Feedback

আইন-আদালত, অপরাধ

টাঙ্গাইলে জোড়া খুনের মামলায় ৬ জনের মৃত্যুদণ্ড

টাঙ্গাইলে জোড়া খুনের মামলায়  ৬ জনের মৃত্যুদণ্ড
September 13
01:56pm
2020
Masud Rana
Kotwali, Dhaka, প্রতিনিধি:
Eye News BD App PlayStore

টাঙ্গাইল সদর থানাধীন রসূলপুর গ্রামের অবসর প্রাপ্ত স্কুল শিক্ষক অনিল কুমার দাস ও তার স্ত্রী কল্পনা দাস হত্যা মামলায় ৬ জনের মৃত্যুদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছেন ট্রাইব্যুনাল। 

রোববার (১৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ঢাকার দ্রুত বিচার টাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামান এ  রায় ঘোষণা করেন। 

মৃত্যুদণ্ড প্রাপ্ত আসামিরা হলেন-  স্বপন কুমার দাস, জাহিদুল ইসলাম, মো. ফরহাদ, মনিরুজ্জামান ভূঁইয়া, মঞ্জুরুল ইসলাম মিঞ্জু ও মো. শয়ান মিয়া।   ভিকটিমের লাশ গুমের অভিযোগে তাদের আরও সাত বছরের জেল এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ১ বছর কারাভোগ করতে হবে। 

রায় ঘোষনার সময় ৫ আসামিকে কারাগার থেকে আদালতে এবং শয়ান মিয়া জামিনে থেকে আদালতে হাজির হন। রায় ঘোষনার পর সাজা পরোয়ানা দিয়ে তাদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

জানা যায়, আসামি স্বপন কুমার দাস অন্যান্য আসামিদের সাথে পরস্পর যোগসাজসে পূর্বপরিকল্পিতভাবে অনিল কুমার দাস ও তার স্ত্রী কল্পনা দাসের সম্পত্তি আত্মসাৎ করার পরিকল্পনা করতে থাকে। স্বপন কুমার দাসের সাথে অন্যান্য আসামিরা অনিল কুমারের সম্পত্তি আত্মসাৎ করার জন্য তাকে দিয়ে তিনটি স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয়ার পরিকল্পনা করে। ২০১৭ সালের ২৬ জুলাই সন্ধ্যার পর আসামিরা অনিল কুমার দাসের বাড়িতে গিয়ে তাকে ও তার স্ত্রীকে করে। তাদের গলায় ১০ টি ইট বস্তায় ভর্তি করে বাড়ির বাথরুমের সেফটি ট্যাংকির মধ্যে ফেলে রাখে। পরে পুলিশ সেখান থেকে লাশ দুটি উদ্ধার করে। 

এ ঘটনায় পরদিন ভিকটিমদের ছেলে নির্মল কুমার দাস টাঙ্গাইল মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। ২০১৮ সালের ১৭ সেপ্টেম্বর মামলাটিতে আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হয়। ২০১৯ সালের ৭ আগষ্ট আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জগঠন করেন আদালত। মামলাটির বিচার চলাকালে আদালত চার্জশিটভূক্ত ৩৫ জন সাক্ষীর মধ্যে ২৭ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ করেন। 

আসামিদের মধ্যে জাহিদুল ইসলাম ও মো. ফরহাদ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।  রাষ্ট্রপক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন সংশ্লিষ্ট আদালতের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর আব্দুল্লাহ আবু ভূঁঞা। আসামিপক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট মাহফুজুর রহমান ও চাঁন মিয়া।

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

২৭ হাজার প্রবাসীর আকামা বাতিল

২৭ হাজার প্রবাসীর আকামা বাতিল

ফেসবুক লাইভে ঘোষণা দিয়ে আত্মহত্যা

ফেসবুক লাইভে ঘোষণা দিয়ে আত্মহত্যা

যুদ্ধাপরাধ মামলায় ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামির মৃত্যু

যুদ্ধাপরাধ মামলায় ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামির মৃত্যু

প্রাথমিক বিদ্যালয় নীতিমালায় পরিবর্তন আসছে

প্রাথমিক বিদ্যালয় নীতিমালায় পরিবর্তন আসছে

আল্লামা আহমেদ শফীর জানাজা সময় ও স্থান

আল্লামা আহমেদ শফীর জানাজা সময় ও স্থান

মৌলভীবাজার নির্বাচনে লড়বেন লুৎফুর রহমান সুইট

মৌলভীবাজার নির্বাচনে লড়বেন লুৎফুর রহমান সুইট

সাঘাটায় শিশূ ধর্ষণের ধর্ষক ৯ বছরের শিশু সংশোধনাগারে

সাঘাটায় শিশূ ধর্ষণের ধর্ষক ৯ বছরের শিশু সংশোধনাগারে

আল্লামা শফি ইন্তেকাল করেছেন

আল্লামা শফি ইন্তেকাল করেছেন

রাতভর সংঘর্ষে রক্তাক্ত আফগানিস্তান, নিহত অর্ধশত

রাতভর সংঘর্ষে রক্তাক্ত আফগানিস্তান, নিহত অর্ধশত

অভিনব পদ্ধতিতে বৈদ্যুতিক মিটার চুরি

অভিনব পদ্ধতিতে বৈদ্যুতিক মিটার চুরি

ইয়াবাসহ বাসযাত্রী গ্রেপ্তার

ইয়াবাসহ বাসযাত্রী গ্রেপ্তার

স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯-এ ফোন আওয়ামী লীগ নেতার

স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯-এ ফোন আওয়ামী লীগ নেতার

২ বাস ও মাইক্রোর সংঘর্ষে চারজন নিহত, আহত ২০

২ বাস ও মাইক্রোর সংঘর্ষে চারজন নিহত, আহত ২০

মহাজোটের মানববন্ধন দূর্গা পুজায় ৩ দিনের ছুটি

মহাজোটের মানববন্ধন দূর্গা পুজায় ৩ দিনের ছুটি

স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯ এ ফোন দেন পাষণ্ড স্বামী

স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯ এ ফোন দেন পাষণ্ড স্বামী

সর্বশেষ

বাজারে ভ্যাকসিন আসার আগেই অর্ধেক বুকিং শেষ

বাজারে ভ্যাকসিন আসার আগেই অর্ধেক বুকিং শেষ

বিশ্বকাপ বাছাইয়ের দল ঘোষণা ব্রাজিলের

বিশ্বকাপ বাছাইয়ের দল ঘোষণা ব্রাজিলের

আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ বাছাই দলে নেই ডি মারিয়া

আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ বাছাই দলে নেই ডি মারিয়া

মসজিদ বিস্ফোরণ- তিতাসের প্রোকৌশলী সহ ৮ জন গ্রেফতার

মসজিদ বিস্ফোরণ- তিতাসের প্রোকৌশলী সহ ৮ জন গ্রেফতার

টেনশনে আব্বার হার্ট ফেল করেছিল : আনাস মাদানী

টেনশনে আব্বার হার্ট ফেল করেছিল : আনাস মাদানী

আল্লামা আহমদ শফীর বর্ণাঢ্য জীবনী

আল্লামা আহমদ শফীর বর্ণাঢ্য জীবনী

কবিতার অনন্য জগত

কবিতার অনন্য জগত

বিয়ের আসর থেকে কনেকে অপহরণের চেষ্টা করলো ছাত্রলীগ নেতা

বিয়ের আসর থেকে কনেকে অপহরণের চেষ্টা করলো ছাত্রলীগ নেতা

মেয়েকে ধরিয়ে দিতে পত্রিকায় বাবার বিজ্ঞাপন

মেয়েকে ধরিয়ে দিতে পত্রিকায় বাবার বিজ্ঞাপন

হাঁটা শরীরের জন্য কতটা উপকারীতা জানলে আপনি অবাক হবেন

হাঁটা শরীরের জন্য কতটা উপকারীতা জানলে আপনি অবাক হবেন

হুজুরকে হারিয়ে আমরা অসহায় হয়ে পড়েছি’

হুজুরকে হারিয়ে আমরা অসহায় হয়ে পড়েছি’

হাওরে যাওয়া হলো না বাবা-ছেলের

হাওরে যাওয়া হলো না বাবা-ছেলের

ঠাকুরগাঁওয়ে স্ত্রীর হাত ও পা ভেঙে দেয়ার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে

ঠাকুরগাঁওয়ে স্ত্রীর হাত ও পা ভেঙে দেয়ার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে

আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মরদেহ হাটহাজারী মাদ্রাসায়

আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মরদেহ হাটহাজারী মাদ্রাসায়

আল্লামা আহমদ শফির চিরপ্রস্থানে দেশময় শোকের ছায়া

আল্লামা আহমদ শফির চিরপ্রস্থানে দেশময় শোকের ছায়া