Feedback

আরও...

সাকিব পারে, মেসি পারে না কেন?

সাকিব পারে, মেসি পারে না কেন?
April 24
12:31am
2020

আই নিউজ বিডি ডেস্ক Verify Icon
Eye News BD App PlayStore
‘বেঁচে গেলে বিজ্ঞানের কারণে বাঁচবো, মসজিদ মন্দিরের কারণে না’ এমন একটা প্রচারণা চলছে ফেসবুকে। এ ধরনের অতিসরলীকৃত ও উস্কানিমূলক বক্তব্যর জবাব দেওয়ার প্রয়োজন ছিল না। তবে এমন কেউ কেউ এটা শেয়ার করছেন যে মনে হয় কিছু বিষয় তুলে ধরা উচিত। প্রথমত: বিশ্বে এখনও করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির সংখ্যা মাত্র ২৭ লাখ। শেষ পর্যন্ত যদি এর দশগুন ( প্রায় ৩ কোটি) লোকেরও করোনা হয়, তার মানে হবে ৯৯.৫ শতাংশ ব্যক্তি আক্রান্ত হবেনা। এ সাড়ে ৯৯ শতাংশ ব্যাক্তির করোনা আক্রান্ত না হওয়া বিজ্ঞানের অবদান না। এটা হবে কিছুটা তাদের ভাগ্যগুনে (ধর্মপ্রাণ মানুষের মতে আল্লাহ্ বা স্রষ্টার অনুগ্রহে) আর কিছুটা সতকর্তার কারণে। আক্রান্তদের মধ্যে আবার কমপক্ষে ৯০ শতাংশ সুস্থ হচ্ছে শরীরের এন্টিবডির জন্য। এন্টিবডি হিসেবে শরীরে যে টি সেল ও বি সেল নামে দুটো সেল কাজ করে তা বিজ্ঞানের সৃষ্টি নয়, এগুলো এমনিতে থাকে মানুষের শরীরে। দ্বিতীয়ত: করোনার প্রতিষেধক আবিস্কৃত হলে করোনায় মৃত্যুর হার অনেক কমে যাবে। এ প্রতিষেধকও একা কিছু করতে পারবে না যদি আপনার ইম্যুনিটি সিস্টেম কাজ না করে, এ সিস্টেম বিজ্ঞানের তৈরী না। আর প্রতিষেধক হিসেবে যে এন্টিবডি বা জেনেটিক মেটেরিয়াল ব্যবহার করা হবে তাও বিজ্ঞানের সৃষ্টি না, বিজ্ঞান শুধুমাত্র এটি প্রতিষেধকে রূপান্তরিত করবে। ধর্মপ্রাণ মানুষ বিশ্বাস করে এসব মেটেরিয়ালস ও বৈজ্ঞানিকের বুদ্ধি সবটা আল্লাহ্‌র দান। সত্য বা সমস্যাটা এখানে। এন্টিবডি বা ভাগ্যোর কারণে যারা বাঁচবে, ধর্মপ্রাণ মানুষ বিশ্বাস করবে এটা স্রষ্টার দান। বিজ্ঞান যাদেরকে বাঁচাতে পারবে ধর্মপ্রাণ মানুষ বিশ্বাস করবে সেটাও স্রষ্টার দান। কাজেই করোনা বিষয়ে বিজ্ঞানের তুলনায় ধর্মকে হেয় করে ধর্মপ্রাণ মানুষকে হয়তো অপমান করা যাবে, কিন্তু তার ধর্ম বিশ্বাসে চিড় ধরানো যাবে না। এ অপমান করার কোন যুক্তি নেই। কারণ ধর্ম'র প্রকৃত বাণীর চেয়ে সুন্দর ও মঙ্গলকর কিছু নেই কোথাও। আমাদের এটাও বুঝতে হবে ধর্ম আর বিজ্ঞানের ব্যপ্তিরও কোন তুলনা হয়না। বিজ্ঞান মানুষের সৃষ্টি, ধর্ম মতে এ মানুষ স্রষ্টার সৃষ্টি, স্রষ্টার অনন্ত ও অসীম সৃষ্টিজগতের একটি অতি ক্ষুদ্র বালিকনায় (পৃথিবী) এর কিছু মানুষ বিজ্ঞান চর্চা করেন। এ চর্চা অতি প্রয়োজনীয় ও মনোমুদ্ধকর কিছু আবিস্কার করেছে। কিন্তু এটাও আবিস্কার করেছে যে মহাবিশ্বের ৯৫ শতাংশ সম্পর্কে (ডার্ক এনার্জী) বিজ্ঞান কোনদিন কিছু জানতে পারবেনা, বাকী ৫ শতাংশ সম্পর্কেও তার জ্ঞান খুব কম ও নিয়ত পরিবতর্নশীল। অন্যদিকে, ধর্ম এ ৯৫ শতাংশ ও বাকী ৫ শতাংশের সৃষ্টিকর্তায় বিশ্বাসী। ধর্মের কাজ মানুষের নৈতিকতা, আত্নিক পরিশুদ্ধি নিয়ে। এসব বিজ্ঞানের বিষয় নয়। বিজ্ঞান যুক্তি ও জ্ঞান নির্ভর, ধর্ম বিশ্বাস ও উপলদ্ধি নির্ভর । বিজ্ঞানের কাছে ইহজগত সব, ধর্মের কাছে ইহজগত তুচ্ছ, এটা বরং পরজগতের জন্য এক পলকের পরীক্ষা মাত্র। ধর্ম আর বিজ্ঞান এতো ভিন্ন যে করোনা নিয়ে এদের তুলনা হাস্যকর ও চরম অজ্ঞতাপ্রসূত। আমরা কি বলি করোনা থেকে যদি বেঁচে যাও, জেনো ডাক্তার বাঁচাবে, তোমার বাবা মা না। এটা বলে কি আমরা আশা করি ডাক্তারকে শুধু ভালোবাসা উচিত আমাদের, পিতা মাতা বা অন্য কাউকেও না। আমরা কি কখনো বলি সাকিব কি সুন্দর ক্রিকেট খেলে, মেসি তো ক্রিকেটই খেলতে পারেনা। ধর্ম ও বিজ্ঞানের তুলনা এসবের চেয়ে বহুগুনে হাস্যকর ও অবান্তর। ধর্ম ও বিজ্ঞান দু'টো প্রয়োজনীয়। ধর্ম বিশ্বাস করলে বিজ্ঞানকে অবজ্ঞা করতে হবে কেন? বিজ্ঞানমনস্ক হয়েছেন বলে ধর্মকে অবজ্ঞা করেন কেন? পৃথিবীতে বহু বড় বিজ্ঞানী ধর্মবিশ্বাসী ছিলেন। অনেকে আবার ছিলেনও না। কিন্তু এজন্য তারা ধর্ম বিশ্বাস নিয়ে উপহাস করেছেন বলে শুনিনি। ধর্মান্ধতা আর ধর্মবিদ্বেষ দুটোই পরিত্যাজ্য। ‘বেঁচে গেলে বিজ্ঞানের কারণে বাঁচবো, মসজিদ মন্দিরের কারণে না’-এমন হাস্যকর কথা সম্ভবত ধর্মবিদ্বেষ থেকে প্রচারিত। (ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

শাকিল বাড়ি ফিরেছে,তবে মৃত

শাকিল বাড়ি ফিরেছে,তবে মৃত

জামালগঞ্জ উপজেলা পরিষদ উপ-নির্বাচনে ৩ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র দাখিল

জামালগঞ্জ উপজেলা পরিষদ উপ-নির্বাচনে ৩ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র দাখিল

৩ মাস ধরে গৃহকর্মীকে ধর্ষণ, কারাগারে অভিযুক্ত

৩ মাস ধরে গৃহকর্মীকে ধর্ষণ, কারাগারে অভিযুক্ত

ধর্ষণের পর টাকায় মীমাংসা

ধর্ষণের পর টাকায় মীমাংসা

প্রত্যন্ত অঞ্চলে ইতিহাস ঐতিহ্যের ২৫০ বছরের পুরোন জমিদার বাড়ি ও মসজিদ

প্রত্যন্ত অঞ্চলে ইতিহাস ঐতিহ্যের ২৫০ বছরের পুরোন জমিদার বাড়ি ও মসজিদ

দেশের বাজারে বর্তমান স্বর্ণের দাম

দেশের বাজারে বর্তমান স্বর্ণের দাম

সৌদি ভিসার ২৪ দিন মেয়াদ বাড়লঃ নিশ্চিত করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সৌদি ভিসার ২৪ দিন মেয়াদ বাড়লঃ নিশ্চিত করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

স্মৃতির পাতায় অমলিন প্রিয় ক্যাম্পাস

স্মৃতির পাতায় অমলিন প্রিয় ক্যাম্পাস

দল মত নির্বিশেষ ইসলামকাটি ইউনিয়নে শেখ আব্দুল আজিজ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হোক

দল মত নির্বিশেষ ইসলামকাটি ইউনিয়নে শেখ আব্দুল আজিজ চেয়ারম্যান নির্বাচিত হোক

আন্দোলনকারীদের ভিসা বাতিল করতে পারে সৌদি সরকার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আন্দোলনকারীদের ভিসা বাতিল করতে পারে সৌদি সরকার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অবশেষে পদ ছাড়ছেন বেফাক মহাসচিব মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস!

অবশেষে পদ ছাড়ছেন বেফাক মহাসচিব মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস!

স্বামীর বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগ, গ্রেফতার পুনম পান্ডের স্বামী

স্বামীর বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগ, গ্রেফতার পুনম পান্ডের স্বামী

পাপিয়া দম্পতির যাবজ্জীবন সাজা দাবি রাষ্ট্রপক্ষের

পাপিয়া দম্পতির যাবজ্জীবন সাজা দাবি রাষ্ট্রপক্ষের

ব্রহ্মপুত্রের ভাঙ্গনে মুছে যাওয়ার সম্ভাবনা রৌমারী’র মানচিত্র!

ব্রহ্মপুত্রের ভাঙ্গনে মুছে যাওয়ার সম্ভাবনা রৌমারী’র মানচিত্র!

এবার ভাইরাল স্বাস্থ্যের গাড়িচালক মালেকের দরজা

এবার ভাইরাল স্বাস্থ্যের গাড়িচালক মালেকের দরজা

সর্বশেষ

আমেরিকায় শুরু হল করোনা টিকার সব থেকে বড় পরীক্ষা

আমেরিকায় শুরু হল করোনা টিকার সব থেকে বড় পরীক্ষা

শুক্রবার রাজধানীর যেসব এলাকায় বন্ধ থাকবে গ্যাস লাইন

শুক্রবার রাজধানীর যেসব এলাকায় বন্ধ থাকবে গ্যাস লাইন

নির্বাচনের আগেই করোনা ভ্যাকসিন বাজারে আনতে ট্রাম্পের হুমকি-ধামকি

নির্বাচনের আগেই করোনা ভ্যাকসিন বাজারে আনতে ট্রাম্পের হুমকি-ধামকি

শেখ হাসিনার উন্নয়ন চলমান আছে–চেএয়ারম্যান মাহমুদখানখোকো

শেখ হাসিনার উন্নয়ন চলমান আছে–চেএয়ারম্যান মাহমুদখানখোকো

কুষ্টিয়ায় দুস্থদের চাল আত্মসাত চেয়ারম্যান সহ ৪জন গ্রেফতার

কুষ্টিয়ায় দুস্থদের চাল আত্মসাত চেয়ারম্যান সহ ৪জন গ্রেফতার

বাংলা ছবি প্রযোজনা করতে চলেছেন অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী

বাংলা ছবি প্রযোজনা করতে চলেছেন অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শিক্ষার্থী ধর্ষণ মামলায় এক সাংবাদিকের সাক্ষ্য গ্রহণ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শিক্ষার্থী ধর্ষণ মামলায় এক সাংবাদিকের সাক্ষ্য গ্রহণ

উচ্চ বিদ্যালয়ের আজীবন দাতা ভোটার বাতিলের রায় আপীল বিভাগে বহাল

উচ্চ বিদ্যালয়ের আজীবন দাতা ভোটার বাতিলের রায় আপীল বিভাগে বহাল

আত্মহত্যা !!

আত্মহত্যা !!

শাজাহানপুরে বৌভাতে ভ্রাম্যমাণ আদালত

শাজাহানপুরে বৌভাতে ভ্রাম্যমাণ আদালত

করোনা শনাক্তে কুকুরের ব্যবহার

করোনা শনাক্তে কুকুরের ব্যবহার

মাদক বিরোধী অভিযানে, সাতক্ষীরায় ১৫ মাদকসেবী শনাক্ত, আটক-১৯

মাদক বিরোধী অভিযানে, সাতক্ষীরায় ১৫ মাদকসেবী শনাক্ত, আটক-১৯

বগুড়ায় স্কুলছাত্রী অপহরনের এক মাস পর উদ্ধার

বগুড়ায় স্কুলছাত্রী অপহরনের এক মাস পর উদ্ধার

কলারোয়ায় অনলাইনে বিজ্ঞান বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা

কলারোয়ায় অনলাইনে বিজ্ঞান বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা

কোলের শিশুকে পিঠে ঝোলানো, মায়ের ছবি ভাইরাল

কোলের শিশুকে পিঠে ঝোলানো, মায়ের ছবি ভাইরাল