Feedback

অপরাধ

চার বছর আগে ঘটে যাওয়া অপারেশন থান্ডারবোল্ট কেমন ছিলো!

চার বছর আগে ঘটে যাওয়া অপারেশন থান্ডারবোল্ট কেমন ছিলো!
September 17
05:44pm
2020
Hasnat Asif Kushal
Ramna, Dhaka:
Eye News BD App PlayStore

তখন রমাদ্বান মাস। দিন শুক্রবার। মাস হিসেবে সর্বোত্তম এবং দিন হিসেবেও সর্বোত্তম। তার ওপর বা’দাল জুমু’আ’র দিন। ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের কাছে এর মাহাত্ম্য প্রবল। রাত তখন নয়টা। মসজিদগুলোতে তখনও চলছে তারাবিহের সালাত। এর মধ্যেই রাজধানীর গুলশানের হলি আর্টিসান রেস্তোরাঁয় শুরু হয় স্মরণকালের বিভৎস হত্যাকাণ্ড। মেকি ধর্মের ওপর বিশ্বাস নিয়ে এবং গোষ্ঠীগত প্রপাগান্ডায় সাড়া দিয়ে একদল নির্বোধ তরুণ ওখানটায় হাজির হয়। এর আগে বেশ কয়েকটি টার্গেট কিলিংয়ের ঘটনা ঘটে যাওয়ার ফলে দেশের মানুষও ছিলো বিব্রত। এ ছাড়া গুলশানে ইতালির নাগরিক সিজার তাভেলা হত্যাকাণ্ড এবং রংপুরে জাপানি নাগরিক কুনিও হুসি হত্যাকাণ্ড বাংলাদেশিদের রাজনৈতিকভাবে অস্বস্তিতে ফেলে দেয়। আর এসব হত্যাকাণ্ডের পর দায় স্বীকার করে এসেছে আন্তর্জাতিক জঙ্গিসংগঠন ইসলামিক স্টেটস (আইএস)।     হলি আর্টিসান রেস্তোরাঁটি ২০১৪ সালের জুন মাসে চালু করা হয়। তখন কেবল বেকারি হিসেবেই শুরু হয়েছিলো। পরে এ বেকারিটিকে রেস্তোরাঁয় রূপান্তর করা হয়। (পৃষ্ঠা : ১৮, নুরুজ্জামান লাবু, হোলি আর্টিজান : একটি জার্নালিস্টিক অনুসন্ধান)     সন্ধ্যার পর এ রেস্তোরাঁটিকে ঘিরে বিদেশি নাগরিকদের জম্পেশ আড্ডা শুরু হয়। খ্রিস্টীয় ২০১৬ সালের ১ জুলাইয়েও তেমন ব্যতিক্রম ছিলো না। সকলেই রীতিমতো আড্ডা শুরু করেছেন। এর মধ্যেই রেস্তোরাঁর প্রবেশ পথ দিয়ে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস-এর কালো পোশাকধারী ৫ জন বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া ছেলে প্রবেশ করে। তারপর উপস্থিত অতিথি ও খদ্দেরদের সামনে অস্ত্র উঁচিয়ে ধরে তারা। মুহূর্তের মধ্যেই গোটা পরিবেশ ত্রাসে ভরে গেল।     

রাত সাড়ে ৯ টার সময় দু’জন কনস্টেবল ও দু’জন আনসার সদস্য নিয়ে এসআই ফারুক হোলি আর্টিসানের সামনে পৌঁছান। এ সময় তিনি ৪-৫ জন ছেলেকে সশস্ত্র অবস্থায় দেখতে পান। বিশেষ করে তার বয়ানে উঠে আসে লম্বা মতো একটি ছেলে যার নাম পরবর্তীতে জানা যায় নিবরাস ইসলাম গ্রেনেড ছোঁড়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলো বলে তিনি দেখেছেন। (পৃষ্ঠা : ২৭, নুরুজ্জামান লাবু, হোলি আর্টিজান : একটি জার্নালিস্টিক অনুসন্ধান)     

রাত সাড়ে দশটার দিকে হোলি আর্টিজানকে চারদিক থেকে ঘিরে ফেলে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। সারিবদ্ধ হয়ে আছে পুলিশের অসংখ্য গাড়ি। গুলশান এলাকার চারদিকে যান চলাচল বন্ধ রাখা হয়। যারা ওই এলাকা ছেড়ে যাচ্ছেন তাদের সবাইকে তল্লাশি করা হচ্ছিলো। সকলের ভেতর এক প্রকার আতঙ্ক বিরাজ করছে। যারা ওই রেস্তোরাঁয় জিম্মি হয়ে পড়েছে, তাদের স্বজনরা ৭৯ নম্বর সড়কে জড়ো হতে শুরু করেছেন। এমন সময় ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিঞা ঘটনাস্থলে পৌঁছেন। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তারা হোলি আর্টিজানের মূল ফটকের বাম দিকের ভবনের নিচে অবস্থান গ্রহণ করেন। ওদিকে গুলশান এলাকার ডিসি হ্যান্ড মাইক দিয়ে ভেতরে অতিথি ও বিদেশি নাগরিকদের জিম্মি করে রাখা জঙ্গিদের আত্মসমর্পনের নির্দেশ দিতে থাকেন। কিন্তু তাতে জঙ্গিরা সাড়া না দেয়ায় পুলিশের সঙ্গে র‌্যাবও যুক্ত হয়। (পৃষ্ঠা : ৩৫, নুরুজ্জামান লাবু, হোলি আর্টিজান : একটি জার্নালিস্টিক অনুসন্ধান)     

এক পর্যায়ে হোলি আর্টিসানের ভেতরে গুলির শব্দ থেমে যায়। পাশের ভবনের গ্যারেজে যেসব পুলিশ কর্মকর্তা অবস্থান করছিলেন তারাও পরিস্থিতির ভয়াবহতায় হতভম্ব হয়ে পড়েছেন। তাদের মধ্যে চলতে থাকা অনানুষ্ঠানিক আলোচনায় গ্যাস গান বা সাউন্ড গ্রেনেড চার্জ, ক্লোরোফার্ম গ্যাস ছড়িয়ে দেয়াসহ আরও বিচ্ছিন্ন আইডিয়া আসতে থাকলেও পরবর্তীতে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয় হোলি আর্টিসানের তিনটি দরজায় আলাদাভাবে একযোগে অভিযান চালানো হবে। সেই সিদ্ধান্ত মোতাবেক কমিশনার নিজে একটি দল এবং গুলশান এলাকার ডিসি নিজে আরেকটি দল নিয়ে এগিয়ে যাবেন। মূল ফটকের ভেতরে প্রবেশ করেই ভাগ হয়ে পড়বেন তারা। যেন আক্রমণকারী জঙ্গিরা কোনোভাবেই পলায়নের সুযোগ না পায়।     

হ্যান্ড মাইকে তখনও জঙ্গিদেরকে আত্মসমর্পনের জন্য বলা হচ্ছে। আর এ দুটি দল হোলি আর্টিসান ও লেকভিউ ক্লিনিকের মূল কমপ্লেক্সের দরজার ভেতরে প্রবেশ করেছেন সবে। তাদের সঙ্গে ছিলো শ’খানেকের বেশি আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য। তাদের পক্ষ থেকেও জঙ্গিদের বলা হচ্ছিলো, ‘আত্মসমর্পন না করলে অভিযান চালানো হবে।’ কিন্তু জঙ্গিরা আকস্মিক গুলি নিক্ষেপের মধ্য দিয়ে পাল্টা হামলা করতে থাকে। পুলিশ সদস্যদের ওপর গ্রেনেডও নিক্ষেপ করা হয়।     রাত ১১ টার দিকে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কৌশল হিসেবে পিছু হঠে এবং সতর্কতার সঙ্গে রেস্তোরাঁটি ঘিরে রাখে। লেকেও আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে মোতায়েন করে রাখা হয়েছে। আর সামনের সড়কে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। ডিএমপির কমিশনার, র‌্যাব এর ডিজিসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আলোচনা করছেন। উপস্থিত সাংবাদিকরা সরাসরি সম্প্রচারে খবর সরবরাহ করছিলেন। র‌্যাব মহাপরিচালক বেনজির আহমেদ এ সময় তাদেরকে জানিয়ে দিলেন, প্রধানমন্ত্রীর সদর দপ্তর থেকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে, সাংবাদিকদের সরাসরি সম্প্রচার না করার জন্য। ১১ টা বিশ মিনিটে তিনি সাংবাদিকদের সামনে খোলাসা করে এ বিষয়টি জানিয়ে দেন।     

ঘটনাস্থলে উপস্থিত পুলিশের সকল বড় কর্মকর্তা। সোয়াটের টিমও অভিযানের প্রস্তুতি নিচ্ছে। কিন্তু কৌশলগত কারণে তারা অপারেশনে যাচ্ছেন না। আসলে এমন একটি পরিস্থিতিতে সকলেই হতভম্ব হয়ে পড়েছিলেন। সোয়াটের মধ্যম সারির এক কর্মকর্তা এ তথ্য জানিয়েছিলেন। সারা দেশের মানুষ উদ্বিগ্ন। কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান ও ডিএমপি’র অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল ইসলামের নেতৃত্বে এডিসি সানোয়ার অভিযানের পুরো পরিকল্পনা করছিলেন। ইতঃপূর্বে হোলি আর্টিসানের মালিক সাদাত মেহেদি ও অন্য স্টাফদের সঙ্গে কথা বলে তারা অভিযানের নকশাও করে নিয়েছেন। এ সময়ই চলতে থাকে অপারেশন কিভাবে হতে পারে তা নিয়ে আলোচনা।     

এর মধ্যেই রেস্তোরাঁর ভেতর জঙ্গিরা ২০ জন দেশিবিদেশি নাগরিককে হত্যা করে ফেলেছে। পুলিশের অভিযানের ভেতরেই খবর আসে, পুলিশের দু’জন কর্মকর্তা বনানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাহউদ্দিন আহমেদ খান এবং গোয়েন্দা পুলিশের ডিবি বিভাগের সহকারী কমিশনার রবিউল ইসলাম অভিযানে জঙ্গিদের নিক্ষেপ করা বোমার আঘাতে নিহত হন। গুলশান এলাকায় তখন অশান্ত পরিবেশ সৃষ্টি হয়। পরিস্থিতি হয়ে ওঠে থমথমে। এ সময় জঙ্গিদের সঙ্গে সমঝোতার জন্য কথা বলার চেষ্টা করা হয় একাধিকবার। কোনো লাভ হয় নি। জিম্মিদের মোবাইলে ফোন করেও যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়। তাতেও জঙ্গিরা সাড়া দেয় নি। ফলে সেদিকে উপস্থিত পুলিশ কর্মকর্তারা অভিযানের প্রস্তুতি নিতে শুরু করেন। অন্যদিকে হোলি আর্টিসানের মূল ফটকে উপস্থিত পুলিশ কর্মকর্তারা পরিস্থিতি ঠাওর করতে চাইছিলেন। বারবার দো-তলা, তিন তলায় উঠে দেখার চেষ্টা করছিলেন কি হতে যাচ্ছে।     

মধ্যরাতে হঠাৎ খবর পাওয়া যায়, ইসলামিক স্টেটস (আইএস) এ হামলার দায় স্বীকার করেছে। রাত একটা ২৪ মিনিটে তাদের নিজস্ব বার্তাসংস্থা আমাক থেকে এ দায় স্বীকার করে তারা। এ সময় তারা হামলাকারী ৫ জঙ্গির সশস্ত্র ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ অন্তর্জালে ছড়িয়ে দেয়। আমাকের সূত্র দিয়ে জঙ্গি কার্যক্রম পর্যবেক্ষণকারী যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংগঠন সাইট ইনটেলিজেন্স গ্রুপ এক টুইটে জানায়, ‘আইএস যোদ্ধারা ঢাকার রেস্তোরাঁয় হামলা করেছে।’ ১৫ মিনিট পর আরেকটি টুইটে হোলি আর্টিসানে ২০ জন নিহত হওয়ার খবর জানানো হয়। পরে ভোর চারটার দিকে হোলি আর্টিসানের ভেতরে চালানো হামলার ছবিও তারা প্রকাশ করে।     

পুলিশ ও র‌্যাব যখন জঙ্গিদের সঙ্গে পেরে উঠছে না, তখন খবর এলো সেনাবাহিনী অভিযান পরিচালনা করবে। বাইরে মুষ্টিমেয় সাংবাদিক, পুলিশ কর্মকর্তা, র‌্যাব কর্মকর্তা, সেনা কর্মকর্তা এবং জিম্মি হয়ে পড়া লোকদের স্বজন অপেক্ষায়। রুদ্ধশ্বাস এই অপেক্ষার অবসান হয় প্রায় ১২ ঘণ্টা পর এক অপারেশনের মাধ্যমে। এ অপারেশনের নাম দেয়া হয় অপারেশন থান্ডারবোল্ট। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার পর সিলেটের জালালাবাদ ক্যান্টনমেন্ট থেকে দ্রুত ঢাকায় আসতে বলা হয় প্যারা কমান্ডোবাহিনীকে। সি-১৩০ দলের সদস্যরা ঢাকায় পৌঁছার পর সাভার ক্যান্টনমেন্টের আরেকটি দল যোগ দেয় তাদের সঙ্গে। সরাসরি নেতৃত্ব দেন লেফটেন্যান্ট কর্নেল ইমরুল হাসান। তদারকি করতে থাকেন উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। সকাল ৭ টা ২০ মিনিটের সময় সেনাবাহিনীর একাধিক জিপগাড়ি এসে চৌরাস্তায় নামলো। জিপ থেকে অ্যাসল্ট রাইফেল নিয়ে নেমে আসছে কমান্ডোরা। তাদের মধ্যে বেশ ক্ষীপ্রতা দেখা যাচ্ছে। এর মধ্যেই তারা একত্রিত হয়ে কমান্ডারের শর্ট ব্রিফিং শেষে দুই ভাগ হয়ে ফুটপাতে ক্রলিং করতে শুরু করলেন। ধীরে ধীরে হোলি আর্টিসান রেস্তোরাঁর দিকে এগোতে থাকেন তারা।     

সকাল ৭ টা ৩৫ মিনিটে কয়েকজন জিম্মি ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে বের হয়ে এলেন। কমান্ডোরা পজিশন নিতে শুরু করেছেন। সকাল ৭ টা ৪০ মিনিটে জঙ্গিদের সঙ্গে সেনাবাহিনীর খণ্ডযুদ্ধ শুরু হলো। টানা কিছুক্ষণ গুলি বিনিময় চললো। মাঝেমধ্যে গ্রেনেডের বিকট শব্দ শোনা যাচ্ছে। সকাল ৮ টা ২০ মিনিটে গুলির শব্দ থেমে গেছে। অপারেশন থান্ডারবোল্টও শেষ হয়ে যায়।     

তথ্যসূত্র :     ১. নুরুজ্জামান লাবু, হোলি আর্টিসান : একটি জার্নালিস্টিক অনুসন্ধান 

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

বরগুনার রিফাত হত্যাঃ স্ত্রী মিন্নিসহ ৬ জনের মৃত্যুদণ্ড

বরগুনার রিফাত হত্যাঃ স্ত্রী মিন্নিসহ ৬ জনের মৃত্যুদণ্ড

সীমান্তে নিখোঁজ হওয়ার ১১ দিন পর মৃতদেহ উদ্ধার

সীমান্তে নিখোঁজ হওয়ার ১১ দিন পর মৃতদেহ উদ্ধার

যাদের ভিসার মেয়াদ শেষ তাদের বিষয়ে কিছু করার নেই: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

যাদের ভিসার মেয়াদ শেষ তাদের বিষয়ে কিছু করার নেই: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

মাধ্যমিকে ফেল করা মাহাবুব এখন সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র

মাধ্যমিকে ফেল করা মাহাবুব এখন সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র

মিন্নিসহ সব আসামীদের সাজা চাইলেন রিফাতের বোন

মিন্নিসহ সব আসামীদের সাজা চাইলেন রিফাতের বোন

রিফাত হত্যার মাস্টারমাইন্ড মিন্নি: রাষ্ট্রপক্ষ

রিফাত হত্যার মাস্টারমাইন্ড মিন্নি: রাষ্ট্রপক্ষ

ইউএনও ওয়াহিদা খানম হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাচ্ছেন

ইউএনও ওয়াহিদা খানম হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাচ্ছেন

মাজহারের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন শাওন

মাজহারের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন শাওন

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি বৃদ্ধি নিয়ে যা বললেন মন্ত্রী

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি বৃদ্ধি নিয়ে যা বললেন মন্ত্রী

৩০ দিনের মধ্যে জাহালমকে ১৫ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেবে ব্র্যাক ব্যাংক

৩০ দিনের মধ্যে জাহালমকে ১৫ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেবে ব্র্যাক ব্যাংক

মিনিকেট চালের দাম নির্ধারণ করে দিয়েছে খাদ্য মন্ত্রণালয়

মিনিকেট চালের দাম নির্ধারণ করে দিয়েছে খাদ্য মন্ত্রণালয়

বিএনপির সাবেক সভাপতি লৎফর রহমান মিন্টুর ইন্তিকাল

বিএনপির সাবেক সভাপতি লৎফর রহমান মিন্টুর ইন্তিকাল

খাদ্যনালী কেটে ফেললেন নার্স, সংকটাপন্ন রুগি

খাদ্যনালী কেটে ফেললেন নার্স, সংকটাপন্ন রুগি

স্পর্শকাতর স্থানে হাত ডান্স গুরুর, যা বললেন নোরা

স্পর্শকাতর স্থানে হাত ডান্স গুরুর, যা বললেন নোরা

রাজশাহীতে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় বরখাস্ত ফাদার গ্রেপ্তার

রাজশাহীতে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় বরখাস্ত ফাদার গ্রেপ্তার

সর্বশেষ

গল্প

গল্প

ভারতের স্থলবন্দর খুলে দেয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ভারতের স্থলবন্দর খুলে দেয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

স্টপেজ

স্টপেজ

দেশের মানুষ ধর্ষণ, দূর্নীতি ও টাকা পাচারের ভোগান্তির স্বীকার হচ্ছেঃ ভিপি নুর

দেশের মানুষ ধর্ষণ, দূর্নীতি ও টাকা পাচারের ভোগান্তির স্বীকার হচ্ছেঃ ভিপি নুর

মাদ্রাসায় কর্মচারী নিয়োগ: ৬পদে ৪জন চেয়ারম্যান পরিবারের লোক!

মাদ্রাসায় কর্মচারী নিয়োগ: ৬পদে ৪জন চেয়ারম্যান পরিবারের লোক!

ফুসফুস ভালো রেখে জীবনযাপন করার জন্য এই ৭টি খাবার খাওয়া উচিৎ

ফুসফুস ভালো রেখে জীবনযাপন করার জন্য এই ৭টি খাবার খাওয়া উচিৎ

সজিনা পাতার গুণাগুণ

সজিনা পাতার গুণাগুণ

ডিমলায় ঢাকা সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সমন্বয় বৃক্ষ ও টিউবওয়েল বিতরণ

ডিমলায় ঢাকা সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সমন্বয় বৃক্ষ ও টিউবওয়েল বিতরণ

ঠাকুরগাঁওয়ে নিজের বলার মতো গল্প ফাউন্ডেশনের হাজার তম দিন উদযাপন

ঠাকুরগাঁওয়ে নিজের বলার মতো গল্প ফাউন্ডেশনের হাজার তম দিন উদযাপন

হবিগঞ্জের জি কে গউছের নাকে অস্ত্রোপাচার

হবিগঞ্জের জি কে গউছের নাকে অস্ত্রোপাচার

পদ্মায় নৌকাডুবি থামবে কবে?

পদ্মায় নৌকাডুবি থামবে কবে?

আজমিরীগঞ্জে ভেঙ্গে যাওয়া রাস্তা মেরামতের উদ্যোগ নিলো উপজেলা প্রশাসন

আজমিরীগঞ্জে ভেঙ্গে যাওয়া রাস্তা মেরামতের উদ্যোগ নিলো উপজেলা প্রশাসন

দুর্নীতি ও দুঃশাসন ছাড়া এই সরকারের বড় অর্জন কিছুই নেই : ডা: শাহাদাত

দুর্নীতি ও দুঃশাসন ছাড়া এই সরকারের বড় অর্জন কিছুই নেই : ডা: শাহাদাত

কুমিল্লার নগর উদ্যান থেকে গরীব শিশুরা বঞ্চিত, রাইডে চরলে গুনতে হবে টাকা

কুমিল্লার নগর উদ্যান থেকে গরীব শিশুরা বঞ্চিত, রাইডে চরলে গুনতে হবে টাকা

সাভারে আবারও এক নারী শ্রমিক গণধর্ষণের শিকার

সাভারে আবারও এক নারী শ্রমিক গণধর্ষণের শিকার