Feedback

জেলার খবর, সাতক্ষীরা

কালিগঞ্জের ফতেপুর চাকদহার ঘটনার আট বছর পার

কালিগঞ্জের ফতেপুর চাকদহার ঘটনার আট বছর পার
September 14
10:32pm
2020
আব্দুর রহমান
সাতক্ষীরা সদর, সাতক্ষীরা:
Eye News BD App PlayStore

মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে মঞ্চস্থ নাটকে মহানবীকে নিয়ে অশোভন উক্তি করা এবং তা পত্রিকায় প্রকাশের পর কালিগঞ্জের ফতেপুর ও চাকদহা গ্রামে সংঘটিত ঘটনাবলীর পর আট  বছর পার হয়েছে গত মার্চে। সে সময় পরিস্থিতি সামাল দিতে তৎকালিন জেলা প্রশাসক (বর্তমানে খুলনা বিভাগীয় কমিশনার) দৈনিক দৃষ্টিপাত এর প্রকাশনা নিষিদ্ধ করেন। সে সময়কার ঘটনায় সাম্প্রদায়িক উসকানি দাতা দৈনিক দৃষ্টিপাতের মুর্খ সম্পাদক জিএম নুর ইসলাম ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা এখন বুক ফুলিয়ে বেড়াচ্ছেন। এতোদিনেও  কালিগঞ্জের  ফতেপুর চাকদহা ঘটনাবলীর কোনো বিচার হয়নি। নানা কারণে এই মামলা একরকম চাপা পড়ে আছে। আর এই সুযোগ নিয়েছেন  সংশ্লিষ্ট সুবিধাভোগীরা। স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ২০১২ সালের ২৭ মার্চ সাতক্ষীরার কালীগঞ্জের ফতেপুর  মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাঠে আবুল মনসুর আহমেদের ‘হুজুরে কেবালা’ গল্প অবলম্বনে নাটক মঞ্চস্থ হয়।


এতে  মহানবীকে উদ্দেশ্য করে কটুক্তি করা হয়েছে উল্লেখ করে ২৯ মার্চ দৈনিক দৃষ্টিপাতে খবর প্রকাশিত হয়। এই খবর প্রকাশের পর  বিএনপি নেতা নুরুজ্জামান পাড় সহকারি শিক্ষিকা মিতা রানী বালাকে ৩০ মার্চ বিনা কারণে বাড়ি থেকে মোটর সাইকেলে তুলে এনে পুলিশে সোপর্দ করেন। তাকে পাঠানো হয় জেল হাজতে। পরদিন কৃষ্ণনগর ইউপি চেয়ারম্যান জাপা নেতা প্রয়াত মোশাররফ হোসেন, সাবেক চেয়ারম্যান আনছার আলী, জামায়াত নেতা আব্দুল কাদের হেলালী ও জুলফিকার সাঁফুই এর নেতৃত্বে আসা এক জঙ্গি  মিছিলে উগ্রপন্থিরা মিতা রানী বালার বাড়ি ঘর লুটপাট ও ভাংচুর শেষে সকালে ও বিকেলে দু’দফায় পেট্রোল  ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। আগুনে ছড়িয়ে দেওয়া হয় গান পাউডার। মিতার  ছোট ছেলে অনির্বানকে আগুনে ছুুঁড়ে ফেলার চেষ্টা করা হয়। মামলা থেকে অব্যাহতি পেলেও মিতা ঘটনার আট বছর পরও বয়ে বেড়াচ্ছেন সেই যন্ত্রনা।


দুই সন্তান, স্বামী ও শ্বাশুড়িকে নিয়ে চলছে তার কঠিন জীবন সংগ্রাম। একইভাবে একই গ্রামের লক্ষীপদ মন্ডলের  বাড়ি ও তার  ধানের গোলা ভাঙচুর  লুটপাট শেষে আগুনে পুড়িয়ে দেওয়া হয়। উগ্রবাদীরা পুড়িয়ে দেয় ফতেপুর সাংস্কৃতিক পরিষদ। এদিকে ফতেপুরের ঘটনার জের ধরে ওই বছরের পহেলা এপ্রিল পুড়িয়ে দেওয়া হয় চাকদহ গ্রামের আটটি হিন্দু পরিবারের ঘরবাড়ি। লুটপাট করা হয় তাদের যথাসর্বস্ব। কল্যানী সরদার চোখের সামনে তার তিন ছেলের সর্বস্ব লুটপাট করার পর ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে দিতে দেখেছেন। তার পুত্রবধূর ওপর পাশবিক নির্যাতন দেখেছেন তিনি।  এখন তিনি  একজন বিকৃত মস্তিস্ক নারী। ফতেপুর ও চাকদাহের ক্ষতিগ্রস্থ  ১২টি হিন্দু পরিবারের সদস্যরা জানান পাঁচটির মধ্যে একটি মামলার বাদি বিষ্ণুপুর ইউপি সদস্য খলিলুর রহমান রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার চার্জশীটভুক্ত আসামি দৃষ্টিপাত পত্রিকা কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা নিয়ে অভিযোগপত্র দায়েরের আড়াই বছর পর আদালতে নারাজি দিয়েছেন।


স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমতি নিয়ে অভিযোগপত্র দাখিল করা হলেও ওই তথ্য গোপন করে  কুখ্যাত শিবির ক্যাডার মিজানুর রহমানের হাইকোর্টে স্থগিত করে রাখা মামলা খারিজ হয়ে গেলেও সুপ্রিম কোর্টে রিভিশনের নামে নামমাত্র কাগজপত্র জমা দিয়ে মামলার কার্যক্রম দীর্ঘায়িত করা হচ্ছে। আগামি দিন ধার্য রয়েছে ২১ সেপ্টেম্বর। তবে মামলার বিচার বিলম্বিত  করতে নেপথ্যে সর্বনাশা দৃষ্টিপাত কর্তৃপক্ষের হয়ে দু’জন সাংসদ, একজন সাবেক পিপি, কয়েকজন সাংবাদিকসহ কয়েকজনের হাত রয়েছে বলে জানা যায়। তারা আরো জানান যে দৃষ্টিপাত পত্রিকার কারণে চাকদাহ ও ফতেপুরের ১২টি হিন্দু পরিবারসহ ১৫টি পরিবারের বসত বাড়ি,  ঠাকুর ঘর, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠান পুড়িয়ে ছাঁই করে দেওয়া হলো তারা বহাল তবিয়তে ঘুরে বেড়াচ্ছে।সেই দৃষ্টিপাত পত্রিকা সম্পাদক জিএম নূর ইসলামের নেতৃত্বে সাতক্ষীরা  প্রেসক্লাব জবরদখল করা ও পত্রিকায় তাকে শুভেচ্ছা দেওয়া ঘৃণ্য ছবি ছেপে তিনি ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা বাহবা নিয়েছেন।


আর যারা সর্বস্ব হারিয়েছেন তাদের জীবন চলছে দুর্বিসহ অবস্থার মধ্য দিয়ে। শিক্ষক, ছাত্র ও গল্প থেকে নাটকে রুপান্তরকারী মীর শাহীন মামলায় খালাস হয়ে গেলেও অপর চারটি মামলা চলছে মন্থর গতিতে। দৃষ্টিপাত সম্পাদক জিএম নূর ইসলাম, নির্বাহী সম্পাদক আবু তালেব মোল্লা, তৎকালিন বার্তা সম্পাদক ডিএম কামরুল ইসলাম, দক্ষিণ শ্রীপুর প্রতিনিধি শিবির ক্যাডার মিজানুর রহমান, ফতেপুরের আল আমিন তরফদার ও যুবলীগ নেতা নীলকণ্ঠপুর গ্রামের মামুনর রশীদ মিন্টু ওই মামলার অভিযোগপত্রে আসামী হওয়ার পরও তাদের অভিযোগপত্র আদালতে আজও গৃহীত হয়নি।


প্রসঙ্গত ২০১২ সালের ২৭ মার্চ ফতেপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে প্রখ্যাত নাট্যকার আবুল  মনসুর আহমেদের  ‘হুজুরে কেবালা’ গল্প অবলম্বনে মঞ্চস্থ  হয় নাটক। নাটকের দ্বিতীয় পর্বে  ব্যবহৃত ভাষা নিয়ে প্রশ্ন তুলে শ্রোতা দর্শকরা মহানবীকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করা হয়েছে বলে আপত্তি তুললে  নাটকটি বন্ধ হয়ে যায়। এ সংক্রান্ত একটি খবর  দৃষ্টিপাতের দক্ষিণ শ্রীপুর প্রতিনিধি শিবির ক্যাডার ফতেপুরের  মিজানুর রহমান ২৯ মার্চের পত্রিকায় প্রকাশ করে। এর ফলে সারা জেলাব্যাপী প্রতিবাদ মিছিল শুরু হয়। তপ্ত হয়ে ওঠে সাতক্ষীরার জনপদ। দৈনিক দৃষ্টিপাতের  বিরুদ্ধে মানুষ রুখে দাঁড়ায়। তারা দৈনেক দৃষ্টিপাত ও এর সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে মহানবীকে নিয়ে আপত্তিকর কথা লেখা এবং সাম্প্রদায়িক উসকানি দেওয়ার গুরুতর অভিযোগ আনেন। এর পরই ১০ এপ্রিল জেলা প্রশাসক ড. আনোয়ার হোসেন হাওলাদার দৈনিক দৃষ্টিপাতের প্রকাশনা নিষিদ্ধ করেন।


ফতেপুর ও চাকদাহে সহিংসতার সকল ঘটনায়  ২০১২ সালের ৫ এপ্রিল দায়েরকৃত চারটি মামলায় ৯৪ জনের নামসহ অজ্ঞাতনামা দু’ হাজার ২০০ লোককে আসামী শ্রেণীভুক্ত করা হয়। কর্তব্যে অবহেলার দায়ে কালীগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক লস্কর জায়েদুল হককে বাগেরহাটে স্ট্যান্ড  রিলিজ করা হয়। ৮ এপ্রিল তৎকালিন পুলিশ সুপার হাবিবুর রহমান খান ও কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দ ফরিদউদ্দিনকে প্রত্যাহার করা হয়। ১২ এপ্রিল শিবির ক্যাডার দৃষ্টিপাত পত্রিকার সাংবাদিক মিজানুর রহমানকে গাজীপুর সদরের একটি ব্যাচেলার ছাত্রাবাস থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। ২৫ এপ্রিল তৎকালিন পুলিশ সুপার হাবিবুর রহমান খান ও কালীগঞ্জ থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দ ফরিদউদ্দিনকে হাইকোর্টের কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে ভৎর্সনা করা হয়। হাইকোর্টের নির্দেশে একজন যুগ্ম সচিবের নেতৃত্বে  সাতক্ষীরা সার্কিট হাউসে তদন্ত হয়। তবে ওই রিপোর্ট আজও আলোর মুখ দেখেনি।

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

নিখোঁজের ২০ ঘন্টা পর  আমতলীতে যুবকের মরদেহ উদ্ধার

নিখোঁজের ২০ ঘন্টা পর আমতলীতে যুবকের মরদেহ উদ্ধার

মানুষ মত দেখতে অদ্ভুত প্রাণীটির দেখা মিলল পৃথিবীতে!

মানুষ মত দেখতে অদ্ভুত প্রাণীটির দেখা মিলল পৃথিবীতে!

অখ্যাত স্কুলের বিখ্যাত শিক্ষকঃ একজন হামিদ স্যার

অখ্যাত স্কুলের বিখ্যাত শিক্ষকঃ একজন হামিদ স্যার

আত্মহত্যার কারণ ও তার সুস্পষ্ট সমাধান

আত্মহত্যার কারণ ও তার সুস্পষ্ট সমাধান

রাণীনগরে গৃহবধুর রহস্য জনক মৃত্যু

রাণীনগরে গৃহবধুর রহস্য জনক মৃত্যু

বগুড়ায় নেশা ও যৌন উত্তেজক ঔষধ অত:পর

বগুড়ায় নেশা ও যৌন উত্তেজক ঔষধ অত:পর

ছিনিয়ে নিয়ে স্কুলছাত্রীকে হত্যা : মিজানের বাবা-মা গ্রেফতার

ছিনিয়ে নিয়ে স্কুলছাত্রীকে হত্যা : মিজানের বাবা-মা গ্রেফতার

নবীনগরে  ছুরিকাঘাতে প্রবাসী সোহাগ নিহত

নবীনগরে ছুরিকাঘাতে প্রবাসী সোহাগ নিহত

প্রেমিককে ভিডিও কলে রেখে কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

প্রেমিককে ভিডিও কলে রেখে কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

ওমান প্রবাসীদের জন্য সুখবর, কমিয়েছে প্রবাসী শ্রমিকদের ওয়ার্ক পারমিট নবায়ন ফি

ওমান প্রবাসীদের জন্য সুখবর, কমিয়েছে প্রবাসী শ্রমিকদের ওয়ার্ক পারমিট নবায়ন ফি

নওগাঁয় ১৫০০কেজি সরকারি ভিজিডির চাল উদ্ধার

নওগাঁয় ১৫০০কেজি সরকারি ভিজিডির চাল উদ্ধার

নওগাঁর মান্দায় পরিত্যাক্ত মাথার চুল প্রক্রিয়াজাত করে ভাগ্য বদলাচ্ছেন উদ্যোগক্তারা

নওগাঁর মান্দায় পরিত্যাক্ত মাথার চুল প্রক্রিয়াজাত করে ভাগ্য বদলাচ্ছেন উদ্যোগক্তারা

৫৪,০০০ রোহিঙ্গাকে পাসপোর্ট দিতে সৌদির চাপ: কি করবে বাংলাদেশ

৫৪,০০০ রোহিঙ্গাকে পাসপোর্ট দিতে সৌদির চাপ: কি করবে বাংলাদেশ

সুশান্ত সিং মৃত্যুর পেছনে রয়েছে ভারতীয় ক্রিকেটারদের স্ত্রী

সুশান্ত সিং মৃত্যুর পেছনে রয়েছে ভারতীয় ক্রিকেটারদের স্ত্রী

নবীনগরে পৃথক আদেশে ইউএনও-ওসি বদলী

নবীনগরে পৃথক আদেশে ইউএনও-ওসি বদলী

সর্বশেষ

রাজধানী কাওলায় আত্মহত্যা করলো কলেজ ছাত্রী

রাজধানী কাওলায় আত্মহত্যা করলো কলেজ ছাত্রী

কবরস্থানে দশ বছর ধরে বসবাস অবশেষে ঘর পেলো আনোয়ার

কবরস্থানে দশ বছর ধরে বসবাস অবশেষে ঘর পেলো আনোয়ার

এই তানজিন তিশা সেই তিশা নয়

এই তানজিন তিশা সেই তিশা নয়

পুলিশের মেয়েকে ফাঁদে ফেলতে গিয়ে নিজেই ধরা পড়লো

পুলিশের মেয়েকে ফাঁদে ফেলতে গিয়ে নিজেই ধরা পড়লো

চট্টগ্রামে করোনা শনাক্ত সাড়ে ১৮ হাজার ছাড়িয়েছে

চট্টগ্রামে করোনা শনাক্ত সাড়ে ১৮ হাজার ছাড়িয়েছে

স্তন্যপায়ী আশযুক্ত বনরুই উদ্বার,কালোবাজারে দাম হতে পারে প্রায় কোটি টাকা

স্তন্যপায়ী আশযুক্ত বনরুই উদ্বার,কালোবাজারে দাম হতে পারে প্রায় কোটি টাকা

সেক্রেটারীকে নিয়ে উদ্দেশ্য প্রণোদিত সংবাদের প্রতিবাদ

সেক্রেটারীকে নিয়ে উদ্দেশ্য প্রণোদিত সংবাদের প্রতিবাদ

স্কুলের ওয়াশ রুমে গোপন ক্যামেরা ফাঁস

স্কুলের ওয়াশ রুমে গোপন ক্যামেরা ফাঁস

গৃহহীন থাকবে না কেউ : তথ্য প্রতিমন্ত্রী

গৃহহীন থাকবে না কেউ : তথ্য প্রতিমন্ত্রী

মোনায়েম খাঁন ছিলেন সৎ সাংবাদিকতার উজ্জল দৃষ্টান্ত

মোনায়েম খাঁন ছিলেন সৎ সাংবাদিকতার উজ্জল দৃষ্টান্ত

মসজিদে পনকজ দেবনাথ এর ব্যানার

মসজিদে পনকজ দেবনাথ এর ব্যানার

কবিতাঃ বউ-শাশুড়ি।।লেখকঃ মেহেদী হাসান রনি।।

কবিতাঃ বউ-শাশুড়ি।।লেখকঃ মেহেদী হাসান রনি।।

বৃষ্টির পানিতেই বন্দী নন্দীগ্রাম পৌরবাসী!

বৃষ্টির পানিতেই বন্দী নন্দীগ্রাম পৌরবাসী!

বগুড়ায় প্রতারক প্রেমিক গ্রেপ্তার, হাতিয়ে নিত টাকা ও স্বর্ণালংকার!

বগুড়ায় প্রতারক প্রেমিক গ্রেপ্তার, হাতিয়ে নিত টাকা ও স্বর্ণালংকার!

একশ দেশের গানে শেখ মিলন

একশ দেশের গানে শেখ মিলন