Feedback

লাইফস্টাইল, সুনামগঞ্জ

সুনামগঞ্জ সমাচার

সুনামগঞ্জ সমাচার
September 24
12:31pm
2020
ASHIM CHANDRA PAUL
Sadar, Sylhet:
Eye News BD App PlayStore

বাসা থেকে বাহির হলাম, গন্তব্য সুনামগঞ্জ। যথারীতি দেরী হয়ে গিয়েছে, তারপর ও তাড়াতাড়ি করার চেষ্টা। কপাল ভাল গাড়ি পেয়ে গেলাম। খেয়াল করলাম একেবারে সামনের আসনের বাম দিকে একজন কিশোর বসা। তার হাতে একটি বই যেটি সে অতি মনযোগের সাথে পড়ছে আর একটি বই তার আসনের সামনে রাখা। চমকিত হলাম আবেগে,কিন্তু অবাক হলাম না। আজকাল যখন এই বয়সী ছেলেরা মোবাইল নিয়ে ব্যতিব্যস্ত তখন এরকম দেখলে অবাক হবার কথাই। আমার পাশের যাত্রী অনেকক্ষন দেখার পর বইটি হাতে নিয়ে পড়া আরম্ভ করলেন। গাড়ির ভেতরের পরিবেশটা তখন চমৎকার। যেখানে সবার মোবাইল নিয়ে ব্যস্ত থাকার কথা ছিল সেখানে দুইজন যাত্রী বই পড়া নিয়ে সুন্দর সময় পার করছেন। 

আমরা একজন যদি বদল হতে পারি তবে আস্তে আস্তে করে সমাজ বদল হবে আশা রাখি। গাড়ীতে ওই কিশোর যদি বই দুইটি হাতে করে না উঠত তবে পরিবেশ টা এইরকম হত না।  যেহেতু আমার পাশে বসা দুইজন বই পড়া নিয়ে আছেন আমার তখন কোনভাবেই মোবাইল চেটিং করতে মন সায় দিচ্ছিলনা। অধ্যাপক আনিসুল হক স্যারের " সফল হওয়ার উপায় "- এই ধরনের একটি বই সে পড়ছিল। আমার পাশের ভদ্রলোক কিছু সময় পর বইটি তার হাত থেকে রাখলেন। আমার শুরুর দিক থেকেই লোভ হচ্ছিল বিনে পয়সায় বইটি পড়তে পারব বলে। আজকাল বই পড়া ছেড়েই দিয়েছি বলা যায়। বছর খানেক আগে "বঙগবন্ধুর আত্মজীবনী" নামক বইটি কেনার জন্য স্থানীয় একটি লাইব্রেরীতে গিয়েছিলাম। বিক্রেতা আমার কাছে বইটির মূল্য বাবদ চারশত পঞ্চাশ টাকা চেয়েছিলেন। তখন আমি বই পড়া থেকে অনেক দূরে। দাম নিয়ে সন্দেহ হওয়ায় পাশের আরেকটি লাইব্রেরীতে গিয়েছিলাম উক্ত বইটির দাম নিশ্চিত হওয়ার জন্য। পাশের দোকানি বইটির দাম বললেন একশত সত্তর টাকা। প্রথমোক্ত দোকানে বইটির দাম অনেক বেশি বলা হয়েছিল। আমি প্রথম দোকান থেকে প্রতারিত হয়ে পরের দোকান থেকেই বইটি নিলাম। 

প্রায় অনেকদিন পর একটি নতুন বই কিনলাম।খুব আনন্দ হচ্ছিল। সামান্য কিছু টাকা বিনিয়োগ এর মাধ্যমে আবারো আনন্দ পাওয়া হবে। আবারো বইয়ের জগতের সদস্য হওয়া যাবে। 

আমাদের গাড়ীর একজন যাত্রীর কি অসাধারণ শক্তি!আমি আমার মোবাইল বের করে বাজেভাবে সময় অতিবাহিত করতে পারতাম কিন্তু পরিবেশ আমাকে অন্যদিকে নিয়ে গেল। আমি বইটি হাতে নিয়ে পড়তে আরম্ভ করলাম। 

সিলেট থেকে সুনামগঞ্জ বেশি দুরের রাস্তা না হলেও বর্তমানে রাস্তা খারাপ হওয়ার কারনে অনেক সময় লেগে যায়। আমি রাস্তার কোলাহল,চিৎকার,হল্লা,গাড়ীর সাইরেন সবকিছুকে ছাপিয়ে লেখকের সুন্দর লেখনির জগতে হারিয়ে যেতে লাগলাম। 

লেখকের মতে আমাদের জগতের প্রতিটি মানুষই সফল। অসম্ভব সত্যি কথা। সফলতা মানুষের সহজাত। মানুষ সবসময়ই নিজেকে অতিক্রম করে দেখিয়েছে। আমাদের সমাজ ব্যবস্থা অধিক সংখ্যক সফল মানুষ তৈরী করতে পারছে না। আমরা সবসময় আমাদের জীবিকার দিকটা মূল্যায়ন করতে গিয়ে আমাদের পছন্দ কে মূল্যায়ন করতে পারছি না। 

একজন কিশোরের একটু সুন্দর দিকের কারনে আমি অনেকদিন পর গাড়ীর মধ্যে ও পড়তে বসেছি। তার সুন্দর অভ্যাস আমাকে অভিভূত করেছে। তার হাতে দুইটি বই ছিল। একটি সে নিজে পড়ছিল। আজকাল এই বয়সী ছেলেদের কাছে দুইটি মোবাইল থাকাই সমীচিন মনে করা হয়। আমরা সময়ের কারনে হোক আর যোগাযোগের কারনেই হোক এই বস্তুটিকে অগ্রাহ্য করতে পারব না কিন্তু আমরা যদি এর ব্যবহারকে সীমিত করতে পারি তবে আমাদের পারিপার্শ্বিক পরিবেশের মান অনেক উন্নত হবে। 

মানুষের জন্মই সফল হওয়ার জন্য। কোন না কোনভাবে সে সফল হবেই। আর এজন্য বই পড়ার অভ্যেস কে আমাদের নিয়মিত করতে হবে। 

বই পড়তে চাই নিয়মিত কিন্তু আমাদের পড়ার সময় কোথায়?বই আমাদেরকে টেনে ধরার শক্তি হারিয়েছে আর আমরাও এখন বইকে সময় দেবার মত সময়ের খুভ অভাব। 

খারাপ সময়ের পর যেমন ভাল সময় আসে ঠিক তেমনি অনেকদূর খারাপ সময় অতিবাহিত করার পর এবার আমাদের গাড়ী ভালো রাস্তায় চলতে আরম্ভ করল। 

রাস্তার দুপাশের সবুজ বনানী আগের অসুন্দর পরিবেশের খানিক টা চেহারা ভুলিয়ে দিল। সুন্দর আমরা সবাই পছন্দ করি। অসুন্দর কাহারও ভালো লাগে না। 

এক সময় টেক্সট বইয়ের বাহিরের বই পড়তে খুব ভালো লাগত। বই পড়ার ব্যপারেও পছন্দের একটা ইতিবাচক দিক আছে। আমার কাছে যে বইটি ভাল লাগে, সেটি খুব তাড়াতাড়ি পড়ে ফেলি। একটি ভাল বই একজন পাঠক কে অনেক সুন্দর সময় উপহার দিতে পারে। 

বই পড়া আর না পড়ার ব্যবধানটা আমার কাছে প্রায় অনেক দিনের। ভাল লাগে না বলে অনেক টেক্সট বই অনেক পড়েও পাস করতে পারিনি। 

আমাদের গাড়ী সুনামগঞ্জের প্রায় কাছাকাছি। আফসোস হতে লাগলো বইটি হয়তো পুরোপুরি পড়ে শেষ করতে পারব না। অসমাপ্তেরও বোধহয় একটি সৌন্দয্য আছে। বইটি পড়ার অসমাপ্ততা আমাকে আরও আমার পুরাতন অভ্যেস কে জাগিয়ে তুলবে আশা করি।  পুরাতন আবার নতুন ভাবে,নতুন উপলক্ষ্য নিয়ে ফিরে আসে। নতুন আর পুরাতনের মেলবন্ধন হয়। নতুন করে হিসাব নিকেশ হয়। প্রাপ্তি আর অপ্রাপ্তির। 

যাত্রা ফুরোয় আবার নতুন যাত্রার আশায়। সময় ক্রমাগত আমাদেরকে সামনের দিকে ঠেলে দেয়। অতীত কে মনে রাখার,মনে করার ফুসরত দিতে চায় না। ব্যস্ততা আমাদের যাবতীয় অনুভূতি কে ভোতা করে দেয়। আমরা এগিয়ে চলি আমাদেরকেই পিছনে অতিক্রম করার প্রত্যয় নিয়ে।  পথিকের যাত্রা শেয হয়, বইয়ের ভাষা একসময় চোখের সামনে ভাসা ভাসা লাগে। বই আমাদেরকে অতীত,বর্তমান আর ভবিষ্যতের দিকে এগিয়ে নিয়ে যায়। 

সুনামগঞ্জ যাত্রা শুভ হয় ভালো পাঠকের কল্যানে।  "তোমরা যখন হন্যে হচ্ছ মানুষ হওয়ার জন্য  আমি না হয় পাখিই হব, পাখির মত বন্য "। 

ভাল পাঠক আরও অনান্য পাঠককে অনুপ্রাণিত করুক। মনের মাঝে কিশোর পাঠকের ছবি জাগরুক থাকুক এই প্রত্যয় রইলো।  ১৮.০৯.২০২০ ইং।

All News Report

Add Rating:

0

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

নারী কেলেঙ্কারি ঘটনায় বিতর্কিত সাংসদ নাজিম উদ্দিন আহমেদ

নারী কেলেঙ্কারি ঘটনায় বিতর্কিত সাংসদ নাজিম উদ্দিন আহমেদ

আন্তর্জাতিক শান্তি পদক পেলেন শাপলা দেবী ত্রিপুরা

আন্তর্জাতিক শান্তি পদক পেলেন শাপলা দেবী ত্রিপুরা

প্রথমবারের মতো ' গুচ্ছ পদ্ধতিতে ' যাচ্ছে হাবিপ্রবি: উপাচার্য

প্রথমবারের মতো ' গুচ্ছ পদ্ধতিতে ' যাচ্ছে হাবিপ্রবি: উপাচার্য

নতুন ভিসা প্রাপ্ত অভিবাসী শ্রমিকদের সৌদি আরব জেতে নতুন করে বিপত্তি

নতুন ভিসা প্রাপ্ত অভিবাসী শ্রমিকদের সৌদি আরব জেতে নতুন করে বিপত্তি

ভিপি নূরের উথ্যান বিএনপির ঘুম হারাম করে দিচ্ছে

ভিপি নূরের উথ্যান বিএনপির ঘুম হারাম করে দিচ্ছে

জয়পুরহাটে চার শিশু শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষক গ্রেপ্তার

জয়পুরহাটে চার শিশু শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষক গ্রেপ্তার

অক্টোবরের মাঝেই ‘পিতা-মাতার ভরণপোষণ বিধিমালা’ চূড়ান্তের নির্দেশনা

অক্টোবরের মাঝেই ‘পিতা-মাতার ভরণপোষণ বিধিমালা’ চূড়ান্তের নির্দেশনা

জামালপুর মেলান্দহে ছয়দিন পর অটোরিকশা চালকের লাশ উদ্ধার

জামালপুর মেলান্দহে ছয়দিন পর অটোরিকশা চালকের লাশ উদ্ধার

দশ লক্ষ টাকা পুরস্কার কুখ্যাত আকবর ভুঁইয়া ধরিয়ে দিলে!

দশ লক্ষ টাকা পুরস্কার কুখ্যাত আকবর ভুঁইয়া ধরিয়ে দিলে!

জয়পুরহাটে ২২ জন মাদকসেবী ও ৭ জুয়াড়িকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব

জয়পুরহাটে ২২ জন মাদকসেবী ও ৭ জুয়াড়িকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব

তাড়াইল মডেল উপজেলা হিসেবে রুপান্তিত

তাড়াইল মডেল উপজেলা হিসেবে রুপান্তিত

আমতলীতে কোচিং সেন্টারের পরীক্ষা বন্ধ! পালিয়ে গেলেন শিক্ষক

আমতলীতে কোচিং সেন্টারের পরীক্ষা বন্ধ! পালিয়ে গেলেন শিক্ষক

২১ বছরেও আলোর মুখ দেখেনি হাবিপ্রবির অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন

২১ বছরেও আলোর মুখ দেখেনি হাবিপ্রবির অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন

কুষ্টিয়ায় ৫ বছরের এক শিশুর লাশ পরিত্যাক্ত বাথরুম থেকে উদ্ধার

কুষ্টিয়ায় ৫ বছরের এক শিশুর লাশ পরিত্যাক্ত বাথরুম থেকে উদ্ধার

ঘুমের ওষুধ খাইয়ে বিয়ের ৩ দিনের মাথায় স্বামীকে কোপালেন নববধূ!

ঘুমের ওষুধ খাইয়ে বিয়ের ৩ দিনের মাথায় স্বামীকে কোপালেন নববধূ!

সর্বশেষ

রাজশাহীতে পায়ের রগ কেটে গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা

রাজশাহীতে পায়ের রগ কেটে গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা

হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের উপ-নির্বাচনে আব্দুল্লাহ সরদার বিজয়ী

হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের উপ-নির্বাচনে আব্দুল্লাহ সরদার বিজয়ী

শায়েস্তাগঞ্জে শত ফলজ গাছ কেটে দিলেন রেলওয়ে কর্মকর্তা

শায়েস্তাগঞ্জে শত ফলজ গাছ কেটে দিলেন রেলওয়ে কর্মকর্তা

নৌযান শ্রমিকদের ডাকা ধর্মঘটে স্থবির হয়ে পড়েছে মোংলা বন্দর

নৌযান শ্রমিকদের ডাকা ধর্মঘটে স্থবির হয়ে পড়েছে মোংলা বন্দর

কিশোর বয়সেই প্রতিমা তৈরি করে সাঁড়া ফেলেছেন ঝালকাঠির বিধান কুমার

কিশোর বয়সেই প্রতিমা তৈরি করে সাঁড়া ফেলেছেন ঝালকাঠির বিধান কুমার

ধুনটে নৌকা প্রতীকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন হারেজ

ধুনটে নৌকা প্রতীকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন হারেজ

কলারোয়ায় সাফল্য অর্জনকারী ৫জয়িতার ইতিকথা

কলারোয়ায় সাফল্য অর্জনকারী ৫জয়িতার ইতিকথা

কলারোয়ার কেরালকাতা ইউনিয়ন নির্বাচনে আওয়ামীলীগ প্রার্থী বিজয়ী

কলারোয়ার কেরালকাতা ইউনিয়ন নির্বাচনে আওয়ামীলীগ প্রার্থী বিজয়ী

আওয়ামীলীগের অধীনে কখনোই সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন সম্ভব নয়’-মির্জা ফখরুল

আওয়ামীলীগের অধীনে কখনোই সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন সম্ভব নয়’-মির্জা ফখরুল

টাঙ্গাইলে কলেজ ছাত্রীকে দলবেধে রাতভর ধর্ষণ

টাঙ্গাইলে কলেজ ছাত্রীকে দলবেধে রাতভর ধর্ষণ

বালিয়াডাঙ্গীতে জাতীয় স্যানিটেশন মাস ও বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস পালিত

বালিয়াডাঙ্গীতে জাতীয় স্যানিটেশন মাস ও বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস পালিত

তালতলীতে উপনির্বাচনের বেসরকারি ফল প্রকাশ, আওয়ামীলীগ প্রার্থী জয়ী

তালতলীতে উপনির্বাচনের বেসরকারি ফল প্রকাশ, আওয়ামীলীগ প্রার্থী জয়ী

বিয়ের জন্য ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করল ছাত্রলীগ নেতা

বিয়ের জন্য ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করল ছাত্রলীগ নেতা

রায়হান হত্যায় জড়িত কেউ ছাড় পাবেনা: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

রায়হান হত্যায় জড়িত কেউ ছাড় পাবেনা: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইনে নয়, সশরীরে হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা

অনলাইনে নয়, সশরীরে হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা