Feedback

সাহিত্য

ফিরে আসার গল্প-০১

ফিরে আসার গল্প-০১
August 05
12:18am
2020
Tomal Hossain
Gazipur, Gazipur:
Eye News BD App PlayStore

★সব সময় তোকে চাই★

কেমন আছেন সবাই আশা করি ভাল আছেন মহান আল্লাহর দয়ায়।আমাদের জিবনে নানা ঘটনা ঘটে যায় কিছু মনে থাকে কিছু আবার কালের রিবরনে ঢাকা পরে যায়। আজকে তেমনি একটি ঘটনা লিখলাম। ঘটনাটি কাল্পনিক হলেও বাস্তবতা কতটুকু তা মতামতে জানাবেন।


রুমা:আমাকে কখনও ছেড়ে যাবি নাতো!!

রেহানা:উত্তরটা কি শুনতে চাস তুই??

রুমা: তুই বুঝিস না!! কি শুনতে চাই আমি?

রেহানা: (একটুক্ষণ চুপ করে থেকে)

         তোকে আমি জান্নাতেও আমার বেস্টু হিসেবে চাই।

রুমা: ( মেসেজের দিকে তাকিয়ে আছি, চোখ ঝাপসা হয়ে আসছে,কিছু বলতে পারছিনা)

রেহানা:কিন্তু,জান্নাতে যেতে হলে যে আমাদের দু'জনকেই অনেক কিছু জানতে হবে অনেক কিছু মানতেও হবে। জান্নাতে এত সহজে যাওয়া যায়না রে।

রুমা:( এবার ঝাপসা চোখ থেকে ভারি বস্তুটা নিচে গড়িয়ে পড়ল।লেখাটা এবার স্পষ্ট দেখতে পাচ্ছি। কিন্তু,কিছুই বলতে পারছিনা।)

রেহানা: আমাদের দু'জনকেই জান্নাতে যেতে হলে দুনিয়াবি অনেক কিছু ছাড়তে হবে।জান্নাতে যাওয়ার মতো কাজ করতে হবে।


তারপর আরও অনেক কথা বলে অফলাইনে গেলাম।আমরা দু'জন বেস্ট ফ্রেন্ড। দু'জন আপাতত পৃথিবীর দু প্রান্তে আছি।তবুও যেন ও আমার অনেক কাছেই আছে।আল্লাহর জন্য ওকে ভালবাসি। 


আলহামদুলিল্লাহ।

আমাদের দু'জনেরই পরিবর্তন হয়েছে।ওর আগে পরিবর্তন হয় তারপর আমার।আমরা বেস্টু হলেও সবসময় কাছাকাছি থাকতে পারিনি।কিন্তু পাশে ছিলাম একে ওপরের।কাছাকাছি না থাকায় অনেক বিষয় প্রপারলি শেয়ার করতে পারিনি কেউ।মিডিয়ার মাধ্যমে যে টুকু হয় আরকি!


শিক্ষাজীবনের শুরুতেই আমাদের বন্ধুত।আমরা প্রায় একসাথেই সবকিছু করতাম।তবে ইসলাম সম্পর্কে ততটুকুই জানতাম যতটুকু বর্তমান মুসলিম পরিবার জানে।শালীনতার সাথেই স্কুল লাইফ কেটেছে।তবে পর্দা করতাম না।ক্লাস সিক্স থেকেই ড্রেসের উপর হেজাব করতাম।ভাবতাম এর থেকে বেশিকিছু করা লাগবেনা। এভাবেই কেটে যায় আমাদের স্কুল লাইফ।

কলেজ লাইফে দুজন আলাদা হয়ে গেলাম।ভিন্ন কলেজ,ফোনের মাধ্যমে যতটুকু কথা হতো ওইটুকুই।তবে কলেজে উঠে দুজনেই বোরকা কিনি। ডিজিটাল ফ্যাশনের বোরকা আর ফুলকো ফুলকো হেজাব।আমিতো আবার কোনো অনুষ্ঠানে গাউনও পরতাম।আম্মুর কথা শুনে হেজাব করতাম অবশ্য কিন্তু মন থেকে নয়।আবার হেজাব করে সাজ-গোঁজও করতাম।সাথে অজস্র সেলফি।(আল্লাহুমাগফিরলী)


তারপর হঠাৎ আমার বেস্টুর বিয়ে ঠিক হয়ে গেল।ও নিজেও জানতোনা ওর বিয়ে।মাত্র ৩ দিন আগে জানতে পারে।তারপর আমাকে জানায়।দু'জনেই তখন একটা সামাজিক বেহায়া পনার রুলসের কথা জানতাম...."১৮ বছরের আগে বিয়ে?? এটা তো বাল্যবিবাহ! এত অল্প বয়সে বিয়ে! আমরা তো পড়াশোনা শেষ করে বিয়ে করতে চাই।"ইত্যাদি ইত্যাদি।


কিন্তু,বেস্টুর পরিবার একদম সঠিক সিদ্ধান্ত নেয়।"আলহামদুলিল্লাহ্।" আমার বেস্টুর বিয়ে হয়ে গেল।তারপর যা হলো..!সে বিষয়ে আমরা কেউই অবগত ছিলাম না।"আল্লাহ্ যা জানেন আমরা তা জানিনা।নিশ্চয় তিনি সুপরিকল্পনাকারী।"


আমি বুঝতে পেরেছিলাম ও চেন্স হয়ে গেছে।ফোনে ও তেমন কিছু  বলতে পারতোনা।শুধু বলতো,তোকে আমার অনেক কিছু বলার আছে।জানানোর আছে।ভাবতাম দুনিয়াবি কিছুই বলবে হয়তো।কিন্তু না।


একদিন ওর সাথে দেখা হলো।দেখি পুরো কালো বোরকা,নেকাব,পা মোজা জুতা পরে আসছে।আমি চিনতে পারছিলাম না।বাট বেস্টু তো ওকে না চিনলে হয়!!!তারপরের আনন্দের মূহুর্তটা না হয় নাই বললাম।

কিন্তু,তখনও আমি সেই আগের আমিই।ডিজিটাল বোরকাওয়ালী আর ফুলকো হেজাবী। আল্লাহর রহমতে আমিও পাল্টে গেলাম।নিজেকে কালো বোরকা,নেকাবে আবৃত করে ফেললাম।ইসলামের প্রতিটা বিষয় অনেক অনেক সূক্ষ্মভাবে জানতে শুরু করলাম।আল্লাহ্ যেন আমার পথকে সহজ করে দিলেন।আমার বেস্টু আমাকে অনেক হেল্প করেছে।তোকেও আমি জান্নাতে আমার বেস্টু হিসেবেই চাই।


বেস্টু আমাকে এই গ্রুপে ইনভাইট দেয়।তারপর আরও অনেক ইসলামিক গ্রুপে এড হইলাম।পর্দাটা আসলে কত গুরুত্বপূর্ণ সেটা বুঝলাম এবং অন্তর দিয়ে উপলদ্ধি করলাম।তারপর হাত মোজা পা মোজা কিনে আনলাম।নন-মাহরাম সম্পর্কে জানলাম।অনলাইনে ছেলেদের অ্যানফেন্ড করে ব্লক করলাম।অফলাইনে নন-মাহরাম মানতে তেমন প্রবলেম হলোনা কারণ আমরা একক ফ্যামিলি।


কুরআন অর্থসহ পড়তে শুরু করলাম।বুখারি শরীফসহ অনেক ইসলামিক বই আর ওয়াজ এবং পর্দা গ্রুপটি বেশি ফলো করলাম।এখনও এগুলা কনটিনিউ করছি কারণ এখনও অনেক কিছু জানার বাকি।


খুব সহজ ছিলনা চলার পথগুলো।

ফ্যামিলি,রিলেটিভস,প্রতিবেশি,ফ্রেন্ড সার্কেল এদের মধ্যে গুটিকতক তো আপনাকে খোচাঁ দিবেই।কিন্তু এতটুকুও গায়ে লাগেনি কারণ আমি আমার রবের কাছাকাছি আসতে পেরে যে প্রশান্তি পেয়েছি তা আমি জীবনেও হারাতে চাইনা।অন্তর দিয়ে যখন আমার রবকে ডাকি চোখ ঝাপসা হয়ে আসে।তারপর ওইযে চোখের ভারি অথচ তরল বস্তুটি গড়িয়ে পড়লেই যে প্রশান্তি অন্তরে লাগে আমার মনে হয়না সেটা দুনিয়ার আর কোথাও পাওয়া যাবে!হে রাহমানির রাহিম,সকল প্রশংসা শুধু তোমারই জন্য।


শুধু পর্দা নয়।মুসলমানের প্রতিটা পদেই ভাবতে হবে কোনটা করলে আমার আল্লাহ্ খুশি হবেন।

এখন আমরা দু'জনেই(আমি আর রেহানা) অসামাজিক। ওইযে, সামাজিক বেহায়া পনার রুলসটা যে কতটা অযৌক্তিক, হাস্যকর সেটুকু বোঝার তাওফিক আল্লাহ্ দিয়েছেন।আলহামদুলিল্লাহ্।

All News Report

Add Rating:

0

সম্পর্কিত সংবাদ

ট্রেন্ডিং

বৌভাত অনুষ্ঠানে বরের জানাজা, কনে হাসপাতালে

বৌভাত অনুষ্ঠানে বরের জানাজা, কনে হাসপাতালে

পিরামিডের সামনে অশ্লীল ফটোশুট, গ্রেপ্তার মডেল ও ফটোগ্রাফার

পিরামিডের সামনে অশ্লীল ফটোশুট, গ্রেপ্তার মডেল ও ফটোগ্রাফার

সাহসী লুকে ধরা দিলেন ঋতুপর্ণা

সাহসী লুকে ধরা দিলেন ঋতুপর্ণা

নারায়ণগঞ্জে সুন্নতে খতনার অনুষ্ঠানে নাচতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

নারায়ণগঞ্জে সুন্নতে খতনার অনুষ্ঠানে নাচতে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

ব্যবহার করা চা পাতা ফেলে দিচ্ছেন?  উপকারিতা জানলে আপনিও চমকে উঠবেন

ব্যবহার করা চা পাতা ফেলে দিচ্ছেন? উপকারিতা জানলে আপনিও চমকে উঠবেন

কিশোরের পুরুষাঙ্গ কেটে দিল বন্ধুরা

কিশোরের পুরুষাঙ্গ কেটে দিল বন্ধুরা

হাইমচরের পারুল হত্যা মামলায় আটক ৩

হাইমচরের পারুল হত্যা মামলায় আটক ৩

স্ত্রীর পরকীয়া প্রেমিক সেজেছেন স্বামী

স্ত্রীর পরকীয়া প্রেমিক সেজেছেন স্বামী

৬টি ঘরোয়া উপায়ে এভাবেই আরশোলার বংশ ধ্বংস করুন

৬টি ঘরোয়া উপায়ে এভাবেই আরশোলার বংশ ধ্বংস করুন

ভাস্কর্য সংকট নিরসনে শীর্ষ আলেমদের ৫ দফা প্রস্তাব

ভাস্কর্য সংকট নিরসনে শীর্ষ আলেমদের ৫ দফা প্রস্তাব

দুপচাঁচিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় সেনা সদস্য নিহত

দুপচাঁচিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় সেনা সদস্য নিহত

পোশাক ও বয়স নিয়ে ট্রোলের শিকার জয়া আহসান

পোশাক ও বয়স নিয়ে ট্রোলের শিকার জয়া আহসান

স্মৃতিশক্তি বাড়ানোর ১২ উপায় জেনে নিন

স্মৃতিশক্তি বাড়ানোর ১২ উপায় জেনে নিন

বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের উপনির্বাচন, নৌকার কর্মীরা বোমাবাজি ও সন্ত্রাস শুরু করেছে , দাবি শামসুর রহমানের

বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের উপনির্বাচন, নৌকার কর্মীরা বোমাবাজি ও সন্ত্রাস শুরু করেছে , দাবি শামসুর রহমানের

শরীরে ইমিউনিটি বাড়াতে সকালের নাস্তায় যা খাবেন

শরীরে ইমিউনিটি বাড়াতে সকালের নাস্তায় যা খাবেন

সর্বশেষ

ইতালিতে দরজা খুললো নতুন ভিসার

ইতালিতে দরজা খুললো নতুন ভিসার

সিরাজগঞ্জ, শীতার্তদের মাঝে শীতবস্র বিতরণ করলেন সাংসদ জয়

সিরাজগঞ্জ, শীতার্তদের মাঝে শীতবস্র বিতরণ করলেন সাংসদ জয়

ভাস্কর্য নিয়ে বিতর্ক, যা থেকে সৃষ্টি হচ্ছে বিশৃঙ্খলা

ভাস্কর্য নিয়ে বিতর্ক, যা থেকে সৃষ্টি হচ্ছে বিশৃঙ্খলা

সাসকো ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ফ্রি খাবার বিতরণ

সাসকো ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ফ্রি খাবার বিতরণ

নিজের ভাইয়ের ওভারে ৬ বলে ৬ ছক্কা

নিজের ভাইয়ের ওভারে ৬ বলে ৬ ছক্কা

বড় ভাই পুলিশে ধরিয়ে দেয়ায় দেড় যুগ পর নির্মম প্রতিশোধ ছোট ভাইয়ের

বড় ভাই পুলিশে ধরিয়ে দেয়ায় দেড় যুগ পর নির্মম প্রতিশোধ ছোট ভাইয়ের

বগুড়া ধুনটে এলাঙ্গী ইউনিয়ন কৃষক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন

বগুড়া ধুনটে এলাঙ্গী ইউনিয়ন কৃষক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন

চট্টগ্রাম মহানগর সৈনিক লীগের উদ্যোগে পতেঙ্গা কাটগর মোড়ে এ্যাড.মাহবুবুর রহমানের মাক্স বিতরণ

চট্টগ্রাম মহানগর সৈনিক লীগের উদ্যোগে পতেঙ্গা কাটগর মোড়ে এ্যাড.মাহবুবুর রহমানের মাক্স বিতরণ

শ্যামনগরে আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবসে সিপিপির র‌্যালী

শ্যামনগরে আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবসে সিপিপির র‌্যালী

আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবস উদযাপন করলো বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি চট্টগ্রাম সিটি ইউনিট

আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবস উদযাপন করলো বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি চট্টগ্রাম সিটি ইউনিট

নতুন পরিচয়ে শিল্পা

নতুন পরিচয়ে শিল্পা

বানারীপাড়ায় স্বাস্থ্যবিধি না মানায় মোবাইল কোর্টে ১৬ জনের জরিমানা

বানারীপাড়ায় স্বাস্থ্যবিধি না মানায় মোবাইল কোর্টে ১৬ জনের জরিমানা

বেড়াতে নিয়ে মাদ্রাসা ছাত্রের গোপনাঙ্গ কেটে নিল বন্ধুরা!

বেড়াতে নিয়ে মাদ্রাসা ছাত্রের গোপনাঙ্গ কেটে নিল বন্ধুরা!

অনির্বাণ লাইব্রেরীর উদ্যোগে পাইকগাছায় শিক্ষার্থীদের মাঝে সাইকেল বিতরণ

অনির্বাণ লাইব্রেরীর উদ্যোগে পাইকগাছায় শিক্ষার্থীদের মাঝে সাইকেল বিতরণ

যশোরের চৌগাছায় ভারতে পাচারকালে ৬০ পিস স্বর্ণের বার উদ্ধার

যশোরের চৌগাছায় ভারতে পাচারকালে ৬০ পিস স্বর্ণের বার উদ্ধার