Monir
প্রকাশ ০২/০৩/২০২২ ১২:২৩পি এম

হাতকড়া নিয়ে ঘোরাঘুরি, জনতার হাতে আটক ‘পুলিশ সোর্স’

হাতকড়া নিয়ে ঘোরাঘুরি, জনতার হাতে আটক ‘পুলিশ সোর্স’
ad image
পটুয়াখালীর বাউফলে হাতকড়া নিয়ে ঘোরাঘুরির সময় আবদুল্লাহ (১৮) নামে পুলিশের এক ‘সোর্সকে’ আটক করেছে স্থানীয় লোকজন।মঙ্গলবার বিকালে উপজেলার দাসপাড়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের কমিউনিটি সেন্টার এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। পরে পুলিশের চাপে তাকে ছেড়ে দেন এলাকাবাসী। সোর্স আবদুল্লাহ দাসপাড়া ইউনিয়নের খেজুরবাড়িয়া গ্রামের মৃত হাসেম মল্লিকের ছেলে।সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বিকাল পৌনে ৩টার দিকে আবদুল্লাহ ওই ইউনিয়নের ১নং

ওয়ার্ডের দাশপাড়া গ্রামের কমিউনিটি সেন্টারের আশপাশে পুলিশের হাতকড়া নিয়ে ঘোরাঘুরি করছিল।এ সময় ওই এলাকার বাবলু কাজী নামে এক যুবক তাকে পুলিশের হাতকড়া নিয়ে ঘোরাঘুরির কারণ জানতে চাইলে ওই যুবক বলেন, তিনি বাউফল থানার এএসআই শামীমের সোর্স হিসেবে কাজ করেন। তাকে আসামি গ্রেফতারের জন্য ওই এএসআই হাতকড়াটি দিয়েছেন। এ সময় এলাকার ৫-৭ লোক জড়ো হন।

একপর্যায়ে তারা আবদুল্লাহকে আটক করেন। এ খবর পেয়ে ওই যুবকের বড় বোন পারভিন বেগম ঘটনাস্থলে আসে এবং তার ভাইকে ছেড়ে দেওয়ার জন্য দেনদরবার শুরু করেন। পরে পুলিশের চাপে ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে ওই যুবককে এলাকাবাসী ছেড়ে দেন। পরে আবদুল্লাহকে নিয়ে তার বোন পারভিন থানার উদ্দেশ্যে চলে যান।তবে এএসআই শামীম বলেন, আবদুল্লাহ আমার সোর্স নয়। ভুলবসত মোটরসাইকেল চালকের কাছে আমার হাতকড়া রেখেছিলাম।এ ব্যাপারে বাউফল থানার ওসি আল মামুন যুগান্তরকে বলেন, পুলিশের হাতকড়া অন্য কারও কাছে থাকার সুযোগ নেই। এএসআই শামীম তাকে হাতকড়া দিয়ে থাকলে অন্যায় করেছেন। আমি ব্যবস্থা নিচ্ছি।

শেয়ার করুন

ad image

সম্পর্কিত সংবাদ