About Us
Verified আই নিউজ বিডি ডেস্ক
প্রকাশ ৩১/০৮/২০২০ ০২:০৭এ এম

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থ্রী-জি ফোর-জী ইন্টারনেট সেবা চালু

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থ্রী-জি ফোর-জী ইন্টারনেট সেবা চালু Ad Banner

আন্তর্জাতিক চাপের মুখেই রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থ্রী-জি ফোর-জী ইন্টারনেট সেবা চালু করতে বাধ্য হলো বাংলাদেশ। আই নিউজ বিডির কাছে বিষয়টি স্বীকার করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তবে শুধু বিদেশীদের চাপেই না, নিরাপত্তার স্বার্থে নিজস্ব নেটওয়ার্ক দ্বারা রোহিঙ্গাদের নিয়ন্ত্রণে এই ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে বলে জানান তিনি। 

এখন আর এখন বিশেষ বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে রোহিঙ্গারা সিম কার্ড কিনতে পারবে বলে জানান ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তফা জব্বার। 

রোহিঙ্গাদের নিয়ে কাজ করা আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর দীর্ঘ দাবির মুখে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থ্রী-জি ফোর-জি ইন্টারনেট সেবা চালু করল বাংলাদেশ। বিশ্বে এই প্রথম বাস্তুহারাদের সবচেয়ে বড় ক্যাম্পে এমন সেবা সরবরাহ করা হলো। হঠাৎ কেন এই সিদ্ধান্ত? আন্তর্জাতিক চাপের কথা স্বীকার করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। 

রোহিঙ্গারা বাংলাদেশে ইন্টারনেট সেবা না পেয়ে সীমান্ত এলাকায় মিয়ানমারের নেটওয়ার্ক ব্যবহার করে বিভিন্নভাবে যোগাযোগ চালিয়ে যাচ্ছিল। 

অন্য দেশের নেটওয়ার্টের আওতায় থাকায় সাইবার জগতে তাদের গতিবিধির উপর নগজদারি রাখাও কঠিন হচ্ছিল আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর।  বাইরের কোনো সন্ত্রাসী গ্রুপ যাতে রোহিঙ্গাদের সংগঠিত করতে বা উস্কানি দিতে না পারে সেজন্যই এই ব্যবস্থা- জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।  থ্রী-জি ফোর-জি চালুর বিষয়টি নিশ্চিত করে ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তফা জব্বার জানান, এখন থেকে বিশেষ বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে সিম কিনতে পারবে রোহিঙ্গারা। 

নিরাপত্তা প্রশ্নে এতোদিন রোহিঙ্গাক্যাম্প এলাকায় থ্রী-জি ফোর-জী সেবা বন্ধ রাখলেও সেই একই কারণে আবার তা চালু করল সরকার। এ নিয়ে নানা শঙ্কা-আশঙ্কা প্রকাশ করছেন নিরাপত্তা বিশ্লেষক ও স্থানীয় বাসিন্দারা।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ