About Us
Ananda - (Pirojpur)
প্রকাশ ০৩/০৪/২০২১ ০৭:৫৬পি এম

এবারে বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাণ প্রতিযোগিতায় শাওমি !

এবারে বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাণ প্রতিযোগিতায় শাওমি ! Ad Banner

বর্তমানে ইলেকট্রিক গাড়ি নির্মাণের প্রতিযোগিতায় নেমেছে গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো। ফক্সপ্লাগন জেনারেল মোটরস আর টেসলার মধ্যে চলছে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই। ইলেকট্রিক এর পাশাপাশি স্মার্ট গাড়ি বাজার প্রতিযোগিতায় নেমেছে অ্যাপেল বাজারে আই কারার কাজ করছে মার্কিন টেক জায়ান্ট।


এবার স্মার্টফোনের পাশাপাশি এ প্রতিযোগিতায় নেমেছে চিনা স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান শাওমিও ।তারা ঘোষণা দিয়েছে আগামী ১০ বছরে বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরিতে ১০০০কোটি ডলার বিনিয়োগ করবে। তারা বলছে ক্রেতাদের মানসম্মত বৈদ্যুতিক গাড়ি উপহার দিতেই তাদের এ প্রচেস্টা। বর্তমানে বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান শাওমি।

 এবার  বৈদ্যুতিক গাড়ির প্রতিযোগিতায় সবার আগে টেক্কা দিতে হবে অ্যাপেল আর হুয়াওয়ে কে। শাওমি কর্তৃপক্ষ বলছে ইলেকট্রিক গাড়ি বাজারে প্রবেশ করা খুব সহজ হবে না। শাওমির প্রধান নিবার্হী কর্মকর্তা  লি-জুন বলেন কোম্পানির সবার সাথে আলোচনা করেই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে । তিনি জানান এটি তার জীবনের সবচেয়ে বড় এবং শেষ উদ্যোগ ।  তবে কবে নাগাদ বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরি শুরু হবে কোথায় হবে প্লান্ট , দাম কেমন হবে তা নিয়ে এখনো বিস্তারিত কিছু জানায়নি শাওমি কর্তৃপক্ষ ।


বিশ্বের  বৈদ্যুতিক গাড়ির বাজারে প্রবেশ করতে আর কোম্পানির শেয়ার কিনতে প্রায়  ১০০ চীনা কোম্পানি প্রতিযোগিতায় আছে ।চীনের বৃহত্তম গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান গিলি  তৈরি করেছে জিকোর ব্রান্ডের মিনি ইলেকট্রিক গাড়ি, দাম সাড়ে চার হাজার ডলার। বিদেশি গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো চীনের বাজার ধরতে তৎপর সাংহাইয়ের কারখানা থেকে মডেল অনুসারে  সরবরাহ করেছে বিশ্বখ্যাত বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান টেসলা ।  চীনের অন্যান্য প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অধিক গাড়ি তৈরিতে আগ্রহ দেখাচ্ছে। আলিবাবা চীনা গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান সাইকের সাথে যৌথ উদ্যোগে বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরি করেছেন।

গবেষণা বলছে ২০২৫ সাল নাগাদ সারা বিশ্বে যে পরিমাণ বৈদ্যুতিক গাড়ি বিক্রি হবে তার২০% ই হবে চীনে।



শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ