স্বাধীনতা দিবসে মিথিলার চমক

বিয়ের পর একটি নাটক ও টেলিভিশন অনুষ্ঠানে দেখা গেছে রাফিয়াত রশিদ মিথিলাকে। এবার তিনি হাজির হলেন মহান মুক্তিযুদ্ধের উপর নির্মিত ওয়েব সিরিজ ‘একাত্তর’-এ। শিবব্রত বর্মের চিত্রনাট্যে থ্রিলার ঘরানার সিরিজটি পরিচালনা করেছেন তানিম নূর।

এখানে পাকিস্তানি সাংবাদিকের চরিত্রে অভিনয় করেছেন মিথিলা। তার চরিত্রটির নাম ‘রুহি’। পাশাপাশি ওয়েব সিরিজটিতে মেজর ওয়াসিমের স্ত্রীর চরিত্রেও দেখা যাবে তাকে।

নতুন ওয়েব সিরিজটি নিয়ে মিথিলা বলেন, বেশ কিছু চমক আছে ওয়েব সিরিজটিতে। কাজটির জন্য আমাকে অনেক পরিশ্রম করতে হয়েছে। উর্দু ভাষা শিখতে হয়েছে। আশা করি, সবার ভালো লাগবে ওয়েব সিরিজটি।

এই ওয়েব সিরিজটিতে ঢাকা বিশ্ব বিদ্যালয়ের ছাত্রী জয়িতার চরিত্রে অভিনয় করেছেন আরেক অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা। পাকিস্তানি আর্মি মেজর ওয়াসিম চরিত্রে অভিনয় করেছেন ইরেশ জাকের। পাকিস্তানি আর্মি ক্যাপ্টেন সিরাজ চরিত্রে অভিনয় করেছেন মোস্তাফিজুর নূর ইমরান, পুরনো ঢাকার ছেলে সেলিম চরিত্রে অভিনয় করেছেন মোস্তফা মনোয়ার।

গল্পে দেখা যাবে, একাত্তর’র কাহিনীর সূচনা হয় ১৯৭১ সালের শুরুতে, যখন আন্দোলনে পুরোদেশ। এদেশের মানুষেদের তাদের ন্যায্য অধিকার থেকে করতে ‘অপারেশন ব্লিটজ’ নামে একটি অপারেশনের প্ল্যান করে পাকিস্তান আর্মি। ক্যাপ্টেন সিরাজ নামের এক বাঙালি অফিসার গোপনে সেই ফাইল যোগাড় করে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের হাতে তুলে দিতে চায়। তার পেছনে ধাওয়া করে পাকিস্তানী মেজর ওয়াসিম।

এসময় ক্যাপ্টেন সিরাজ জীবন বাঁচাতে সেলিমের গ্যারেজে আশ্রয় নেয়। ফাইলটি গণমধ্যমের হাতে পৌঁছাতে ক্যাপ্টেন সিরাজ মেজর ওয়াসিমের স্ত্রী সাংবাদিক রুহি বাটেরর সাহায্য চায়। রুহি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেয়। সেলিমের সঙ্গে জয়িতা, প্রদীপ এবং অন্যান্যরা ২৫ মার্চ রাতে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলে। এমনই এক গল্প নিয়ে তৈরি হয়েছে ‘একাত্তর’।

বৃহস্পতিবার এই ওয়েব সিরিজটি ভিডিও স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্ম ‘হইচই’ এ মুক্তি পেয়েছে। যারা ‘হইচই’ এ রেজিষ্ট্রেশন করেছেন তারা দেখতে পারবেন ওয়েব সিরিজটি।

মতামত দিন

avatar