About Us
মোঃ হোসাইন আলী কাজী
প্রকাশ ২৮/০৮/২০২০ ০৮:৪৬পি এম

আমতলীতে অনাস্থার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সমাবেশ।

আমতলীতে অনাস্থার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সমাবেশ। Ad Banner

বরগুনার আমতলী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ¦ গোলাম সরোয়ার ফোরকানকে অনৈতিক ও ষড়যন্ত্রমুলক অনাস্থা প্রস্তাবের বিরুদ্ধে শুক্রবার সন্ধ্যায়  মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে চাওড়া ইউনিয়ন বাসী। চাওড়া ইউনিয়ন বাসীর উদ্যোগে তালুকদার বাজারে এ সমাবেশে অন্তত সহস্রাধীক মানুষ অংশগ্রহন করেন।   

জানাগেছে, আমতলী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ¦ গোলাম সরোয়ার ফোরকানের অনাস্থা প্রস্তাবকে কেন্দ্র করে আমতলীতে চলছে তুলকালাম কান্ড। তার সমর্থক ও সাধারণ মানুষ এ অনাস্থা প্রস্তাবকে প্রত্যাখ্যান করে সামাজিক আন্দোলনের ডাক দিয়েছেন। ওই আন্দোলনের ধারাহিকতায় উপজেলার ইউনিয়নে ইউনিয়নে চলছে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ।

গত পাঁচ দিন ধরে চলছে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ। ঝড় বৃষ্টি উপেক্ষা করে হাজার হাজার মানুষ মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে অংশ গ্রহন করছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নের তালুকদার বাজারে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। ওই মানববন্ধন ও সমাবেশে অন্তত সহস্রাধীক মানুষ অংশ গ্রহন করেন। আওয়ামীলীগ নেতা আশ্রাব আলীর সভাপতিত্বে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন উপজেলা যুবলীগ সভাপতি প্রভাষক জিএম ওসমানী হাসান, জেলা পরিষদ সদস্য মোসাঃ শাহিনুর তালুকদার,উপজেলা সেচ্ছাসেবক  লীগ সভাপতি সাবেক কাউন্সিলর মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন খান, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আলমগীর হোসেন মোল্লা, আওয়ামীলীগ নেতা আসাদুজ্জামান মিন্টু মল্লিক, উপজেলা যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ জাহিদ দেওয়ান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কেএম তানজিল, সাবেক চাওড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি মোঃ আলতাফ হোসেন হাওলাদার, আওয়ামীলীগ নেতা দিলসাদ পারভেজ রিপন তালুকদার, চাওড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক ইউপি সদস্য সফিজ উদ্দিন প্যাদা, ইউপি সদস্য গাজী জয়নাল আবেদীন, শহীদুল ইসলাম মোল্লা, তরিকুল ইসলাম নিপু হাওলাদার, জাকির হোসেন মৃধা, গাজী জসিম উদ্দিন, ও নজরুল ইসলাম প্রমুখ।  সমাবেশে বক্তারা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে অনাস্থা প্রস্তাব অযৌক্তিক দাবী করে বলেন, এই অযৌক্তিক অনাস্থা প্রস্তাব জনগন প্রত্যাখ্যান করেন। অনতিবিলম্বে এই অযৌক্তিক অনাস্থা প্রস্তাব তুলে নেওয়ার দাবী জানান তারা।   

উল্লেখ গত ১৭ আগষ্ট আমতলী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান  আলহাজ¦ গোলাম সরোয়ার ফোরকানের বিরুদ্ধে পরিষদ পরিচালনায় ব্যর্থ এবং ব্যাক্তি স্বার্থে অনৈতিক সুবিধাসহ ১০ টি অভিযোগ এনে আমতলী পৌর মেয়র মতিয়ার রহমান, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ মজিবুর রহমান ও ৭ টি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানসহ ১২ জন সদস্য বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার বরাবর অনাস্থা প্রস্তাব দেন। ওই অনাস্থা প্রস্তাব জনগন প্রত্যাখ্যান করে সামাজিক আন্দোলনের ডাক দেন। 

আমতলী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ¦ গোলাম সরোয়ার ফোরকান বলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক পৌর মেয়র মতিয়ার রহমান, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মজিবুর রহমানসহ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদের অনৈতিক প্রস্তাব আমি মেনে নেইনি বিধায় তারা ক্ষুব্ধ হয়ে আমার বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব দিয়েছেন। তিনি আরো বলেন, তারাতো শুরু থেকেই আমার বিরুদ্ধে ছিল। উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তারা আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থীর বিরুদ্ধে গিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে নির্বাচন করেছেন। আমি নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তারাই আমার বিরুদ্ধে একটার পর একটা ষড়যন্ত্র লিপ্ত আছেন। যারা আমার বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব দিয়েছেন তাদের বিগত দিনের কর্মকান্ড তদন্ত করে দেখার দাবী জানাই।


শেয়ার করুন

সম্পর্কিত সংবাদ