Feedback

জাতীয়, আইন-আদালত

আবরারকে হত্যার এক বছর: করোনায় বিলম্বিত বিচার

আবরারকে হত্যার এক বছর: করোনায় বিলম্বিত বিচার
October 06
11:32am
2020
Masud Rana
Kotwali, Dhaka:
Eye News BD App PlayStore

২০১৯ সালের ৬ অক্টোবর বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থীদের জন্য বেদনাময় দিন।

আবরার হত্যার এক বছর পূর্ণ হয়েছে আজ মঙ্গলবার (৬ অক্টোবর)। ওই রাতে বুয়েটের শেরেবাংলা হলের একটি কক্ষে আবরারকে পিটিয়ে হত্যা করেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এ ঘটনায় পরের দিন ৭ অক্টোবর ১৯ জনকে আসামি করে চকবাজার থানায় হত্যা মামলা করেন আবরারের বাবা বরকতুল্লাহ।

মামলার ৩৭ দিনে তদন্ত শেষ করে ২৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হয়। এরপর অন্যান্য পদ্ধতি শেষ করে দ্রুত বিচারের লক্ষ্যে মামলাটি দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এ পাঠানো হয়। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে আদালত বন্ধ থাকায় মামলাটির বিচার বিলম্বিত হয়েছে। তবে আদালতের কার্যক্রম শুরু হয়েছে। দ্রুততার সাথে মামলাটির বিচার শেষ হবে বলে আশা করছে রাষ্ট্রপক্ষ।

মামলাটি ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামানের আদালতে সাক্ষ্য গ্রহণের পর্যায়ে রয়েছে।

সংশ্লিষ্ট আদালতের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর আবু আব্দুল্লাহ ভূঞা বলেন, মামলাটির বিচার দ্রুত নিষ্পত্তির জন্য আমাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে। আমরাও সেভাবে শুরু করেছিলাম। মাঝে করোনাভাইরাসের কারণে আদালত বন্ধ থাকায় কার্যক্রম হয়নি। রাষ্ট্রপক্ষ থেকে সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো যেন মামলাটির বিচার শেষ হয়।

আসামিপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ফারুক আহাম্মদ বলেন, মনে হয় মামলাটা নিয়ে একটু তাড়াহুড়া করা হচ্ছে। ৫ অক্টোবর থেকে ২৭ অক্টোবর ১৭টি ধার্য তারিখ সাক্ষ্যের জন্য রাখা হয়েছে। বিচার দ্রুত হোক আমরাও চাই। তবে এত দ্রুত নয় যে, যার কারণে আসামিরা প্রস্তুতির অভাবে ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত হয়।

আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ বলেন, করোনার কারণে মামলার বিচার পিছিয়ে গেল। এর জন্য কিছু করার ছিল না। করোনার প্রভাব না পড়লে মামলাটির বিচার শেষ হয়ে যেত। এখন আর যেন বিচারটা বিলম্ব না নয়। এটা একটা অমানবিক কাজ। সভ্য জগতে এ ধরনের ঘটনা বিরল। আশা করছি দ্রুততার সঙ্গে মামলার বিচার শেষে রায় হবে এবং আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা হবে। দৃষ্টান্তমূলক সাজা হলে পরবর্তীতে আর কেউ এমন নৃশংসকাজ করার সাহস পাবে না।

চার্জশিট দাখিলের সময় ২৫ আসামির মধ্যে ৪ জন আসামি পলাতক ছিলেন। যাদের চার্জশিট দাখিল হওয়ার পর প্রথমে সিএমএম আদালত ওই আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা এবং পরবর্তীতে সম্পত্তি ক্রোকাদেশ এবং শেষে অনুপস্থিতিতে বিচারের বিষয়ে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রদান করেন। ওই বছর ১৮ নভেম্বর থেকে চলতি বছর ১৩ জানুয়ারি পর্যন্ত ওইসব প্রক্রিয়ার মধ্যে চলতি বছর ১২ জানুয়ারি বুয়েটের মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারং বিভাগের ১৭তম ব্যাচের ছাত্র মোর্শেদ অমত্য ইসলাম সিএমএম আদালতে আত্মসমর্পণ করে। পওে আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

আসামিরা হলেন, বুয়েট ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান রাসেল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুহতামিম ফুয়াদ, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মো. অনিক সরকার ওরফে অপু, সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদী হাসান রবিন ওরফে শান্ত, আইন বিষয়ক উপ-সম্পাদক অমিত সাহা, উপ-সমাজসেবা বিষয়ক সম্পাদক ইফতি মোশাররফ সকাল, ক্রীড়া সম্পাদক মো. মেফতাহুল ইসলাম জিয়ন, গ্রন্থ ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক ইশতিয়াক আহম্মেদ মুন্না,কর্মী মুনতাসির আল জেমি, খন্দকার তাবাখখারুল ইসলাম তানভীর, মো. মুজাহিদুর রহমান, মো. মনিরুজ্জামান মনির, আকাশ হোসেন, হোসেন মোহাম্মদ তোহা, মো. মাজেদুর রহমান মাজেদ, শামীম বিল্লাহ, মুয়াজ ওরফে আবু হুরায়রা, এএসএম নাজমুস সাদাত, আবরারের রুমমেট মিজানুর রহমান, শামসুল আরেফিন রাফাত, মোর্শেদ অমত্য ইসলাম, এস এম মাহমুদ সেতু, মুহাম্মদ মোর্শেদ-উজ-জামান মন্ডল ওরফে জিসান,  এহতেশামুল রাব্বি ওরফে তানিম ও মুজতবা রাফিদ। আসামিদের মধ্যে প্রথম ২২ জন কারাগারে আছেন। শেষের তিনজন পলাতক। আর ৮ জন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

All News Report

Add Rating:

0

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

আগামী তিন বছরে ১২ লাখ ৩৩ হাজার অভিবাসী নেবে কানাডা

আগামী তিন বছরে ১২ লাখ ৩৩ হাজার অভিবাসী নেবে কানাডা

কাশিমপুর কারাগারে মিন্নি ফাঁসি কার্জকর হবে কি? এ নিয়ে সমালোচনার ঝড়

কাশিমপুর কারাগারে মিন্নি ফাঁসি কার্জকর হবে কি? এ নিয়ে সমালোচনার ঝড়

এবার কয়েদির পোশাকে মিন্নির ছবি ভাইরাল

এবার কয়েদির পোশাকে মিন্নির ছবি ভাইরাল

বাংলাদেশ এবং পাকিস্তানের অভিবাসীদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আহ্বান ফ্রান্সের

বাংলাদেশ এবং পাকিস্তানের অভিবাসীদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আহ্বান ফ্রান্সের

সৌদির মসজিদুল হারামের গেটে গাড়ি দুর্ঘটনা

সৌদির মসজিদুল হারামের গেটে গাড়ি দুর্ঘটনা

ফ্রান্সেই চাপের মুখে ইমানুয়েল  ম্যাক্রোঁ

ফ্রান্সেই চাপের মুখে ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ

মানবিক সাহায্যে এগিয়ে আসুন

মানবিক সাহায্যে এগিয়ে আসুন

টয়লেট করতে ঘর থেকে বের হল কিশোরী, ধর্ষণ করতে ঢুকে পড়লো যুবক

টয়লেট করতে ঘর থেকে বের হল কিশোরী, ধর্ষণ করতে ঢুকে পড়লো যুবক

চাচাতো বোনের সঙ্গে প্রেম করায় চাচার হাতে যুবক খুন

চাচাতো বোনের সঙ্গে প্রেম করায় চাচার হাতে যুবক খুন

বিধবাকে বাড়িতে একা পেয়ে ধর্ষণ, আটক ফেরিওয়ালা

বিধবাকে বাড়িতে একা পেয়ে ধর্ষণ, আটক ফেরিওয়ালা

সেনা সদস্যের ঝুলান্ত লাশ উদ্ধার

সেনা সদস্যের ঝুলান্ত লাশ উদ্ধার

করোনা মাস্ক না পরলে রাস্তা ঝাড়ু দিতে হবে

করোনা মাস্ক না পরলে রাস্তা ঝাড়ু দিতে হবে

আমতলীতে শিক্ষক স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা করে বিপাকে স্ত্রী, মামলা তুলে নিতে হুমকি

আমতলীতে শিক্ষক স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা করে বিপাকে স্ত্রী, মামলা তুলে নিতে হুমকি

ফ্রান্সের পণ্য বয়কটে সমালোচনার জবাব দিলেন ফারিয়া

ফ্রান্সের পণ্য বয়কটে সমালোচনার জবাব দিলেন ফারিয়া

অকার্যকর ফি সমূহ মওকুফ চায় হাবিপ্রবি শিক্ষার্থীরা

অকার্যকর ফি সমূহ মওকুফ চায় হাবিপ্রবি শিক্ষার্থীরা

সর্বশেষ

ঐতিহাসিক কান্তজি মন্দির ও ইতিকথা

ঐতিহাসিক কান্তজি মন্দির ও ইতিকথা

পুড়িয়ে মারার অনেকেই  পেট্রোলবোমার আসামি, গোয়েন্দাদের চাঞ্চল্যকর তথ্য

পুড়িয়ে মারার অনেকেই পেট্রোলবোমার আসামি, গোয়েন্দাদের চাঞ্চল্যকর তথ্য

মক্কা শরিফ নিয়ে ইবি শিক্ষার্থীর কটূক্তি, স্থায়ী বহিষ্কারের সুপারিশ

মক্কা শরিফ নিয়ে ইবি শিক্ষার্থীর কটূক্তি, স্থায়ী বহিষ্কারের সুপারিশ

গুজবে পিটিয়ে ও পুড়িয়ে মারার ঘটনায় ৩ মামলা, ৫ গ্রেপ্তার

গুজবে পিটিয়ে ও পুড়িয়ে মারার ঘটনায় ৩ মামলা, ৫ গ্রেপ্তার

চেচেনিয়ায় শিশুর নাম মুহাম্মদ রাখলেই পুরস্কার

চেচেনিয়ায় শিশুর নাম মুহাম্মদ রাখলেই পুরস্কার

মুসলিমদের অনুভূতি আমি বুঝতে পেরেছি: ইমানুয়েল ম্যাঁক্রো

মুসলিমদের অনুভূতি আমি বুঝতে পেরেছি: ইমানুয়েল ম্যাঁক্রো

ঐতিহাসিক নয়াবাদ মসজিদ ও মসজিদ নির্মানের ইতিহাস

ঐতিহাসিক নয়াবাদ মসজিদ ও মসজিদ নির্মানের ইতিহাস

শাহরুখ খান এবারের জন্মদিন ভিন্নভাবে পালন করবেন

শাহরুখ খান এবারের জন্মদিন ভিন্নভাবে পালন করবেন

গাইবান্ধায় ডিবি পুলিশ পরিচয়ে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ভুয়া ডিবি পুলিশ গ্রেফতার

গাইবান্ধায় ডিবি পুলিশ পরিচয়ে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ভুয়া ডিবি পুলিশ গ্রেফতার

গাইবান্ধার সাঘাটায় যমুনা নদীতে নৌকা বাইচ অনুষ্ঠিত

গাইবান্ধার সাঘাটায় যমুনা নদীতে নৌকা বাইচ অনুষ্ঠিত

যশোরে হাজারো কণ্ঠে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)- কে অবমাননার প্রতিবাদ

যশোরে হাজারো কণ্ঠে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)- কে অবমাননার প্রতিবাদ

বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ, ৭৯১ যাত্রীর জরিমানা

বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ, ৭৯১ যাত্রীর জরিমানা

চুল পড়ার চিকিৎসা

চুল পড়ার চিকিৎসা

পলাশবাড়ীতে ধর্ষণ চেষ্টা মামলার ওয়ারেন্টভূক্ত আসামী গ্রেফতার

পলাশবাড়ীতে ধর্ষণ চেষ্টা মামলার ওয়ারেন্টভূক্ত আসামী গ্রেফতার

ফ্রান্সের পণ্য বয়কটে সমালোচনার জবাব দিলেন ফারিয়া

ফ্রান্সের পণ্য বয়কটে সমালোচনার জবাব দিলেন ফারিয়া