꧁ রতন ইন‌তিসার꧂ - (Jamalpur)
প্রকাশ ২৪/০১/২০২২ ০৩:৪৪পি এম

Bakshiganj: জমি নিয়ে দুই পক্ষ মুখোমুখি। আদালতের নির্দেশনা উপেক্ষিত

Bakshiganj: জমি নিয়ে দুই পক্ষ মুখোমুখি। আদালতের নির্দেশনা উপেক্ষিত
ad image
বকশীগঞ্জে বিজ্ঞ আদালতের দির্শেনা উপেক্ষা করে জমি দখল ও প্রতিরোধ করার চেষ্টা করছেন দুই পক্ষ। ফলে যে কোন সময় উক্ত জমি নিয়ে আইনশৃংখলার অবনতির আশংকা বিরাজ করছে।

জানা যায়, প্রতিবেশি শ্রীবরদী উপজেলার কাকিলাকুড়া গ্রামের মৃত কালুম উদ্দিন শেখের ওয়ারিশ রুবেলসহ ৬জন বাদী হয়ে বকশীগঞ্জ উপজেলার চরকাউরিয়া সীমারপাড় গ্রামের ফুলুসহ ৬জনকে বিবাদী করে জামালপুরের বকশীগঞ্জের বিজ্ঞ সহকারীজজ আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন।

বকশীগঞ্জ উপজেলার চরকাউরিয়া মৌজার ৫৭.৩০ শতক জমির মালিকানা নিয়ে মৃত কালুম উদ্দিন শেখের ওয়ারিশ রুবেলসহ ৬জন বাদী উল্লেখিত বিবাদীগণের বিরুদ্ধে ওই মামলা দায়ের করেন। জামালপুরের বকশীগঞ্জের বিজ্ঞ সহকারীজজ আদালতের মামলা নং ৩১৫/২০২১(অন্য)। মামলা দায়েরের পর আইনগত প্রক্রিয়ার এক পর্যায়ে বিজ্ঞ আদালত একটি নির্দেশনা জারি করেন।

আদালতের নির্দেশনায় বলা হয়-“ বিবাদীপক্ষ লিখিত আপত্তি দাখিল করিয়া শুনানি না করা পর্যন্ত নালিশী ভূমিতে উভয় পক্ষকে স্থিতিবস্থা বজায় রাখার নির্দেশনা দেওয়া গেলো”। কিন্তু আদালতের নির্দেশনা অমান্য করে জমি দখলের পায়েতারা ও দখল প্রতিরোধের বিষয়ে দুই পক্ষই অনড় অবস্থানে রযেছে। তাই যে কোন সময় নালিশী ভূমিতে আইন শৃংখলার অবনতি হতে পারে।

এব্যাপারে মামলার বাদী রুবেল জানান, আমিসহ ৬জন বাদী আদালতে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করেছি। আদালতের নির্দেশনা অমান্য করলে আদালতে মামলা দায়ের করতাম না। তবে প্রতিপক্ষ আদালতের র্নিদেশনা অমান্য করলে সম্মপদ রক্ষার স্বার্থে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার অধিকার আমার আছে।
মামলার বিবাদী ফুলু জানান, আইনের প্রতি শ্রদ্ধা আমার আছে। আমার জমি ভোগ দখলে কেউ বাধা দিলে আমিও আইনের আশ্রয় নিবো।

শেয়ার করুন

ad image

সম্পর্কিত সংবাদ