• 0
MD Emran
Posted at 08/01/2021 06:54:pm

শিশুর হাতে শিশু খুন!

শিশুর হাতে শিশু খুন!

আহসান হাবীব (১২) ও খাদিজা (২), একজন অপরজনের মামাতো-ফুফাতো ভাই বোন। আহসান বড় ভাই, সে মানসিকভাবেও কিছুটা ভারসাম্যহীন।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৭ জানুয়ারি) খাদিজাকে কোলে নিয়ে খাবার কিনতে দোকানে যায় আহসান। পরিবারের লোকজন সন্ধ্যায় খাদিজার লাশ পায়। ময়নাতদন্তের জন্য আজ শুক্রবার সকালে তার লাশ পাবনা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে‌। 

বৃহস্পতিবার বিকেলে হত্যাকাণ্ডটি ঘটে। খাদিজার পরিবার এ হত্যাকাণ্ডের জন্য দায় দিচ্ছেন মামাতো ভাই আহসান হাবীবকে। তাকে আটক করেছে পুলিশ।  খাদিজার বাবার নাম বাবলু হোসেন।

তারা উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের বাহাদুরপুর গ্রামের বাসিন্দা। আটক আহসান হাবীব একই গ্রামের সুরুজ হোসেনের ছেলে। 

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, মানসিক ভারসাম্যহীন আহসান হাবীব মাঝে মধ্যেই গ্রামের বিভিন্নজনকে মারধর করত।

গতকাল বিকেলে খাদিজার মা তাকে খাবার কিনতে দশ টাকা দেন। সে খাদিজাকে কোলে নিয়ে স্থানীয় একটি দোকানে খাবার কিনতে যায়। এরপর থেকে তাদের কোনো খোঁজ ছিল না। খোঁজাখুঁজি করতে গিয়ে সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে মো. আব্দুল্লাহ নামে স্থানীয় এক ব্যক্তির নির্মাণাধীন বাড়িতে খাদিজার মরদেহ পড়ে থাকতে দেখা যায়।

পরে স্থানয়ীরা থানায় খবর দিলে পুলিশ গিয়ে তার লাশ উদ্ধার করে।  চাটমোহর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) সজীব শাহরীন জানান, খাদিজার মাথায় আঘাতের চিহ্ন ও নির্মাণাধীন ভবনের দেয়ালে রক্তের চিহ্ন দেখে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে- তাকে মাথায় আঘাত করে হত্যা করা হয়েছে।

হত্যায় জড়িত সন্দেহে খাদিজার মামাতো ভাই আহসান হাবীবকে আটক করা হয়েছে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ