Feedback

জাতীয়, অপরাধ

নারীদেরও নির্যাতন করতেন ওসি প্রদীপ

নারীদেরও নির্যাতন করতেন ওসি প্রদীপ
August 14
09:31am
2020
Nazrul
Uttara, Dhaka, প্রতিনিধি:
Eye News BD App PlayStore

টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশের সীমাহীন অত্যাচারে অতিষ্ঠ ছিল এলাকাবাসী। যখন-তখন  সাধারণ মানুষকে মাদকবিরোধী অভিযানের দোহাই দিয়ে হয়রানি করা হতো। রেহায় পেতেন না নারীরাও। আসামিদের পরিবারের নারী সদস্য ও আসামি পরিবারের বাইরেও সাধারণ নারীদের থানায় তুলে এনে নির্যাতন করার হতো বলে  অভিযোগ ওঠেছে প্রদীপের বিরুদ্ধে।


এমনকি নারীদের যৌন নির্যাতনের অভিযোগও আছে তার বিরুদ্ধে। সিনহা হত্যা ঘটনায় গ্রেপ্তার হওয়ার পর থেকে তার নানা অপকর্মের খবর জানা গেছে। নির্যাতিত নারীরা গণামাধ্যমে মুখ খুলতে ভয় পাচ্ছেন। কেউ কেউ মানহানির কথা চিন্তা করে যৌন নির্যাতনের মতো ঘটনাগুলো গোপন রাখছে। তবে এলাকাবাসী বলছেন, গত বাইশ মাসে শতাধিক নারীকে থানায় তুলে নিয়ে নির্যাতন করেছে ওসি প্রদীপ।


একবার নাজিরপাড়ায় একটি বাড়িতে এসে হানা দেন ওসি প্রদীপ। সেইদিন রাতে ওই বাড়ির তিন নারীকে তুলে নিয়ে যান তিনি। ঘুম থেকে তুলে থানায় নিয়ে যান ওই পরিবারের দুই পুত্রবধূকে। এরপর তিন নারীকে ত্রিশ হাজার ইয়াবা দিয়ে গ্রেপ্তার দেখান তিনি। এর আগে তাদের গায়ে হাত তোলাসহ শ্লীলতাহানির অভিযোগ তুলেছেন ভুক্তভোগীরা।  


গণমাধ্যমে কথা বলেন বৃদ্ধা নূর বেগম। তিনি বলেন, গত বছরর একদিন রাত দুইটায় ওসি প্রদীপ আমাদের বাড়িতে আসে পুলিশ নিয়ে। এরপর আমার ছেলে জিয়াউর রহমানকে খুঁজে। আমি তাদেরকে খোঁজার কারণ জানতে চাইলে ওসি তার হাতের অস্ত্রটি দিয়ে আমার মাথায় আঘাত করে। পরে আমি আর কিছু বলতে পারবো না। একদিন পর দেখি আমি সদর হাসপাতালে। আমাকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে পুলিশ নিজে হাসপাতালে ভর্তি করিয়েছে।  ওই নারীর  ছোট ছেলে, প্রবাসী কামাল হোসেন বলেন, আমার বড় ভাই লবণ ব্যবসায়ী জিয়াউর রহমানকে পুলিশ খুঁজতে আসে।


তখন আমার ভাই ব্যবসার কাজে গোপালগঞ্জে ছিল। আমার ভাইকে না পেয়ে আমার মা ও আমার দুই ভাবীকে ধরে নিয়ে যায় তারা। আমার দুই ভাবীকে তারা অশ্লীল নানান ইঙ্গিত দেয়। এতে রাজি না হওয়ার তারা আমাদের কাছে ৫০ লাখ টাকা দাবি করে এসআই সঞ্জিতের মাধ্যমে। এত টাকা তখন আমাদের কাছে ছিল না। পরে ছয় লাখ টাকা ম্যানেজ করে দিলেও তারা আমার ভাবী ও মাকে ৩০ হাজার ইয়াবা দেখিয়ে গ্রেপ্তার করে। 


এখানেই থেমে থাকেনি ওসি প্রদীপের কুকর্ম। তাদের পরিবারের বড় ছেলে জিয়াউর রহমানকে গোপালগঞ্জ থেকে টেকনাফে নিয়ে কথিত ক্রসফায়ার দিয়ে মেরে  ফেলার অভিযোগ মিলে। কামাল হোসেন বলেন, এখান থেকেও ক্রসফায়ার না দেওয়ার কথা বলে পনেরো লাখ টাকা নিয়ে যায়। তারপরও ক্রসফায়ারে দেন ওসি প্রদীপ। আমাদের বাড়িটি তারা ভেঙেচুরে সব লুট করে নিয়ে যায়।


এদিকে, চলতি বছরের ২৬শে জুলাইয়ের ঘটনা। টেকনাফের মণ্ডলপাড়ায় ইউনুসের স্ত্রী হাসিনা আক্তারকে রাতের বেলায় নির্যাতন করে গ্রেপ্তার করার অভিযোগ উঠেছে প্রদীপে বিরুদ্ধে। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ওয়ারেন্টভুক্ত এক আসামিকে জায়গা দেওয়ার অভিযোগে তাকে আটক করেন টেকনাফ থানা পুলিশ। প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, তখন সেখানে কোনো নারী পুলিশ সদস্যের উপস্থিতি ছিল না। পুরুষ পুলিশ সদস্যরাই তাকে নানানভাবে শারীরিক নির্যাতন করে তুলে নিয়ে যায়। এরপর তাকে এক হাজার ইয়াবা দিয়ে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। এবং তার বাড়িটি পুলিশ আগুন লাগিয়ে পুড়িয়ে ফেলে। 


একই ঘটনায় পাশের গ্রাম মৌলভীপাড়ার আরো দুইজনকে তুলে নিয়ে যায় পুলিশ। তাদের মধ্যে মিনি টমটম চালক আব্দুল মোত্তালেব ও তার বোন রহিমা আক্তারকে সাক্ষী দেওয়ার কথা বলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে পুলিশ। একই সঙ্গে তাদের বাড়িটি ভাঙচুর চালানো হয়। কিন্তু রহিমা খাতুন পুলিশের সঙ্গে না যেতে চাইলে মরিচের গুঁড়া তার নাকে-মুখে ছিটিয়ে দেয়। পরে ওই নারীকে অসুস্থ অবস্থায় ধরে নিয়ে যায় পুলিশ। 


এই অভিযানে ওসি প্রদীপের নেতৃত্বে উপস্থিত ছিল পুলিশ সদস্য সাগর, সঞ্জিত দত্ত ও রুবেল। পরে আব্দুল মোত্তালেবের শ্বশুর নূরুল ইসলাম থানার দালাল মোহাম্মদ আলীকে নিয়ে তিনলাখ টাকা পুলিশ সদস্য সাগরের হাতে দিলেও ছাড়া পাননি কেউ। উল্টো দুইজনকে দুই হাজার ইয়াবা দিয়ে গ্রেপ্তার  দেখায় টেকনাফ থানা পুলিশ।


এলাকার নারীদেরকে শুধু তুলে নিয়ে যাওয়াই নয়, যখন-তখন তাদেরকে শারীরিক নির্যাতন করার অভিযোগ রয়েছে টেকনাফ থানার পুলিশের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, অনেক নারীকে যৌন হয়রানির অভিযোগও আছে ওসি প্রদীপের বিরুদ্ধে। তেমনি একজন টেকনাফ পৌরসভার পাঁচ নম্বর ওয়ার্ড অলিয়াবাদ গ্রামের একজন নারী যৌন হয়রানির অভিযোগ তুলেছে ওসির বিরুদ্ধে। 


অভিযোগ রয়েছে, ওই এলাকার একজন বাসিন্দাকে ওসির  লোকজন টাকা দাবি করে নিয়মিত হুমকি-ধামকি দিতো। টাকা না দেওয়ার কারণে তিন মাস আগে ওসি নিজে তাদের বাড়ি ঘর ভেঙে দেন। ওই দিন, বাড়ির মালিকের ছেলের স্ত্রীর ঘরে ঢুকে দরজা বন্ধ করে দেন ওসি। সেই সময় তিনি পরিবারের লোকজনদের সরিয়ে দেন। অভিযোগ ওঠে ওই নারীকে ওসি প্রদীপ শ্লীতহানীর চেষ্টা করেন। কিন্তু শ্লীলতাহানী না করতে পেরে তাকে মারধর ও লাথি দেন তিনি। এভাবে টেকনাফে নারী-পুরুষ সবার কাছে আতঙ্কের নাম ওসি প্রদীপ।

All News Report

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

বগুড়ায় ডেকে নিল বান্ধবী, ধর্ষণ করল ‘যুবলীগ নেতা’!

বগুড়ায় ডেকে নিল বান্ধবী, ধর্ষণ করল ‘যুবলীগ নেতা’!

কেন বিয়ে করেননি, জানালেন পপি

কেন বিয়ে করেননি, জানালেন পপি

পাইকগাছায় নার্সের স্বর্নের লকেট ছিনতাই করে পালানোর সময় দু'কলেজ ছাত্র আটক

পাইকগাছায় নার্সের স্বর্নের লকেট ছিনতাই করে পালানোর সময় দু'কলেজ ছাত্র আটক

এনএসআই ও বিজিবি’র যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ আটক-১

এনএসআই ও বিজিবি’র যৌথ অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ আটক-১

হাটহাজারী মাদ্রাসা পরিচালনায় তিন শিক্ষক, বাবুনগরী পেলেন ২ দায়িত্ব

হাটহাজারী মাদ্রাসা পরিচালনায় তিন শিক্ষক, বাবুনগরী পেলেন ২ দায়িত্ব

ঘোড়াঘাটের ইউএনও ওয়াহিদাকে ওএসডি, স্বামীকে বদলী

ঘোড়াঘাটের ইউএনও ওয়াহিদাকে ওএসডি, স্বামীকে বদলী

রেল লাইন স্থাপনে বদলে যাবে রৌমারী-রাজিবপুরের অর্থনৈতিক দৃশ্যপট!

রেল লাইন স্থাপনে বদলে যাবে রৌমারী-রাজিবপুরের অর্থনৈতিক দৃশ্যপট!

কে হচ্ছেন হেফাজতের পরবর্তী আমির

কে হচ্ছেন হেফাজতের পরবর্তী আমির

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

আদালতের ছয় তলা থেকে সেই মজনুর লাফিয়ে পড়ার চেষ্টা

ভুলুয়া ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ অজ্ঞান পাটির খপ্পরে

ভুলুয়া ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ অজ্ঞান পাটির খপ্পরে

সাবেক ওসি প্রদীপের সকল স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

সাবেক ওসি প্রদীপের সকল স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

দিল্লিতে মহিলা ট্যুর গাইডকে গণধর্ষণের অভিযোগ

দিল্লিতে মহিলা ট্যুর গাইডকে গণধর্ষণের অভিযোগ

সাত মাসের অন্ত্বঃসত্তা স্ত্রীর পেট কাটলেন স্বামী!

সাত মাসের অন্ত্বঃসত্তা স্ত্রীর পেট কাটলেন স্বামী!

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসিসহ ৫ জন প্রত্যাহার

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসিসহ ৫ জন প্রত্যাহার

মসজিদে বিস্ফোরণ: গ্রেফতার মোবারক রিমান্ডে

মসজিদে বিস্ফোরণ: গ্রেফতার মোবারক রিমান্ডে

সর্বশেষ

গ্ৰেফতার হলেন ভিপি নূর

গ্ৰেফতার হলেন ভিপি নূর

শেয়ারবাজারে বড় দরপতন

শেয়ারবাজারে বড় দরপতন

যুদ্ধে যাবেন রাজকন্যা! কঠোর সামরিক প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন প্রিন্সেস অব বেলজিয়াম

যুদ্ধে যাবেন রাজকন্যা! কঠোর সামরিক প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন প্রিন্সেস অব বেলজিয়াম

সিগারেটে সুখটান দিচ্ছে কাঁকড়া! ভিডিও ভাইরাল

সিগারেটে সুখটান দিচ্ছে কাঁকড়া! ভিডিও ভাইরাল

সৌদি আরবে ১ লাখ ২০ হাজার বছরের পুরনো মানুষের পায়ের ছাপ পাওয়া গিয়েছে

সৌদি আরবে ১ লাখ ২০ হাজার বছরের পুরনো মানুষের পায়ের ছাপ পাওয়া গিয়েছে

ছাতকে মাদক ও অসামাজিক কার্যক্রমের বিরুদ্ধে এলাকাবাসীর প্রতিবাদ সভা

ছাতকে মাদক ও অসামাজিক কার্যক্রমের বিরুদ্ধে এলাকাবাসীর প্রতিবাদ সভা

শাহরুখ খানকে চড় মারার ইচ্ছে থেকে অভিষেকের ছবির সমালোচনা, জয়া বরাবরই বিতর্কের কেন্দ্রে

শাহরুখ খানকে চড় মারার ইচ্ছে থেকে অভিষেকের ছবির সমালোচনা, জয়া বরাবরই বিতর্কের কেন্দ্রে

সুনামগঞ্জে দুইভাইকে দাড়াঁলো ক্ষুর দিয়ে হামলার ঘটনায় সন্ত্রাসী মোশারফের শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

সুনামগঞ্জে দুইভাইকে দাড়াঁলো ক্ষুর দিয়ে হামলার ঘটনায় সন্ত্রাসী মোশারফের শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

মধ্যনগরে নৌকা ডুবির ঘটনায় নিহত স্বজনদের মাঝে আর্থিক সাহায্য প্রদান করেন - এমপি রতন

মধ্যনগরে নৌকা ডুবির ঘটনায় নিহত স্বজনদের মাঝে আর্থিক সাহায্য প্রদান করেন - এমপি রতন

যেকোনো অ্যাপ থেকে Lucky Patcher দিয়ে অ্যাড রিমুভ করুন চিরতরে

যেকোনো অ্যাপ থেকে Lucky Patcher দিয়ে অ্যাড রিমুভ করুন চিরতরে

মন্ত্রণালয় চাইলে স্কুল কলেজ খুলতে পারে- সচিব

মন্ত্রণালয় চাইলে স্কুল কলেজ খুলতে পারে- সচিব

কিশোরগঞ্জের ইটনায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠির মাঝে অনুদানের চেক বিতরণ

কিশোরগঞ্জের ইটনায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠির মাঝে অনুদানের চেক বিতরণ

ব্রাক্ষণবাড়ীয়া প্রেসক্লাবের  দ্বি বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত   জামি সভাপতি, বিজন সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত

ব্রাক্ষণবাড়ীয়া প্রেসক্লাবের দ্বি বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত জামি সভাপতি, বিজন সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত

বগুড়ায় চলন্ত ট্রেনে কাটা পড়ে যুবকের মৃত্যু

বগুড়ায় চলন্ত ট্রেনে কাটা পড়ে যুবকের মৃত্যু

কালীগঞ্জে রাস্তা নির্মানের ৭ দিনেই উঠে যাচ্ছে পিচ

কালীগঞ্জে রাস্তা নির্মানের ৭ দিনেই উঠে যাচ্ছে পিচ