About Us
মোঃ ইমরান নাজির - (Dhaka)
প্রকাশ ০৩/০৪/২০২১ ০৪:৫৯পি এম

শেরপুরে স্ত্রী-সন্তানকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যাচেষ্টার অভিযোগ

শেরপুরে স্ত্রী-সন্তানকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যাচেষ্টার অভিযোগ Ad Banner

বগুড়া শেরপুরে স্ত্রী ও সন্তানকে হত্যার উদ্দেশ্যে ঘরের দরজা বন্ধ করে দিয়ে বাড়িতে আগুন দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে নজরুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে।

শনিবার সকাল ১১ টায় শেরপুর পৌর শহরের ৯ নং ওয়ার্ডের খন্দকার পাড়া এলাকায় ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় স্ত্রী শাহনাজ বেগম বাদী হয়ে শেরপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

জানা যায়, নজরুল ইসলাম গত ৪ বছর আগে বরিশালে দ্বিতীয় বিয়ে করেন। এরপর থেকে প্রথম স্ত্রী শাহনাজকে কোন খরচ না দিয়ে তাদেরকে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার জন্য বিভিন্ন সময় হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছে। শনিবার সকাল ৯ টায় বাড়িতে এসে ছেলে নোমান তার স্ত্রী মুক্তা ও মা শাহানাজ খাতুনকে বেধড়ক মারপিট করে বাড়িঘর ভাঙচুর করে এবং ঘর থেকে বের করে দেওয়ার চেষ্টা করে। এসময় তারা জীবন রক্ষার্থে ৯৯৯ নাম্বারে ফোন করলে শেরপুর থানার পুলিশ সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে নজরুল ইসলাম আবার বেলা ১১ টার দিকে ঘরের দরজা ও বাড়ির গেট বন্ধ করে দিয়ে স্ত্রী-ছেলে পুত্রবধূকে হত্যার উদ্দেশ্যে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে এলাকাবাসী বাহির থেকে আগুন জ্বলতে দেখে ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলে ফায়ার সার্ভিসকর্মীরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় শাহনাজ বেগম বাদী হয়ে শেরপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

নজরুলের পুত্র নোমান জানান, আমাদেরকে হত্যার উদ্দেশ্যে বাড়ির দরজা বন্ধ করে আগুন লাগিয়ে দিয়েছে আমার বাবা।

স্ত্রী শাহানাজ খাতুন জানান, দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে আমাদেরকে বিভিন্নভাবে জীবননাশের হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছে। আমরা বাড়ি থেকে বাহির হয়ে না যাওয়ায় আমাদেরকে হত্যার উদ্দেশ্যে বাহির থেকে দরজা বন্ধ করে বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয়। ঘটনার পর নজরুল পলাতক রয়েছে।

স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ফিরোজ আহম্মেদ জুয়েল জানান, পারিবারিক কলহের জের ধরে নজরুল ইসলাম তার বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দিয়েছে। পরে ফায়ার সার্ভিসেরকর্মীরা ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণ আনে।

এ ব্যাপারে শেরপুর থানার ওসি মো. শহিদুল ইসলাম জানান, আমরা ৯৯৯ থেকে একটি ফোন পেয়ে সেখানে বাড়িতে ভাংচুর হওয়ার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছিলাম। পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করে ফিরে আসে। পরে নজরুল ইসলাম তার বাড়ি ঘরে আগুন দিয়ে পড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ করেছে নজরুলের স্ত্রী শাহনাজ বেগম। বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হবে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ