• 0
  • 0
mahfuz
Posted at 06/01/2021 04:50:pm

লালমনিরহাটে পাকাবাড়ি পাচ্ছে গৃহহীন ৯৭৮ পরিবার

লালমনিরহাটে পাকাবাড়ি পাচ্ছে গৃহহীন ৯৭৮ পরিবার

মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার পাকা বাড়ি পাচ্ছে লালমনিরহাটের ভুমিহীন ৯৭৮টি পরিবার।

প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ এ উপহার পেয়ে খুশি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারগুলো। সঙ্গে পাচ্ছে সরকারি ২ শতাংশ জমির কবুলিয়ত। ১ সন্তানের জননী স্বামী পরিত্যাক্ত গৃহহীন খোতেজা বেগম (৫০)। 

পরিবার পরিজন নিয়ে থাকতো লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার মধ্য গড্ডিমারী গ্রামের ঝুঁপড়ি ঘরে। মায়ের দেখভাল করার সামথ্য ছিলনা তার সন্তানের।কস্ট ছিল সীমাহীন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার পাকাবাড়ি পেয়ে খুশি খোতেজা বেগম। শুধু খোতেজা বেগম নয় তার মতো লালমনিরহাটে ৯৭৮টি পরিবার পাকাবাড়ি পেয়ে উচ্ছসিত। সরকারের আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর মাধ্যমে খাস জমি খুঁজে খুঁজে কাজটি বাস্তবায়ন করছে উপজেলা প্রশাসন। সময়মতো কাজ করতে ও মান ঠিক রাখতে তদারকি করছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

তবে জেলার আদিতমারী ও পাটগ্রাম উপজেলায় গৃহহীন পরিবারদের পাকা বাড়ি নির্মান কাজে উঠেছে নানা অনিয়মের অভিযোগ।যদিও জেলা প্রশাসকের দাবী অনিয়মের কোন সুযোগ নেই।

আয়শা বেগম বলেন, আমরা গৃহহীন পরিবার। প্রধানমন্ত্রী উপহার পাকাবাড়ি আমাদের মাথা গোঁছার ঠাঁই মিলেছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আল্লাহ দীর্ঘজীবি করুন। হাতীবান্ধা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শামীমা সুলতানা বলেন, সরকারের আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় গৃহহীন পরিবারকে স্থানীয়ভাবে খাস জমি খুঁজে খুঁজে বের করে ৪২৫টি ঘর বরাদ্দের স্থান নির্ধারণ ও তাদের জন্য ২ শতাংশ জমি বরাদ্দের জন্য কবুলিয়তের কাজ শেষ পর্যায়ে। আনুষ্ঠানিকার মাধ্যমে তা বিতরণ করা হবে।

হাতীবান্ধা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সামিউল আমিন বলেন,সরকারের আশ্রয়ন প্রকল্প-২ এর আওতায় বরাদ্দকৃত-৪২৫টি ঘর নির্মান গুনগত মান রক্ষা করে কাজ করছি।সময়মতো শেষ করার পরিকল্পনা রয়েছে।

লালমনিরহাট জেলা প্রশাসক আবু জাফর বলেছেন,সরকারের ঘোষিত গৃহহীনদের জন্য পাকাবাড়ি নির্মাণ কাজে নিয়মমাফিক তদারকি করা হচ্ছে। এখানে অনিয়মের কোন সুযোগ নেই।

তিনি আরো জানান,লালমনিরহাটে ৫৮১৩টি গৃহহীন পরিবার রয়েছে। পর্যায়ক্রমে সকলকে এ কার্যক্রমের আওতায় আনার পরিকল্পনা রয়েছে।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ