MD.KAMRUZZAMAN SOHAG - (Kushtia)
প্রকাশ ৩১/০৩/২০২১ ০৬:২৮পি এম

নিজ খরচে কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে ভারত ফেরত যাত্রীদের

নিজ খরচে কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে ভারত ফেরত যাত্রীদের Ad Banner

দেশে আবারও করোনার প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় সংক্রমণ প্রতিরোধে যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে ভারত ফেরত যাত্রীদের আবারো ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনে থাকতে নির্দেশ দিয়েছে সরকার। প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমেদ কায়কাউস স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এ সতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) নির্দেশনাপত্রটি বেনাপোল ইমিগ্রেশনের স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশের হাতে পৌঁছেছে।

বেনাপোল ইমিগ্রেশন থেকে জানানো হয়েছে, ভারত থেকে যেসব যাত্রী দেশে ফিরবেন তাদের ভারতীয় সরকারি স্বাস্থ্য বিভাগের পিসিআর থেকে নির্ভুল করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট সঙ্গে নিয়ে আসতে হবে। এরপর চেকপোস্টে নিয়োজিত স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মীরা তাদের করোনা টেস্ট করে ছাড়পত্র দেবেন। সেখান থেকে ফিরে ১৪ দিন নিজ বাড়িতে কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। যাত্রীদের যে এলাকায় বাড়ি সেখানকার স্বাস্থ্য ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের বিষয়টি জানিয়ে দেওয়া হবে। আর টেস্টে করোনার অস্তিত্ব পাওয়া গেলেও নিজ খরচে তাদের অবশ্যই প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে।

বেনাপোল চেকপোস্টে যশোর থেকে ভারত যাওয়ার সময় ক্যানসার রোগী মাসুদ চৌধুরী বলেন, আমি খুবই অসুস্থ। এমনিতে হুইল চেয়ারে বসে যেতে হচ্ছে। চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরে যদি হোটেলে ১৪ দিন থাকতে হয় তাহলে তো মহাসমস্যায় পড়তে হবে। একদিকে আর্থিক সমস্যা অন্যদিকে বাড়ির পরিবারের প্রয়োজনীয় সেবা থেকেও বঞ্চিত হতে হবে। প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিন সেবার দাবি জানিয়েছেন তিনি।

উল্লেখ্য, বর্তমানে করোনা পরিস্থিতিতে শর্তসাপেক্ষে শুধু বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে যাত্রীদের ভারত প্রবেশের সুযোগ রয়েছে। প্রতিদিন এক হাজার থেকে ১ হাজার ৫০০ যাত্রী দুই দেশের মধ্যে যাতায়াত করছে। এসব যাত্রীদের ৯৫ শতাংশ রয়েছে মেডিকেল ভিসার যাত্রী। অন্যান্য ৫ শতাংশ যাত্রীরা যাচ্ছেন বিজনেস ও কূটনৈতিক ভিসায়। টুরিস্ট ভিসা গত বছরের ১৩ মার্চ থেকে বন্ধ রয়েছে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ