Feedback

সারাবিশ্ব

ক্লাসরুমে মহানবী (সা.) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনে ফ্রান্সে এক শিক্ষকের শিরচ্ছেদ

ক্লাসরুমে মহানবী (সা.) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনে  ফ্রান্সে এক শিক্ষকের শিরচ্ছেদ
October 17
10:59am
2020
Nurul hasan Anowar
Chatok, Sunamganj:
Eye News BD App PlayStore

ক্লাসরুমে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (স)-এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনের জেরে ফ্রান্সে এক শিক্ষকের শিরচ্ছেদ করে হত্যা করা হয়েছে। সন্দেহভাজন হত্যাকারীকেও গুলি করে হত্যা করেছে পুলিশ। 

শুক্রবার প্যারিসের উত্তর-পশ্চিমে কনফ্লানস সেইন্তে-হনোরাইন এলাকার একটি রাস্তায় ঘটেছে এ হত্যাকাণ্ড। নাম গোপন রাখার শর্তে এক পুলিশ কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে বলেন, সন্দেহভাজন হত্যাকারীর হাতে একটি ছুরি ও একটি এয়ারসফট গান ছিল। শিক্ষককে হত্যার স্থান থেকে ৬০০ মিটার দূরে ওই ব্যক্তিকে গুলি করে হত্যা করে পুলিশ। 

এ পুলিশ কর্মকর্তা জানান, প্রায় ১০ দিন আগে ইতিহাসের ওই শিক্ষক তার ক্লাসে মহানবী (স)-এর কিছু ব্যঙ্গচিত্র দেখিয়েছিলেন, যা মুসলিমদের কাছে খুবই আপত্তিকর। ওই ব্যাঙ্গচিত্র নিয়ে বিতর্ক আয়োজনের পর থেকেই হত্যার হুমকি পাচ্ছিলেন তিনি।  শুক্রবার নিজ কর্মস্থল মিডল স্কুলটির সামনের সড়কেই হামলার শিকার হন ওই শিক্ষক। 

এদিকে, ফ্রান্সের বিচার বিভাগীয় একটি সূত্র বার্তা সংস্থা এএফপি’কে জানিয়েছে, হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে এক শিশুসহ চারজনকে আটক করা হয়েছে। এদের মধ্যে এক শিক্ষার্থীর অভিভাবক সম্প্রতি ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলেন বলে জানিয়েছেন এক পুলিশ কর্মকর্তা। তিনি আরও জানান, সন্দেহভাজন হত্যাকারীর কোনও সন্তান স্কুলটিতে পড়ে না। তবে ওই ব্যক্তির পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। 

ফরাসি সন্ত্রাসবিরোধী কৌঁসুলী জানিয়েছেন, এ হত্যাকাণ্ডকে সন্ত্রাসী সংগঠনের সঙ্গে সম্পর্কিত বলে মনে করছেন তারা।  শুক্রবার রাতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমান্যুয়েল ম্যাক্রোঁ। তিনি এ হত্যাকাণ্ডকে ‘ইসলামি সন্ত্রাসী হামলা’ বলে মন্তব্য করেছেন। পুলিশ জনসাধারণকে আপাতত ঘটনাস্থল এড়িয়ে চলার পরামর্শ দিয়েছে। 

এরাগনির মেয়র থিবল্ট হাম্বার্ট দ্রুততার সঙ্গে সন্দেহভাজন অপরাধীকে নিষ্ক্রিয় করায় পুলিশের তৎপরতার প্রশংসা করেছেন। ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেলাল্ড ডারমানিন জানিয়েছেন, শুক্রবারের এ হামলা পরিস্থিতি মোকাবিলায় একটি ক্রাইসিস সেন্টার চালু করা হয়েছে। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে।  সুত্র.অাল জাজিরা   

All News Report

Add Rating:

0

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

শিক্ষক সংকট : করোনা পরবর্তি সময়ে হাবিপ্রবিতে তীব্র সেশনজটের আশঙ্কা

শিক্ষক সংকট : করোনা পরবর্তি সময়ে হাবিপ্রবিতে তীব্র সেশনজটের আশঙ্কা

বীমা শিল্পে নারী জাগরণের পথিকৃৎ রাবেয়া বেগম রুনা

বীমা শিল্পে নারী জাগরণের পথিকৃৎ রাবেয়া বেগম রুনা

নৌবাহিনীর কর্মকর্তাকে মারধর: ভিডিও ভাইরাল সেলিমের ছেলের বিরুদ্ধে মামলা

নৌবাহিনীর কর্মকর্তাকে মারধর: ভিডিও ভাইরাল সেলিমের ছেলের বিরুদ্ধে মামলা

জেনে নিন, দালাল ছাড়াই পাসপোর্ট করার সহজ উপায় !

জেনে নিন, দালাল ছাড়াই পাসপোর্ট করার সহজ উপায় !

ফ্রান্সের আরও ওয়েবসাইট৩৫টি হ্যাক করল Royal Battler BD এবং Bangladesh Civilian Force ।

ফ্রান্সের আরও ওয়েবসাইট৩৫টি হ্যাক করল Royal Battler BD এবং Bangladesh Civilian Force ।

হাজী সেলিমের ছেলে ও ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ইরফান সেলিমের এক বছরের কারাদণ্ড

হাজী সেলিমের ছেলে ও ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ইরফান সেলিমের এক বছরের কারাদণ্ড

যে কারণে হাজী সেলিমের ছেলে কে এক বছরের কারাদন্ড

যে কারণে হাজী সেলিমের ছেলে কে এক বছরের কারাদন্ড

ঠাকুরগাঁওয়ে বিয়ের দাবীতে প্রেমিকের বাড়িতে ৩৩ দিন ধরে কলেজ ছাত্রীর অনশন

ঠাকুরগাঁওয়ে বিয়ের দাবীতে প্রেমিকের বাড়িতে ৩৩ দিন ধরে কলেজ ছাত্রীর অনশন

এসআই আকবর কে পালাতে সহায়তাকারী কে কে  আজ জানা যাবে

এসআই আকবর কে পালাতে সহায়তাকারী কে কে আজ জানা যাবে

১লা নভেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে মাধ্যমিক শ্রেণির সিলেবাস বাস্তবায়ন কার্যক্রম

১লা নভেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে মাধ্যমিক শ্রেণির সিলেবাস বাস্তবায়ন কার্যক্রম

কিশোরগঞ্জে জুয়ার আসরে র‌্যাবের হানা, আটক ১০

কিশোরগঞ্জে জুয়ার আসরে র‌্যাবের হানা, আটক ১০

মিন্নির মতো এই ১৪ জনেরও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চান রিফাতের বোন

মিন্নির মতো এই ১৪ জনেরও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চান রিফাতের বোন

ধর্ষণের কারন ও উৎস্য মোবাইলে পর্ণো ছবি ও যৌন উত্তেজক ঔষধ

ধর্ষণের কারন ও উৎস্য মোবাইলে পর্ণো ছবি ও যৌন উত্তেজক ঔষধ

কাঠালিয়ায় নদীর পাড় থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার

কাঠালিয়ায় নদীর পাড় থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার

সমাবেশেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন ডা. জাফরুল্লাহ

সমাবেশেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন ডা. জাফরুল্লাহ

সর্বশেষ

ভাষা শহীদ আব্দুল জব্বার গ্রন্থাগার ও স্মৃতি জাদুঘর

ভাষা শহীদ আব্দুল জব্বার গ্রন্থাগার ও স্মৃতি জাদুঘর

আমতলীতে এক জেলের পাঁচ হাজার টাকা অর্থদন্ড

আমতলীতে এক জেলের পাঁচ হাজার টাকা অর্থদন্ড

আমতলীতে ইয়াবাসহ সাবেক কাউন্সিলর গ্রেফতার

আমতলীতে ইয়াবাসহ সাবেক কাউন্সিলর গ্রেফতার

এবার ফ্রান্সের বিরুদ্ধে মুখ খুলল সৌদি আরব

এবার ফ্রান্সের বিরুদ্ধে মুখ খুলল সৌদি আরব

ভিপি নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১২ নভেম্বর

ভিপি নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১২ নভেম্বর

মির্জাপুরে যুবদলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

মির্জাপুরে যুবদলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

জামায়াতের আমির শফিকুরসহ ১৮৬ জনের বিচার শুরু

জামায়াতের আমির শফিকুরসহ ১৮৬ জনের বিচার শুরু

হাজী সেলিমের ছেলে ইরফানের ব্যক্তিগত কর্মকর্তা দিপু ৩ দিনের রিমান্ডে

হাজী সেলিমের ছেলে ইরফানের ব্যক্তিগত কর্মকর্তা দিপু ৩ দিনের রিমান্ডে

ব্লগার ওয়াশিকুর হত্যা মামলায় রায় হয়নি, পুনরায় অভিযোগ গঠনের শুনানি ৪ নভেম্বর

ব্লগার ওয়াশিকুর হত্যা মামলায় রায় হয়নি, পুনরায় অভিযোগ গঠনের শুনানি ৪ নভেম্বর

শ্যামনগরে অনলাইন বিতর্ক প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করলেন জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল

শ্যামনগরে অনলাইন বিতর্ক প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করলেন জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল

গত এক সপ্তাহে হাসপাতালে ভর্তি অর্ধশতাধিক ডেঙ্গু রোগী

গত এক সপ্তাহে হাসপাতালে ভর্তি অর্ধশতাধিক ডেঙ্গু রোগী

কুড়িগ্রামের উলিপুর পৌর মেয়রের গৃহকর্মীর আত্মহত্যা

কুড়িগ্রামের উলিপুর পৌর মেয়রের গৃহকর্মীর আত্মহত্যা

বে-আইনি   ‘দিয়ারা জরিপ’ বাতিলের দাবিতে বিক্ষুব্ধ জনতা

বে-আইনি ‘দিয়ারা জরিপ’ বাতিলের দাবিতে বিক্ষুব্ধ জনতা

রাসূল সা. এর ব্যঙ্গচিত্র প্রত্যাহার না করলে বিশ্বব্যাপী ফ্রান্সকে বয়কট এবং পণ্য বর্জনের ডাক

রাসূল সা. এর ব্যঙ্গচিত্র প্রত্যাহার না করলে বিশ্বব্যাপী ফ্রান্সকে বয়কট এবং পণ্য বর্জনের ডাক

টাঙ্গাইলে কর্মজীবী মায়েদের মাঝে স্বাস্থ্য পরিচর্যা সামগ্রী বিতরণ

টাঙ্গাইলে কর্মজীবী মায়েদের মাঝে স্বাস্থ্য পরিচর্যা সামগ্রী বিতরণ