• 0
  • 0
sk deen mahmud
Posted at 08/01/2021 08:38:pm

পাইকগাছায় বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়ীতে প্রেমিকার অনশন

পাইকগাছায় বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়ীতে প্রেমিকার অনশন

পাইকগাছার কপিলমুনিতে বিয়ের দাবীতে সোনিয়া খাতুন (২৪) নামের কিশোরী প্রেমিকা প্রেমিকের বাড়িতে অনশন শুরু করেছে। প্রেমিক খায়রুল ইসলাম স্থানীয় কাশিমনগর গ্রামের সামাদ গাজীর ছেলে ও স্থানীয় কপিলমুনি কলেজের স্নাতক শ্রেণীর ছাত্র। 

এলাকাবাসী ও পারিবারিক সূত্র জানায়, খায়রুলের সাথে সোনিয়ার দীর্ঘ দিন ধরে প্রেমজ সম্পর্ক চলে আসছে।

বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে খায়রুলের পিতা-মাতা তাকে কয়েক বছর আগে ঢাকায় পাঠিয়ে দেয়। তবে বাড়ীতে আসলে তাদের দেখা হতো বলে দাবি করা হয়। এছাড়া তারা পরষ্পর দূরে থাকলেও মোবাইলে আলাপচারিতা অব্যাহত রাখে।

খায়রুল তাকে প্রতিশ্রুতি দেয় যে, একটি কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে পারলেই বিয়ে করবে তাকে। একপর্যায়ে খায়রুল ও তার পরিবার বেশ কিছু দিন যাবৎ নানা টালবাহানা শুরু করে।

শুক্রবার (৮ জানুয়ারি) বিকেলে এমন অবস্থায় খায়রুল বৃহস্পতিবার বাড়িতে আসলে খবর পেয়ে সোনিয়া খায়রুলের বাড়িতে বিয়ের দাবিতে অবস্থান নেয়। তবে খায়রুলের মা তাৎক্ষণিক সোনিয়াকে বেধড়ক মারপিট করে তাকে ঘর থেকে বের করে দেয়।  এরপর সোনিয়া তাদের বাড়ির উঠানে খোলা আকাশের নীচে অবস্থান শুরু করেছে। 

এদিকে সেনিয়ার ঐ বাড়িতে পৌছানোর কিছুক্ষণের মধ্যেই তার অভিভাবকরা খায়রুলকে কৌশলে বাড়ির বাইরে পাঠিয়ে দিয়েছে। 

বিষয়টি তাৎক্ষণিক স্থানীয় কপিলমুনি পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক সঞ্জয় কুমার দাশ ও এএসআই প্রবাস মিত্রকে অবহিত করা হয়েছে। এব্যাপারে ঐ কিশোরীর চাচা শেখ কামরুল ইসলাম অভিযোগ নিয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে গেলে তাকে পাইকগাছা থানায় অভিযোগ করার পরামর্শ দেওয়া হয়।   

অভিযুক্ত খায়রুলের পিতা আব্দুস সামাদ গাজীর নিকট জানতে চাইলে তিনি তার ছেলে নির্দোষ বলে দাবি করেন।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ