About Us
শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১
  • সোশ্যাল প্ল্যাটফর্ম:
Md. Sikandar - (Chattogram)
প্রকাশ ০৪/০৫/২০২১ ১২:০৭এ এম

কিশোর গ্যাং দমনে করণীয়

কিশোর গ্যাং দমনে করণীয় Ad Banner

একজন কিশোর, গ্যাংস্টার কেনো হয়? গ্যাংস্টার হওয়ার কারণ- সংক্ষেপে প্রথমত কিশোররা গ্যাংস্টার হয়, টাকা আর ক্ষমতার জন্য। পরে পরে তারা বনে যায় দেশ ও মানবতার শত্রু। যারা গ্যাংস্টার হয় তারা এক প্রকারে সরল, অন্য প্রকারে কঠোর। নির্যাতন আর অসহায়ত্ব তাদের গ্যাংস্টার বানাই। বড়দের কিছু ভুল ভাষায় তারা শিহরিত হয়। তাই তারা গ্যাংস্টার হতে বাধ্য হয়।

মা-বাবা চাইলে তার ছেলেকে যে কোনো ভালো পেশায় নিয়োজিত করতে পারেন। তাদের ছেলেকে ইচ্ছে মতো চলতে না দেওয়া, আবার অতিরিক্ত চাপে না রাখে। কিছু নিয়ম ছেলের জীবনে জড়িয়ে দিতে হবে, যেমন- রাতেই বাহিরে থাকতে পারবেনা, ছয়টার মধ্যে বাড়িতে উপস্থিত থাকতে হবে। এমন আরও অনেক নিয়ম জড়িয়ে দিতে হবে। তবে তা যেন তাকে অসৌহ্য করে না তুলে, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। আর তার স্বপ্নকে প্রাধান্য দিতে হবে, এইটাই তার বড় স্বাধীনতা।

বড়দের উত্তম ভাষা ব্যবহার করা উচিৎ, সেইসাথে উচিৎ তাদের ভালো দিকগুলো উৎসাহিত করা। মা-বাবা ভাইবোনের ভালোবাসা তাদের হৃদয়ে গেথে থাকে। তাই তাদেরকে টাকার পথ দেখানো জরুরি নয়, বরং দেশকে এগিয়ে নেয়ার তাগিদ গেথে দেওয়া জরুরি। তাদের ভিতর গেথে দিতে হবে ধর্মীয় ব্যক্তিদের দিক নির্দেশনা। কারণ একজন ধর্মীয় ব্যক্তি কখনো মানবতার শত্রু হতে পারেনা। দেশের প্রতি যার ভালোবাসা থাকে, ধর্মের প্রতি যার ভালোবাসা থাকে সেই কখনো বেঈমানী করতে পারেনা।

তাই আমাদের জরুরি সন্তানকে ভালোকর্ম ও ভালোবাসা দিয়ে বিশ্বজয় করার নিয়ম শেখা। ভালোবাসি ধর্মকে, ভালোবাসি দেশকে, ভালোবাসি ভালোকর্মকে। দেশকে এগিয়ে নেওয়া আমাদের দায়িত্ব। পরিশেষে বলছি চেনা বাংলা প্রবাদ, জন্মহোক যথা তথা কর্মহোক ভালো।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ