• 0
  • 0
SB Meraz
Posted at 03/01/2021 10:37:am

প্রথমে মেরেছে মুরগি, পরে নাছিমা

প্রথমে মেরেছে মুরগি, পরে নাছিমা

মুরগি মেরে ফেলা নিয়ে প্রতিবাদ করতে গিয়ে এক নারী খুন হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বরিশাল সদর উপজেলার টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়নের সাহেবেরহাট সংলগ্ন কুন্দিয়ালপাড়া এলাকায়। শনিবার চিকিৎসাধীন অবস্থায় শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যু হয় নাছিমা বেগম নামের ওই নারীর। 

নাছিমার ছেলে সাহেবেরহাট ডিগ্রি কলেজের শিক্ষার্থী নাঈম বলেন, গত মঙ্গলবার আমগো এক মুরগি বড় চাচা সুলতান শরীফের ঘরে যায়। তারা মুরগিটারে পিটাইয়া মাইরা ফালাইছে। আমার মা মুরগি কেন মারছে সেটা জিগাইতে গেলে চাচা আমার মাইয়েরে লাঠি দিয়া পিটাইছে। আব্বায় বাধা দিতে গেলে তারেও মারছে।   

নাইম জানান, ওই দিন বাড়ি ফিরে তিনি তার বাবা-মাকে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করান। শনিবার বিকেল তিনটার দিকে তার মায়ের মৃত্যু হয়। বাবা এখনও চিকিৎসাধীন।

নাইমের অভিযোগ, তার চাচার নেতৃত্বে চাচাতো ভাই জাকির, জলিল, রাসেল ও চাচি রুসিয়া বেগমের মারধরের কারণেই তার মায়ের মৃত্যু হয়েছে। থানায় হত্যা মামলা করবেন বলে জানান নাইম। মহানগর বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন তালুকদার জানান, এ ঘটনায় তিনি কোনো লিখিত বা মৌখিক অভিযোগ পাননি। তবে স্থানীয়দের কাছ থেকে শুনে বিষয়টি তদন্তে পুলিশ পাঠিয়েছেন। মরদেহ ময়নাতদন্তের পর পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।



শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ