাণ একনেকে পাস Ad Banner

এনায়েতপুর থেকে হাট পাঁচিল ৬.৫ কিলোমিটার যমুনা তীর রক্ষা বাঁধ প্রকল্পের কাজ একনেকে পাস হয়েছে। একনেকে পাস হবার সংবাদ শোনার সাথে সাথে ভাঙ্গন কবলিত এলাকার মানুষ আনন্দে আত্মহারা হয়ে পড়েন।

তারা বিজয় উল্লাস করেন বিভিন্ন জায়গায়, সেই সাথে জালালপুর নতুন বাজার এবং সৈয়দপুর বাজারে নদী ভাঙ্গন কবলিত এলাকার মানুষ মিষ্টি বিতরণ করেন।

ভাঙ্গন কবলিত এলাকার মানুষ যমুনার ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী বাঁধ একনেকে পাস করায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানান এছাড়াও পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকতা এবং সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানান। 

 হাট পাঁচিল গ্রামের রহমত মোল্লা বলেন, আমরা আশা ছেড়েই দিয়েছিলাম কিন্তু সংবাদটি শোনার পর  মনের ভিতর অনেক ভাল লাগছে, ধন্যবাদ প্রিয় নেত্রী।   

এনায়েতপুর থেকে হাট পাঁচিল সাড়ে ৬ কিলোমিটার যমুনা তীর রক্ষা বাঁধের জন্য সাড়ে ৬শ কোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে, যার ফলে রক্ষা পাবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ফসলি জমি সহ বসতি বাড়ি ঘড়।এতে করে যমুনার মানুষ নতুনতর ভাবে বাঁচার স্বপ্ন দেখতে পারবে। 

জালালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সুলতান মাহমুদ বলেন, একনেকে পাস হবার পর পর এলাকার মানুষ আনন্দে মেতে উঠে,তারা বিভিন্ন এলাকায় আনন্দ মিছিল সহ মিষ্টি বিতরণ করেন।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই আমাদের নদী ভাঙ্গন রোধে এতো বড় একটা প্রকল্প অনুমোদন দেওয়ার জন্য।   

পাকুরতলা গ্রামের সমাজ সেবক কামরুজ্জামান কামরুল জানান, আমরা শুভ সংবাদ পাওয়ার সাথে সাথে বিভিন্ন জায়গায় মিস্টি বিতরণ করি।

সেই সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা কে ধন্যবাদ জানাই এবং পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব,স্থানীয় সংসদ সদস্য ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের সকল কর্মকতা সহ সকল সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানাই।   

এনায়েতপুর থানা ইয়ূথ ফোরামের সম্মানিত সভাপতি জাকারিয়া তৌহিদ তমাল বলেন, আমাদের ফোরামের মাধ্যমে অনেক প্রচার প্রচারণা চালানো হয়েছে, আজ একনেকে পাস হবার সংবাদ পাবার পর  মনের ভিতর অনেক ভাল লাগছে।   

এলাকার মানুষের একটাই দাবি প্রকল্পটির কাজ যেন দ্রুত কার্যকর করা হয়


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ