Feedback

সাহিত্য

ধাধার রাজা কালিদাস- কৃষ্ণজন

ধাধার রাজা কালিদাস- কৃষ্ণজন
November 19
09:50pm
2020
MD MAJNUR RAHMAN
SHAHAL, DHAKA:
Eye News BD App PlayStore

কবি কালিদাসের শব্দ উচ্চারণ সমস্যা ছিল, সে ছিল তোতলা কিসিমের। প্রথম জীবনে সে নিপাট এক বুদ্ধু মানে নির্বোধ ধরনের মানুষ ছি্লেন। কালিদাসের সঙ্গে যে রাজকন্যার বিয়ে হয় তিনি ছিলেন খুবই বিদুষী নারি। তার জ্ঞান বা পাণ্ডিত্বের এতোই অহংকার ছিল যে তিনি ঘোষণা দিয়েছিলেন যে তাকে জ্ঞানে হারাতে পারবে তাকেই সে বরমাল্য দিবে। অনেক পণ্ডিত ব্যক্তি তার সঙ্গে জ্ঞান যুদ্ধে নেমে হেরে গিয়ে অপমানিত হয়ে ফিরে যায়। শেষে সেসব ব্যর্থ পণ্ডিতরা সিদ্ধান্ত নেয় রাজকন্যাকে চরম এক শিক্ষা দিতে হবে। তারা খুঁজতে থাকে দেশের সবচেয়ে বোকা লোককে এবং তারা পেয়েও যায়; গাছে উঠে ডাল কাটছে এক ব্যক্তি, যে অংশটুকু সে কেটে ফেলবে সেই অংশে সে দাঁড়িয়ে ডালটি কাটছে। কালিদাসকে তারা বুঝিয়ে সুজিয়ে নিয়ে যায় রাজ দরবারে, রাজকন্যা যা প্রশ্ন করে আড়াল থেকে পণ্ডিতরা তা কালিদাসকে বলে দেয় আর কালিদাস উত্তর দেয়। এভাবে সব প্রশ্নের উত্তর দিতে পারায় রাজকন্যা খুশি হয় এবং কালিদাসের সঙ্গে তার বিয়ে হয়। রাজকন্যা মহা খুশি, বাসর রাত, বাইরে উট ডাকছে, তার মহাপণ্ডিত স্বামীর কাছ থেকে কাব্যময় কিছু শোনার আশায় রাজকন্যা কালিদাসকে জিজ্ঞেস করে, ‘কি ডাকে?’ কালিদাসের উচ্চারণের সমস্যা ছিল সোজা কথায় কিছুটা তোতলা ছিল সে। বলে উঠেউষ্ট রাজকন্যা ঠিকমত না শুনতে পেরে আবার বললকি ডাকছে বাহিরে?’ কালিদাস এবার বলল, ‘উট্র রাজকন্য সঙ্গে সঙ্গে ধরে ফেলল কালিদাসের বিদ্যা! তাকে যে ঠকানো হয়েছে সে বুঝতে পারল। তখন সে মনের দুঃখে বলল

কিং করতি বিধি যদি রুষ্ঠ
কিংন দদাতি সএবি তুষ্ট
উষ্ট্রে লুসপতি রং বা সং বা
তসমৈ দত্তা নিবিড় নিতম্বা
(“কি না হতে পারে বিধাতা যদি অসন্তুষ্ট হয়!
কিনা পাওয়া যায় বিধাতা যদি সন্তুষ্ট হয়?
উষ্ট্র উচ্চারণ করতে গিয়ে যার কখনওবালোপ পায়
তাকেই দিতে হবে এই নিবিড় নিতম্ব!”)
কথা বলে সে কালিদাসকে বের করে দেয়।

সেই অপমানে কালিদাস নামল জ্ঞান সাগরের সন্ধানে।পরবর্তিতে হয়ে উঠল সে যুগের এক অসাধারণ পণ্ডিত ব্যক্তি রূপে।কালিদাস ধাধার ছলেও অনেক জ্ঞান দান করতো। তার উল্লেখযোগ্য কয়েকটি ধাধা, যেমন- ১। কহেন কবি কালিদাস পথে যেতে যেতে, নেই তাই খাচ্ছ, থাকলে কোথায় পেতে? ২। চক থেকে এল সাহেব কোর্ট প্যান্ট পরে, কোর্ট প্যান্ট খোলার পরে চোখ জ্বালা করে। ৩। শুইতে গেলে দিতে হয়, না দিলে ক্ষতি হয়, কালিদাস পন্ডিত কয় যাহা বুঝেছ তাহা নয়। ইত্যাদি। 

কালিদাস ছিলেন    ধ্রুপদি সংস্কৃত ভাষার সাহিত্যিক। তার কবিতা নাটকে হিন্দু পুরান দর্শনের প্রভাব আছে। কালিদাস প্রাচীন যুগের ভারতীয় কবি। তবে তার জীবনকাহিনি সম্পর্কে বিশেষ নির্ভরযোগ্য তথ্য পাওয়া যায় না। তার সময়কাল নিয়ে দুটি মত প্রচলিত। এর মধ্যে বিক্রমাদিত্য নামে পরিচিত গুপ্ত সম্রাট দ্বিতীয় চন্দ্রগুপ্তের সভাকবি হিসাবেই তার খ্যাতি সমধিক। কালিদাস তার অনেক রচনাতেই দ্বিতীয় চন্দ্রগুপ্তের রাজ্য, রাজধানী উজ্জয়িনী রাজসভার উল্লেখ করেছেন। কালিদাসের বিখ্যাত কাব্যগুলোর মধ্যে  মেঘদুতম, কুমারসম্ভবম রঘুবংশম, ঋতুসংহার ইত্যাদি নামক কাব্যগুলি উল্লেখযোগ্য। এছাড়া নলোদয় দ্বাদশ-পুত্তলিকা নামে দুটি আখ্যানকাব্য এবং অভিজ্ঞানশকুন্তলম, বিক্রমোবর্শীয়ম মাল্বিকাগ্নিমিত্রম নামে তিনটি নাটক রচনা করেন।

অমরতার একটি উৎকৃষ্ট উদাহরণ হচ্ছে কবি কালিদাস। সেই প্রাচীন অনুন্নত যুগে রচিত হওয়া তার সৃষ্টি কর্মসমূহ  দীর্ঘ সময়ের ইতিহাসকে পেরিয়ে দিব্যি চলে এসেছে আমাদের কালে এবং তা ব্যাপক জনপ্রিয়তার সঙ্গেই। কবি কালিদাস তাই একজন সার্থক কালজয়ী পুরুষ।

তার মৃত্যুটা ছিল করুণ, এক সরাইখানার মালিক ছিল তার বন্ধু। সে তার বারবনিতাকে একটা কবিতার লাইন লিখে বলল সে যদি এর বাকি লাইন মিলাতে পারে তবে তাকে মোটা অংকের পুরস্কার দেয়া হবে। রাত বেশি হওয়াতে মালিক চলে গেল ঘুমাতে। কালিদাস সে রাতে গেল তার সঙ্গে দেখা করতে, গিয়ে টেবিলে দেখল সেই কবিতার খাতা, তার সঙ্গে মিলিয়ে লিখে ফেলল পরের লাইনগুলি। লিখা শেষে গিয়ে এক কামরায় ঘুমিয়ে পড়ল। সেই বারবনিতা পুরস্কারের লোভে ঘুমন্ত কালিদাসকে হত্যা করল। এইভাবে শেষ হল এক মহাকবির জীবন। তবে সেই বারবনিতা পার পায়নি। সরাইখানা মালিক কবিতার লাইন দেখে বুঝে ফেলল, এটা সে কিছুতেই লিখতে পারে না। মালিক তাকে চাপ দিতে সে স্বীকার করল কালিদাসকে হত্যার ঘটনা।  

All News Report

Add Rating:

0

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জের আলোচিত শিশু সানজিদা হত্যার দায় স্বীকার করলো গর্ভধারিনী মা

বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জের আলোচিত শিশু সানজিদা হত্যার দায় স্বীকার করলো গর্ভধারিনী মা

মসজিদের কক্ষে প্রেমিকার সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তে ধরা ইমাম

মসজিদের কক্ষে প্রেমিকার সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তে ধরা ইমাম

কিশোরগঞ্জে স্কুলছাত্র হত্যা মামলায় মেয়ের ফাঁসি ও মায়ের যাবজ্জীবন

কিশোরগঞ্জে স্কুলছাত্র হত্যা মামলায় মেয়ের ফাঁসি ও মায়ের যাবজ্জীবন

পানিতে সারা-বরুণের ঠোঁটঠাসা চুমু, "কুলি নম্বর ১"এর ট্রেলার নিয়ে হইচই

পানিতে সারা-বরুণের ঠোঁটঠাসা চুমু, "কুলি নম্বর ১"এর ট্রেলার নিয়ে হইচই

জামালপুরে শিশুপুত্রকে হত্যার দায়ে পিতার মৃত্যুদন্ড

জামালপুরে শিশুপুত্রকে হত্যার দায়ে পিতার মৃত্যুদন্ড

২০২০ সালে বিচ্ছেদ হলো যাদের

২০২০ সালে বিচ্ছেদ হলো যাদের

নিজ পুত্রবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে সুন্দরগঞ্জে ধর্ষক শ্বশুর গ্রেফতার

নিজ পুত্রবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে সুন্দরগঞ্জে ধর্ষক শ্বশুর গ্রেফতার

দ্বিতীয় ধাপে ৬০ পৌরসভার ভোট জানুয়ারিতে, একটি দলের নিবন্ধন বাতিল

দ্বিতীয় ধাপে ৬০ পৌরসভার ভোট জানুয়ারিতে, একটি দলের নিবন্ধন বাতিল

বেনাপোল বর্ডার দিয়ে দেড় বছর পরে দেশে ফিরল ৪ বাংলাদেশী যুবতী

বেনাপোল বর্ডার দিয়ে দেড় বছর পরে দেশে ফিরল ৪ বাংলাদেশী যুবতী

বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য হলেন সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু

বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য হলেন সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু

শীতে এলেই বাড়ে হাড়ের ব্যথা, কী করবেন

শীতে এলেই বাড়ে হাড়ের ব্যথা, কী করবেন

খাল ধ্বংস করে সড়ক নির্মাণ

খাল ধ্বংস করে সড়ক নির্মাণ

১০ বছর প্রেম করে বিয়ের মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল বাবর

১০ বছর প্রেম করে বিয়ের মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল বাবর

ভাস্কর্য আর মূর্তি এক নয়: ধর্মপ্রতিমন্ত্রী

ভাস্কর্য আর মূর্তি এক নয়: ধর্মপ্রতিমন্ত্রী

যাবজ্জীবন সাজা মানে স্বাভাবিক মৃত্যু পর্যন্ত কারাদণ্ড: আপিল বিভাগ

যাবজ্জীবন সাজা মানে স্বাভাবিক মৃত্যু পর্যন্ত কারাদণ্ড: আপিল বিভাগ

সর্বশেষ

এবার বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলা

এবার বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলা

পাটগ্রামে সাবেক সমবায় কর্মকর্তা রকির বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা

পাটগ্রামে সাবেক সমবায় কর্মকর্তা রকির বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা

এমসি কলেজে গণধর্ষণ, আসামিদের ডিএনএ রিপোর্ট মিলছে

এমসি কলেজে গণধর্ষণ, আসামিদের ডিএনএ রিপোর্ট মিলছে

কোম্পানীগঞ্জে সিএনজি চালকের বাসা থেকে ৫০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার

কোম্পানীগঞ্জে সিএনজি চালকের বাসা থেকে ৫০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার

কোম্পানীগঞ্জে অটোরিক্সা চাপায় স্কুল ছাত্রের মৃত্যু

কোম্পানীগঞ্জে অটোরিক্সা চাপায় স্কুল ছাত্রের মৃত্যু

"মিস আর্থ" নির্বাচিত হলেন মার্কিন মডেল লিন্ডসে কফি

"মিস আর্থ" নির্বাচিত হলেন মার্কিন মডেল লিন্ডসে কফি

ইতিহাসের আজকের দিনেঃ ৩০ নভেম্বর

ইতিহাসের আজকের দিনেঃ ৩০ নভেম্বর

নওগাঁয় করোনার দ্বিতীয় তরঙ্গ মোবাবেলায় সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ

নওগাঁয় করোনার দ্বিতীয় তরঙ্গ মোবাবেলায় সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ

ছোট শিশুর মৃত্যু

ছোট শিশুর মৃত্যু

জমসেদ আলীর নামে ফেসবুক ও অনলাইন পোর্টালে প্রকাশিত মিথ্যা খবরের প্রতিবাদ

জমসেদ আলীর নামে ফেসবুক ও অনলাইন পোর্টালে প্রকাশিত মিথ্যা খবরের প্রতিবাদ

এবার বেবি পাম্প নিয়ে হাজির অনুষ্কা শর্মা

এবার বেবি পাম্প নিয়ে হাজির অনুষ্কা শর্মা

ধারাবাহিক আল কোরআন ; সূরা আল বাকারা, আয়াত ৭৫, বাংলা তরজমা ও তাফসির !

ধারাবাহিক আল কোরআন ; সূরা আল বাকারা, আয়াত ৭৫, বাংলা তরজমা ও তাফসির !

শিক্ষা ব্যবস্থার করুণ দশা! কি হতে যাচেছ সামনে?

শিক্ষা ব্যবস্থার করুণ দশা! কি হতে যাচেছ সামনে?

শুটিংয়ের মাঝেই স্ট্রোক, হাসপাতালে "আশিকি" নায়ক

শুটিংয়ের মাঝেই স্ট্রোক, হাসপাতালে "আশিকি" নায়ক

তাড়াইলে বিএনপি’র দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি  সভা, প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা

তাড়াইলে বিএনপি’র দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি সভা, প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা