About Us
Nesarul Islam
প্রকাশ ০৬/০৪/২০২১ ০৮:৩৫এ এম

মাদকাসক্ত ছেলের হাতে মা খুন

মাদকাসক্ত ছেলের হাতে মা খুন Ad Banner

নেশার টাকা না পেয়ে নিজের মায়ের গলায় ছুরি চালিয়ে খুন করেছে এক মাদকাসক্ত ছেলে। এ ঘটনার পর পলাতক রয়েছে ঘাতক ছেলে। গত শনিবার (৩ এপ্রিল) বিকালে পঞ্চগড় পৌর এলাকার পশ্চিম মিঠাপুকুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনার পর পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে গুরুতর অবস্থায় নিয়ে গেলে হতভাগা মা জয়তুন বেগম (৫৫) কে দায়িত্বরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। নিহত জয়তুন বেগম ওই গ্রামের আব্দুল মজিদের স্ত্রী। তার মাদকাসক্ত ছেলের নাম শহিদুল ইসলাম (৩২)। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, শহিদুল ইসলাম এলাকায় মাদকাসক্ত হিসেবে পরিচিত। মাঝেমধ্যেই নেশার টাকা না পেয়ে নে বাবা মা ও বোনকে মারধর করতো সে। তার এমন আচরণের কারণে কয়েক বছর আগে তার স্ত্রীও চলে যায়।তার উৎপাত বেড়ে গেলে গত দেড় বছর আগে পরিবারের লোকজন তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

কয়েক মাস আগে জেল থেকে বের হয় শহিদুল। তারপর আবারো নেশায় আসক্ত হয়ে পড়ে। পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের মেডিকেল অফিসার রাকিবুল হাসান জানান, মৃত অবস্থায় হাসপাতালে রয়েছেন বেগমকে নিয়ে আসা হয়।গলায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করেছেন তিনি। প্রতিবেশীরা জানান, বিকেলে এ ঘটনার সময় বাড়ির টেবিলের পাশে কাজ করছিলেন মা জয়তুন বেগম।এ সময় হঠাৎ চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা গিয়ে দেখেন রক্তাক্ত অবস্থায় জয়তুন পড়ে আছেন। এ সময় পালিয়ে যাচ্ছিল তার ছেলে শহিদুল। পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

প্রতিবেশী মোঃ খোকন জানান, শহিদুল ইসলাম তার বাবাকে তিন বছর আগে নেশার টাকার জন্য মারধোর করেছিল। তখন তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। আজ নেশার টাকা না পেয়ে তার মাকে হত্যা করেছে শহিদুল। তার মা মানুষের বাসায় রান্নার কাজ থেকে শুরু করে নদীতে পাথর উঠানোর কাজ করে সংসারে অর্থ যোগান দিতেন। এত অভাব এর মধ্যে ছেলেকে নেশার টাকা যোগান দেয়া তার পক্ষে অসম্ভব ছিল। পঞ্চগড়ের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) এস এম শফিকুল ইসলাম জানান, ছেলের হাতে তার মা খুনের ঘটনা ঘটেছে। ওই মাদকাসক্ত ছেলেকে আটকের জন্য অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ