• 0
  • 0
Rakib Monasib
Posted at 04/01/2021 12:02:pm

নতুন বছরে যেসব সিনেমা দর্শকদের দেখতে উৎসাহিত করবে

নতুন বছরে যেসব সিনেমা দর্শকদের দেখতে উৎসাহিত করবে

গত বছরটা সিনেমার দুনিয়ার জন্য ছিল নিদারুণ হতাশার। আলোচিত ছবিগুলো মুক্তি পায়নি। এমনকি নতুন ছবিই সেভাবে সিনেমা হলে মুক্তি পায়নি। পাবে কী করে! লকডাউনে দুনিয়ার প্রায় সবখানেই বন্ধ ছিল সিনেমা হল।

নতুন বছরে দর্শকরা তাই মুখিয়ে আছেন নতুন সব ছবি দেখার জন্য। এর মধ্যে অনেকগুলো গত বছরেই দেখার কথা ছিল। এ বছর হলিউডে যেসব ছবি অলোচনায়, সে রকম কয়েকটি ছবির খোঁজখবর নিয়ে এ ফিচার—

নিউজ অব দ্য ওয়ার্ল্ড

যুক্তরাষ্ট্রের সিভিল ওয়ারের পরবর্তী সময়ের প্রেক্ষাপটে ২০১৬ সালে একই নামে প্রকাশিত পলেট জিলসের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে এ ছবি। নিউজ অব দ্য ওয়ার্ল্ড পরিচালনা করেছেন পল গ্রীনগ্রাস।

ছবিতে টম হ্যাংকসকে দেখা যাবে ক্যাপ্টেন জেফারসন কাইল কিডের চরিত্রে। জেফারসন টেক্সাসের বুকে ঘুরে বেড়ায় আর মানুষকে গল্প শোনায়, অক্ষরজ্ঞানহীনদের সংবাদপত্র পড়ে শোনায়। ক্যাপ্টেন সিভিল ওয়ারের একজন সেনা। তার ঘুরে বেড়িয়ে চলা জীবনে হঠাৎই এক ছন্দপতন ঘটে। কারণটি এক কিশোরী, নাম তার জোহানা। যুদ্ধের সময় বেশ কয়েক বছর আগে সে পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছিল। তারপর সে বাস করছিল রেড ইন্ডিয়ানদের কিয়োবা সম্প্রদায়ের সঙ্গে। দৃঢ় আর স্বাধীনচেতা ক্যাপ্টেন জেফারসনের কাঁধে দায়িত্ব পড়ল জোহানাকে তার পরিবারের কাছে ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার। এরপর শুরু হয় ক্ল্যাসিক্যাল এক ‘ওয়েস্টার্ন’ যাত্রা।

একসময় বোঝা যায় তারা দুজনই আসলে একটা ঘরের খোঁজে ছিলেন। জোহানাকে ক্যাপ্টেন বলছেন, ‘পত্রিকার এ কাহিনীগুলো আমাদের বাড়ি খুঁজে দিতে পারবে না। পথ খুঁজে পাওয়াটা খুব কঠিন।’


ঘোড়ায় চড়ে বুনো পশ্চিমে তাদের যাত্রাপথে ক্যাপ্টেন ও জোহানা অনেক বাধার মুখোমুখি হয়। এর মধ্যে আছে ভাষা না জানা, মারদাঙ্গা আইন না মানা মানুষ ও ধুলোঝড়।

নিউজ অব দ্য ওয়ার্ল্ডের চিত্রনাট্যও লিখেছেন গ্রীনগ্রাস ও লুক ডেভিস। ছবিতে টম হ্যাংকস ছাড়াও আছেন হেলেনা জেনগেল (জোহানা), এলিজাবেথ মার্ভেল, মাইকেল কোভিনো, ক্রিস্টোফার হেগান। ছবিটি বছরের প্রথম দিন যুক্তরাজ্যে মুক্তি পেয়েছে।

সিন্ডারেলা

সিন্ডারেলার রূপকথা অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে এ ছবি। কাহিনী লিখেছেন কে ক্যানন। পরিচালনাও করেছেন তিনি। এটা মিউজিক্যাল রোমান্টিক কমেডি ছবি। সিন্ডারেলার চরিত্রে অভিনয় করেছেন গ্র্যামিতে মনোনয়ন পাওয়া তারকা গায়িকা ক্যামিলা ক্যাবেলো। নিষ্ঠুর সৎ মায়ের ভূমিকায় দেখা যাবে ইডিনা মেনজেলকে, সুন্দর রাজপুত্র রবার্ট হয়েছেন ব্রিটেনের নিকোলাস গালিটজিন। ছবিটি মুক্তি পাবে ৫ ফেব্রুয়ারি।

দ্য ডিসিডেন্ট

অস্কার বিজয়ী প্রামাণ্যচিত্র নির্মাতা ব্রায়ান ফোগল ওয়াশিংটন পোস্টের কলামিস্ট জামাল খাসোগির হত্যাকাণ্ডকে বেছে নিয়েছেন তার ছবির জন্য। জামাল ছিলেন সৌদি সরকারের কঠোর সমালোচক। ২০১৮ সালে তিনি তুরস্কে সৌদি দূতাবাসে গিয়েছিলেন তার বিয়েসংক্রান্ত কাগজপত্র আনতে। দূতাবাসের ভেতরেই তাকে হত্যা করা হয়। সৌদি আরব পশ্চিমাদের গুরুত্বপূর্ণ মিত্র ও অস্ত্রের ক্রেতা হওয়ায় তারা এ ঘটনায় তেমন শক্ত প্রতিক্রিয়া দেখায়নি। শোনা যাচ্ছে ফোগলের দ্য ডিসিডেন্টে থাকবে চ্যাঞ্চল্যকর অডিও-টেপ, যা থেকে জানা যাবে খাসোগিকে হত্যার নির্দেশ কে দিয়েছিলেন। তাই অনেকেই আগ্রহসহকারে ফোগলের ছবির জন্য অপেক্ষা করছেন। ছবিটি মুক্তি পাবে ৫ মার্চ।

দ্য ফাদার

ফ্লোরিয়ান জেলাঁর ফরাসি মঞ্চনাটক অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে এ ছবি।


ছবিতে অ্যান্থনি হপকিন্স যথারীতি তার অভিনয় দক্ষতার প্রকাশ দেখিয়েছেন। ছবিটি জেলাঁ নিজেই পরিচালনা করেছেন। ছবির জন্য ইংরেজি চিত্রনাট্য তৈরি করেছেন ক্রিস্টোফার হ্যাম্পটন। হপকিন্স অভিনয় করেছেন একজন বৃদ্ধের ভূমিকায়, যিনি ধীরে ধীরে স্মৃতিশক্তি হারিয়ে ফেলছেন। তার মেয়ের চরিত্রে আছেন অলিভিয়া কোলম্যান। ছবিতে দর্শক মনে হবে দুঃস্বপ্ন দেখছেন। দ্য ফাদার মুক্তি পাবে ১২ মার্চ।

নো টাইম টু ডাই

সন্দেহ নেই ২০২০ সালে সবচেয়ে প্রতীক্ষিত ছবিগুলোর একটি ছিল নো টাইম টু ডাই।


কিন্তু মহামারীতে শেষমেশ ছবিটি আর মুক্তি পায়নি। লকডাউনের কারণে ছবির মুক্তির তারিখ দুবার পিছিয়ে যায়। এ ছবিতে ড্যানিয়েল ক্রেগকে শেষবারের মতো বন্ড চরিত্রে দেখা যাবে। ক্রেগের সঙ্গে রামি মালেকের তুমুল লড়াই দেখতে মুখিয়ে আছেন বন্ড ভক্তরা। নো টাইম টু ডাই মুক্তি পাবে ২ এপ্রিল।

ব্ল্যাক উইডো

বিখ্যাত অস্ট্রেলীয় ছবি সমারসল্টের পরিচালক কেট শর্টল্যান্ড এবার পবিচালনা করেছেন বড় বাজেটের সুপারহিরো ছবি। ছবিতে ব্ল্যাক উইডোই মূল চরিত্র। তাকে দেখতে মার্ভেল ভক্তরা অপেক্ষায় আছেন। ক্যাপ্টেন আমেরিকা : সিভিল ওয়ারের পর ব্ল্যাক উইডো হিসেবে ফিরলেন স্কারলেট জোহানসন। ছবিটি মুক্তি পাবে ৭ মে।

টপ গান : মাভেরিক

এ বছর ফিরছেন গতিময়, কিছুটা বালকসুলভ ক্যাপ্টেন পেট ‘মাভেরিক’ মিচেল।


টম ক্রুজকে যথারীতি দেখা যাবে টপ গানের এ সিক্যুয়ালে। যুক্তরাষ্ট্রের কিংবদন্তি নেভি পাইলটের দুর্ধর্ষ জীবনের গল্প দেখা যাবে ছবিতে। ছবিটি মুক্তি পাবে ৯ জুলাই।

দ্য বিটলস : গেট ব্যাক

বিটলসের শেষ অ্যালবামের নাম লেট ইট বি। আর এ অ্যালবাম নির্মাণের কাহিনী দেখা যাবে পিটার জ্যাকসনের প্রামাণ্যচিত্রে। এতে সহযোগিতা করেছেন বিটলসের জীবিত সদস্য পল ম্যাকার্টনি ও রিংগো স্টার। ছবিতে থাকবে নতুন করে সম্পাদনা করা কিছু ফুটেজ। ম্যাকার্টনি ও রিংগোর স্মৃতিচারণও থাকবে। আর একটি চমকে দেয়া তথ্য হচ্ছে নিজের ওয়ার ফিল্ম দে শ্যাল নট গ্রো ওল্ড-এ ব্যবহার করা ট্রান্সফর্মেটিভ ডিজিটাল প্রযুক্তি জ্যাকসন এতে ব্যবহার করেছেন। দ্য বিটলস: গেট ব্যাক দেখার জন্য দর্শকদের বেশ কয়েক মাস অপেক্ষা করতে হবে। এটি মুক্তি পাবে ২৯ আগস্ট।

দ্য লাস্ট ডুয়েল

মধ্যযুগের ফ্রান্সের সত্য ঘটনার ওপর ভিত্তি করে ছবির চিত্রনাট্য লিখেছেন বেন অ্যাফ্লেক, ম্যাট ডেমন ও নিকোল হলোফসেনার। ছবিটি পরিচালনা করেছেন রিডলি স্কট। ম্যাট ড্যামন অভিনয় করেছেন নাইট স্যার জ্যাঁ ডি কারোজেসের চরিত্রে। তিনি তার বন্ধুর বিরুদ্ধে তার স্ত্রীকে ধর্ষণ করার অভিযোগ আনেন। রাজা ষষ্ঠ চার্লস ঘোষণা করেন এ বিবাদের সমাধান করার একটাই পথ আছে— বাদী ও বিবাদীর মধ্যে ডুয়েল লড়াই। আর যিনি সত্য বলছেন তারই জয় হবে। রাজা ষষ্ঠ চার্লসের চরিত্রে অভিনয় করেছেন বেন অ্যাফ্লেক। জ্যাঁ ডি কারোজেস হেরে গেলে তার স্ত্রীকে আগুনে পোড়ানো হবে মিথ্যা অভিযোগ আনার জন্য। টানটান উত্তেজনায় ভরা এ ড্রামা ফিল্মটি মুক্তি পাবে ১৫ অক্টোবর।

ওয়েস্ট সাইড স্টোরি

এ মিউজিক ক্ল্যাসিক নিয়ে ছবি বানাচ্ছেন স্টিভেন স্পিলবার্গ। আত্মপরিচয় ও জাতীয়তার রাজনীতির মতো উত্তপ্ত ইস্যু আছে এ কাহিনীতে। শেকসপিয়রের রোমিও অ্যান্ড জুলিয়েট দিয়ে অনুপ্রাণিত এ গল্প। বড় পর্দায় এ ছবি দেখা যাবে ১০ ডিসেম্বর।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ